সেঞ্চুরি মিস করেও আক্ষেপ নেই হৃদয়ের

'আমি শুরুতে আউট হতে পারতাম। যেটা হয়েছে সেটা আলহামদুলিল্লাহ। যেটা হয়েছে শুকরিয়া।'
ছবি: ফিরোজ আহমেদ

সেঞ্চুরি পেলেই ইতিহাসে নাম লেখাতে পারতেন তাওহিদ হৃদয়। পাঁচ নম্বরে নেমে অভিষেকে সেঞ্চুরি করা প্রথম ক্রিকেটার হতে পারতেন তিনি। এমনকি অভিষেকে সেঞ্চুরি করা ক্রিকেটারের সংখ্যাই বা কতো। মোটে ১৬ জন। এমন বিরল কীর্তির সামনে থেকেও সেঞ্চুরি মিস করার কোনো আক্ষেপ নেই হৃদয়ের! নার্ভাস নাইন্টিজে আউট হলে বলেন, 'আমি শুরুতেও আউট হতে পারতাম।'

শনিবার সিলেট আন্তর্জাতিক স্টেডিয়ামে ক্যারিয়ারের প্রথম ম্যাচ খেলতে নেমেই বাংলাদেশের জয়ের নায়ক হৃদয়। সেঞ্চুরি না পেলেও ৯২ রানের ইনিংসে টাইগারদের রেকর্ড গড়া পুঁজিতে রেখেছেন প্রত্যক্ষ ভূমিকা। রেকর্ড পুঁজিতে ভর করে পরে ১৮৩ রানের বিশাল ব্যবধানে জয় পায় বাংলাদেশ।   

এমন জয়ের পরও আলোচনা হৃদয়ের সেঞ্চুরি মিস করা নিয়ে। বিশেষকরে যখন বিশ্বরেকর্ড ছিল সামনে। কিন্তু এতে কোনো ধরণের আক্ষেপ নেই হৃদয়ের। ম্যাচ শেষে সংবাদ সম্মেলনে বলেন, 'আমি শুরুতে আউট হতে পারতাম। যেটা হয়েছে সেটা আলহামদুলিল্লাহ। যেটা হয়েছে শুকরিয়া।'

নিজে না পারলেও আগামী দিনে বাংলাদেশের কোনো খেলোয়াড় পারবেন সেটা আশাবাদ ব্যক্ত করে আরও বলেন, 'আসলেই কোনো আক্ষেপ নেই। অভিষেকে এত রান—সেটিও চিন্তা করি। ভবিষ্যতে যাদের অভিষেক হবে তাদের জন্য শুভকামনা, তারা যাতে আরও ভালো করে।'

এদিন ম্যাচের শুরু থেকেই ভয়ডরহীন ক্রিকেট খেলেছেন হৃদয়। যেন অনেক দিন থেকেই খেলছেন আন্তর্জাতিক ক্রিকেট। অথচ এর আগে কেবল তিনটি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলার রেকর্ড ছিল তার।

'আমি প্রথম থেকে চেয়েছিলাম ইন্টেন্ট যাতে ঠিক থাকে। কখনো ভাবিনি সেট হয়ে নেই একটু। বলের মেরিট অনুযায়ী খেলার চেষ্টা করেছি। সাকিব ভাইয়ের সঙ্গে খেলা ভালো একটা ব্যাপার, কারণ উনি অনেক অভিজ্ঞ। সাকিব ভাইয়ের সঙ্গে ব্যাটিংয়ের সময়ই অনেক কিছু শিখছিলাম। উনিও বলছিলেন, এভাবে এভাবে করলে ভালো হবে। উপভোগ করেছি অনেক,' নিজের ব্যাটিং নিয়ে বলেন হৃদয়।

বয়সভিত্তিক দলের খেলোয়াড় হলেও হৃদয়ের উত্থান এবারের বিপিএল দিয়ে। সিলেট স্ট্রাইকার্সের হয়ে দুর্দান্ত একটি আসর কাটান তিনি। তাতেই জায়গা হয় জাতীয় দলে। টি-টোয়েন্টির পর অভিষেক হয় ওয়ানডেতেও।

তবে নিয়মিত ওয়ানডে খেলার অভিজ্ঞতার কারণেই কোনো সমস্যা হয়নি বলে জানান এ তরুণ, 'আমরা বেশিরভাগ ক্রিকেটার অভ্যস্ত, মানে ভালো খেলি ওয়ানডেটাই। মানিয়ে বলতে, চেষ্টা করেছি—সব সময় নিজের পরিকল্পনায় থাকার। আমার একটা পরিকল্পনা আছে, ওয়ানডে ক্রিকেটে। চেয়েছি সেটি যাতে বাস্তবায়ন করতে পারি।

Comments

The Daily Star  | English

Trees are Dhaka’s saviours

Things seem dire as people brace for the imminent fight against heat waves and air pollution.

5h ago