জ্যোতি-সালমার ঝলকে আয়ারল্যান্ডকে হারিয়ে শুরু বাংলাদেশের

রোববার আবুধাবিতে নারীদের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ বাছাইয়ে 'এ' গ্রুপের ম্যাচে আইরিশদের ১৪ রানে হারিয়েছে বাংলাদেশ। আগে ব্যাট করে বাংলাদেশের ১৪৩ রানের জবাবে ১২৯ রানে গুটিয়ে যায় আয়ারল্যান্ড।
Nigar Sultana Joty

শামীমা সুলতানার সুর বেধে দেওয়ার পর তাতে তাল মিলিয়ে জ্বলে উঠলেন নিগার সুলতানা জ্যোতি।  দারুণ ফিফটি করলেন বাংলাদেশ অধিনায়ক, শেষ পর্যন্ত টিকে দলকে নিলেন দেড়শোর কাছে। জুতসই পুঁজি নিয়ে সালমা খাতুন, সানজিদা আক্তার মেঘলা, নাহিদা আক্তাররা তাদের কাজটা করলেন ঠিকঠাক। বাংলাদেশের নিয়ন্ত্রিত বোলিংয়ে পেয়ে উঠল না আয়ারল্যান্ড।

রোববার আবুধাবিতে নারীদের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ বাছাইয়ে 'এ' গ্রুপের ম্যাচে আইরিশদের ১৪ রানে হারিয়েছে বাংলাদেশ। আগে ব্যাট করে বাংলাদেশের ১৪৩ রানের জবাবে ১২৯ রানে গুটিয়ে যায় আয়ারল্যান্ড।

বাংলাদেশের হয়ে  ৫৩ বলে ৬৭ রান করে ব্যাটিংয়ে উজ্জ্বল জ্যোতি। ৪ ওভার বল করে স্রেফ ১৯ রান দিয়ে ৩ উইকেট নিয়ে বল হাতে সেরা অভিজ্ঞ সালমা। বাছাই পর্বে গ্রুপ পর্বে আয়ারল্যান্ডই ছিল বড় প্রতিপক্ষ। তাদের শুরুতেই হারিয়ে দেওয়ায় পরের ধাপের পথ অনেকটা সহজ লাল সবুজের প্রতিনিধিদের।

এদিন টস জিতে ব্যাট করতে নেমে জুতসই শুরু এনেছিলেন দুই ওপেনার মুরশিদা খাতুন ও শামীমা সুলতানা। পঞ্চম ওভারে দলের ২৮ রানে ফেরেন বাঁহাতি মুরশিদা। তিন চারে ১৬ করে যান তিনি।

এরপর দ্বিতীয় উইকেটে শামীমাকে নিয়ে দারুণ জুটি আনেন জ্যোতি। ৬২ রানের জুটি ভাঙে ১৫তম ওভারে। ৪০ বলে ৪৮ করা শামীমা লাউরা ডেনলির বলে এলবিডব্লিউতে কাটা পড়েন।

জ্যোতি টিকে ছিলেন একদম শেষ অবধি। সুবহানা মুশতারি, রিতু মনিদের নিয়ে খেলে যান তিনি। ইনিংসের একদম শেষ বলে আউট হওয়ার আগে ৫৩ বলে ১০ চার, ১ ছক্কায় ৬৭ করে যান বাংলাদেশ অধিনায়ক। আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টি ক্যারিয়ারে দ্বিতীয়বারের মতো তার পঞ্চাশ ছাড়ানো ইনিংসে দেড়শোর কাছাকাছি পুঁজি পায় বাংলাদেশ।

রান তাড়ায় নামা আয়ারল্যান্ডকে শুরুতেই চেপে ধরে বাংলাদেশ।  দ্বিতীয় ওভারেই গাবি লুইসকে তুলে নেন সানজিদা আক্তার মেঘলা। পরের ওভারে ওরলা প্রেনডারগেস্টকে তুলে নেন সালমা।

এরপর এমি হান্টার ও অধিনায়ক ডেনলি মিলে জুটি পেয়েছিলেন। কিন্তু ক্রমশ বাড়ছিল রানের চাপ। দশম ওভারে তাদের সেই জুটি ভাঙে রান আউটে। ৩২ বলে ৩৩ করে এমিকে রান আউট করেন সালমা। খানিক পর ডেনলিকেও তুলে নেন তিনি।

পথ হারানো আইরিশ ইনিংসে নতুন প্রাণ সঞ্চার করেছিলেন এইমেয়ার রিচার্ডসন। শেষ পর্যন্ত তিনি চেষ্টা চালালেও আরেক পাশে যোগ্য সঙ্গ দেওয়ার কেউ ছিল না।

প্রথম দুই ওভারে ১২ রান দেয়া সালমা ১৮তম ওভারে আসেন নিজের শেষ ওভার বল করতে। ওই ওভারে প্রথম দুই বলে এক চারে ৬ রান দিলেও। পরের দুই বলে আইরিশদের হিসেব থেকে বের করে দেন তিনি।  মারি ওয়াল্ড্রনকে বোল্ড করে দেওয়ার পর আরলিন কেলি হয়ে যান রান আউট।

১৯তম ওভারে রিতু মনির বলে ফেরেন ২৬ বলে ৪০ রানের ঝড় তুলা রিচার্ডসন। শেষ ওভারে লেহ পলকে ছেঁটে ইনিংস মুড়ে দেন নাহিদা।

১৯ সেপ্টেম্বর দ্বিতীয় ম্যাচে বাংলাদেশের প্রতিপক্ষ স্কটল্যান্ড।

Comments

The Daily Star  | English

Cyclone Remal: PDB cuts power production by half

PDB switched off many power plants in the coastal areas as a safety measure due to Cyclone Rema

1h ago