এশিয়ায় বিদেশি মুদ্রার সবচেয়ে বড় মজুদ চীনে

এশিয়ায় বিদেশি মুদ্রার সবচেয়ে বেশি মজুদ রয়েছে চীনে। দ্বিতীয় বড় মজুদ জাপানে হলেও, চীনের কাছে রয়েছে জাপানের চেয়ে আড়াই গুণ বেশি বৈদেশিক মুদ্রা।
asia foreign exchange reserve dataleads ann

এশিয়ায় বিদেশি মুদ্রার সবচেয়ে বেশি মজুদ রয়েছে চীনে। দ্বিতীয় বড় মজুদ জাপানে হলেও, চীনের কাছে রয়েছে জাপানের চেয়ে আড়াই গুণ বেশি বৈদেশিক মুদ্রা।

সম্প্রতি, চীনের বিদেশি মুদ্রার মজুদ খানিকটা কমলেও বর্তমানে দেশটির হাতে রয়েছে ৩.৪৮৩ ট্রিলিয়ন ডলারের বৈদেশিক মুদ্রার ভাণ্ডার। জাপানের মজুদ বৈদেশিক মুদ্রার পরিমাণ ১.২১ ট্রিলিয়ন ডলার।

এদিকে, দক্ষিণ কোরিয়া এবং ভারতের হাতেও বৈদেশিক মুদ্রার একটি বড় মজুদ রয়েছে। বিশ্ব ব্যাংকের তথ্য অনুযায়ী, ফিলিপাইনে বৈদেশিক মুদ্রার মজুদ ৪৮০ বিলিয়ন ডলার, দক্ষিণ কোরিয়ার মজুদ ৩৭০ বিলিয়ন ডলার এবং ভারতে এর পরিমাণ ৩৬১ বিলিয়ন ডলার।

এশিয়ার অন্যান্য দেশের হাতে বৈদেশিক মুদ্রা মজুদের পরিমাণ: সিঙ্গাপুর (২৫১ বিলিয়ন ডলার), থাইল্যান্ড (১৭১ বিলিয়ন ডলার) এবং ইন্দোনেশিয়া (১৬৬ বিলিয়ন ডলার)। মালয়েশিয়া ও ভিয়েতনামে বৈদেশিক মুদ্রা মজুদ যথাক্রমে ৯৪ বিলিয়ন ডলার ও ৩৬ বিলিয়ন ডলার।

আন্তর্জাতিক মুদ্রা তহবিল (আইএমএফ) এর মতে, বৈদেশিক মুদ্রার মজুদ নির্ভর করে বিদেশি মুদ্রার নোট, বিদেশি ব্যাংকে মজুদ, সরকারের ঋণ, স্বর্ণের মজুদ ইত্যাদির ওপর।

প্রতিষ্ঠানটির দৃষ্টিতে, বিদেশি মুদ্রার এই মজুদের ওপর নির্ভর করে একটি দেশের অর্থনীতি, মুদ্রার বিনিময় হার ও বিশ্ব বাণিজ্যে দেশটির অবস্থান। বৈদেশিক মুদ্রার বড় মজুদ একটি দেশের কেন্দ্রীয় ব্যাংককে অনেক শক্তিশালী অবস্থানে রাখে এবং গঠনমূলক অর্থনীতি গড়ে তুলতে সহায়তা করে।

Click here to read the English version of this news

Comments

The Daily Star  | English
Uttara-Motijheel metro rail till 8:00 pm

Metro rail services resume after 1.5 hrs

The suspension of metro rail operations caused immense suffering to commuters this evening

8m ago