'ওসি পাঠিয়েছেন' গজারিয়ায় বিএনপির নেতা-কর্মীদের বাড়িতে গিয়ে হুমকি

মুন্সিগঞ্জের গজারিয়ায় বিএনপির নেতা-কর্মীদের বাড়িতে গিয়ে হুমকি দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা মো. আল মামুনের বিরুদ্ধে। বাড়ি বাড়ি গিয়ে তার হুমকি দেওয়ার একটি ভিডিও ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়েছে। ভিডিওতে তাকে থানার ওসি, চেয়ারম্যান ও আওয়ামী লীগের নেতাদের নামে হুমকি দিতে দেখা যায়।

মুন্সিগঞ্জের গজারিয়ায় বিএনপির নেতা-কর্মীদের বাড়িতে গিয়ে হুমকি দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা মো. আল মামুনের বিরুদ্ধে। বাড়ি বাড়ি গিয়ে তার হুমকি দেওয়ার একটি ভিডিও ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়েছে। ভিডিওতে তাকে থানার ওসি, চেয়ারম্যান ও আওয়ামী লীগের নেতাদের নামে হুমকি দিতে দেখা যায়।

রোববার বেলা ১২ টায় মুন্সিগঞ্জের গজারিয়ার বাউশিয়া ইউনিয়নের চর বাউশিয়া, পশ্চিমকান্দি এলাকায় বিএনপির নেতা-কর্মীর বাড়ি বাড়ি যান ৮ নম্বর ওয়ার্ড সদস্য ও উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মো. আল মামুন।

ভিডিওতে দেখা যায় তিনি বিএনপি নেতাকর্মীর বাড়ির কাছে গিয়ে বলছেন, ওসি সাহেব, চেয়ারম্যান, আওয়ামী লীগ নেতারা আমাকে পাঠিয়েছে হুঁশিয়ারি দেওয়ার জন্য। কেউ গ্রাম থেকে বের হলে পেটানো হবে শুধু। আপনাদের বাসার লোকজনদের বলে গেলাম। যদি আওয়ামী লীগের মিটিং মিছিল হয়, যদি তার সামনে কেউ পড়ে তাহলে মনে করেন সে শেষ। জাতীয় নির্বাচনের আগে যেন কেউ বাড়িতে না থাকে। তা না হলে তাদের অবস্থায় সিরিয়াস করে দেবো।

গজারিয়া উপজেলা কৃষক দলের আহ্বায়ক রাজিব হোসেন দ্য ডেইলি স্টারকে বলেন, বেলা সাড়ে ১২ টায় ইউপি সদস্য আল মামুনসহ ৭-৮ জন লোক আসে। আমি তখন বাড়িতে ছিলাম না। বাসায় এসে পরিবারের সদস্যদের মাধ্যমে জানতে পারি ইউপি সদস্য মামুন আমাকে মারধর ও হত্যার হুমকি দিয়েছে। আমার রাজনীতি নিয়ে কথা বলেছে।

তিনি বলেন, দ্রব্যমূল্য বৃদ্ধির প্রতিবাদে সকালে বিএনপির কর্মসূচিতে অংশ নিয়েছিলাম। এ কারণে সে আমার বাড়িসহ এলাকার আরও ৪-৫টি বাড়িতে গিয়ে হুমকি দিয়েছে। কারণ আমরা বিএনপি করি।

অভিযুক্ত স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা আল মামুন দ্য ডেইলি স্টারকে বলেন, 'তারা (বিএনপি) বাসে আগুন দেবে। এ জন্য বলেছি, যদি কেউ রাস্তায় বের হয় তাহলে মামলা তো হবেই পাশাপাশি পিটিয়ে হাত-পা ভেঙে ফেলব। সরকারের বিরুদ্ধে উসকানিমূলক বক্তব্য দিলে সাইজ করে ফেলব। এ কথা সবার সামনেই বলেছি।'

ওসির নামে হুমকি দেওয়ার ব্যাপারে প্রশ্ন করা হলে তিনি বলেন, 'ওসি, এসপি কী? সরকারকে কীভাবে ক্ষমতায় রাখব আমরা ব্যবস্থা নেবো। সাংবাদিকরা শুধু লিখবেন। এলাকায় মাইকিং করেছি, শো ডাউন করেছি। ওসি আমাদেরকে নির্দেশনা দিয়েছে কোনো অবনতি ঘটলে প্রতিহত করতে।'

হুমকি দেওয়ার কথা স্বীকার করে তিনি বলেন, 'পারলে মামলা করতে বলেন। আজ এমনি আমার মন ভালো নেই।'

গজারিয়া থানার ওসি মো. রইছ উদ্দিন দ্য ডেইলি স্টারকে বলেন, 'এ ব্যাপারে কিছুই জানা নেই। ভিডিও দেখিনি।'

Comments

The Daily Star  | English

Turnover on interbank forex market on the decline

Turnover slumped 48.9 percent year-on-year to $23.6 billion in 2022-23, the central bank said in its Monetary Policy Review 2023-24 published last week.

1h ago