ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কে কমেছে যানবাহনের চাপ

ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কে গত কয়েকদিনের তুলনায় যানবাহনের চাপ কমেছে। গত কয়েকদিন নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে দূরপাল্লার যানবাহন চলাচল করলেও আজ তেমন একটা দেখা যাচ্ছে না।
ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কের এলেঙ্গা এলাকা। ছবি: স্টার

ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কে গত কয়েকদিনের তুলনায় যানবাহনের চাপ কমেছে। গত কয়েকদিন নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে দূরপাল্লার যানবাহন চলাচল করলেও আজ তেমন একটা দেখা যাচ্ছে না।

এলেঙ্গা হাইওয়ে পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ ইয়াসির আরাফাত আজ রোববার সকালে দ্য ডেইলি স্টারকে বলেন, ‘গত কয়েকদিনের তুলনায় আজ মহাসড়কে যানবাহনের সংখ্যা অনেক কম। বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে যানবাহনের সংখ্যা কিছুটা বাড়তে পারে। যেসব যানবাহন চলাচলের অনুমতি আছে সেগুলো যেন নির্বিঘ্নে যাতায়াত করতে পারে সেজন্য মহাসড়কে পুলিশ মোতায়েন রয়েছে।’

তিনি আরও বলেন, ‘মহাসড়কে দূরপাল্লার বাস চলাচলের কোনো সুযোগ নেই। তবে কৃষি শ্রমিক বহনকারী কয়েকটি বাস সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের অনুমতি সাপেক্ষে চলাচল করেছে।’

‘আমি রাত ২টা থেকে ডিউটিতে আছি। এখন পর্যন্ত কোনো যাত্রীবাহী বাস চলাচল করেনি, করলে সেগুলোর বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হবে,’ যোগ করেন তিনি।

গোরাই হাইওয়ে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোজাফফর হোসেন দ্য ডেইলি স্টারকে বলেন, ‘গতকালের তুলনায় আজ মহাসড়কে যান চলাচল অনেক কম।’

তিনি আরও বলেন, ‘মহাসড়কে অভ্যন্তরীণ কিছু বাস চলাচল করলেও দূরপাল্লার কোনো বাস চলাচল করছে না। দূরপাল্লার বাস এলে আমরা প্রথমে চেষ্টা করবো সেটা যেখান থেকে এসেছে সেখানে ফেরত পাঠাতে। অন্যথায় সেগুলোর বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হবে।’

ব্যক্তিগত গাড়ি, মোটরসাইকেল, ট্রাকের ছাদেসহ নানা ভাবে মানুষকে ঘরে ফিরতে দেখা যাচ্ছে।

ট্রাকের ছাদে বসে বগুড়া অভিমুখে যাওয়া নির্মাণ শ্রমিক আসলাম আলী বলেন, ‘ভোররাতে কারওয়ান বাজার থেকে ২০০ টাকা ভাড়া দিয়ে ট্রাকে উঠেছি। ঈদে মানুষ বাড়ি যাবেই। শহরে কাজ নেই, খাবার নেই, এখানে কীভাবে মানুষ থাকবে। এরচেয়ে ভালো মানুষকে বাড়ি যেতে দিন। তাদের ঘরে যেতে বাধা না দিয়ে সহযোগিতা করুন। দূরপাল্লার বাস চলতে দিন।’

Comments

The Daily Star  | English
Bangladesh Public Administration Ministry's Logo

2 deputy commissioners among 3 transferred ahead of polls

The Ministry of Public Administration today announced transfers of at least three government officials, including two deputy commissioners, ahead of the upcoming national parliamentary election

2h ago