ফুটবল

সব ঝাল বার্সেলোনার ওপর ঝাড়বেন মুলার

শেষ পর্যন্ত রবার্ট লেভানদভস্কিকে পেছনে ফেলে ২০২১ সালের ব্যালন ডি'অর জিতে নিয়েছেন লিওনেল মেসি। তাতে প্রচণ্ড খেপেছেন লেভার ক্লাব সতীর্থ থমাস মুলার। নিজেদের শক্তি দেখিয়ে দেওয়ার লক্ষ্যে রাগটা বার্সেলোনার ওপর ঝাড়ার অঙ্গীকার করলেন এ জার্মান তারকা। সতীর্থ সকলকে সে ম্যাচে দারুণ কিছু করে দেখানোর আহ্বান জানালেন তিনি।

শেষ পর্যন্ত রবার্ট লেভানদভস্কিকে পেছনে ফেলে ২০২১ সালের ব্যালন ডি'অর জিতে নিয়েছেন লিওনেল মেসি। তাতে প্রচণ্ড খেপেছেন লেভার ক্লাব সতীর্থ থমাস মুলার। নিজেদের শক্তি দেখিয়ে দেওয়ার লক্ষ্যে রাগটা বার্সেলোনার ওপর ঝাড়ার অঙ্গীকার করলেন এ জার্মান তারকা। সতীর্থ সকলকে সে ম্যাচে দারুণ কিছু করে দেখানোর আহ্বান জানালেন তিনি।

মঙ্গলবার রাতে প্যারিসের থিয়েটার ডু চ্যাটেলেটে এক জাঁকজমকপূর্ণ অনুষ্ঠানে নিজের রেকর্ড আরও সমৃদ্ধ করে ২০২১ সালের ব্যালন ডি'অর জিতে নেন মেসি। এবার তার সঙ্গে দারুণ লড়াইয়ে ছিলেন লেভানদভস্কি। কিন্তু শেষ পর্যন্ত সপ্তমবারের মতো এ পুরষ্কার হাতে তুলে নেন মেসিই।

যদিও চলতি মৌসুমের শুরুতেই বার্সেলোনা ছেড়ে পিএসজিতে যোগ দিয়েছেন মেসি। কিন্তু পুরষ্কারটা ২০২০/২১ মৌসুমের। সে সময়ে বার্সাতেই খেলতেন আর্জেন্টাইন অধিনায়ক। আর চ্যাম্পিয়ন্স লিগে বায়ার্নের পরবর্তী ম্যাচটাও কাতালানদের বিপক্ষে। তারাই যে এ পুরষ্কারের প্রাপ্য তা বুঝিয়ে দিয়ে সে ম্যাচটাই বেছে নিয়েছেন থমাস মুলার। দুই মৌসুম আগে এই বার্সেলোনাকেই ৮-২ গোলে বিধ্বস্ত করেছিল দলটি। তাহলে কি আরও একবার এমন বিব্রতকর পরিস্থিতি আসছে কাতালানদের সামনে?

সামাজিকমাধ্যম লিঙ্কডইনে নিজের অফিশিয়াল প্রোফাইলে এ জার্মান তারকা লিখেছেন, 'চ্যাম্পিয়ন্স লিগকে মিউনিখে ফিরিয়ে আনার জন্য এবং ফুটবল বিশ্বকে কী ঘটছে তা দেখিয়ে দিয়ে ভারসাম্য রাখতে এটি (লেভাকে ব্যালন ডি'অর না দেওয়া) আমার জন্য প্রেরণা হিসেবে কাজ করবে। এবং সর্বোপরি জার্মান ফুটবল কী তাও দেখিয়ে দিতে হবে। আগামী বুধবার বার্সেলোনার বিপক্ষে চ্যাম্পিয়ন্স লিগের খেলায় আমাদের এটি করার সুযোগ রয়েছে। চল এই মোকাবেলা করি!'

লেভাকে ব্যালন না দেওয়ায় অবশ্য অবাক হননি থমাস মুলার। এর আগে ২০১৩ সালেও ব্যালন ডি'অর জয়ের যোগ্য দাবীদার ছিলেন ফ্রাঙ্ক রিবেরি। সেবার শেষ পর্যন্ত এ তারকা না পাওয়া অবাক হয়েছিল পুরো বিশ্বই। সে বিষয়টিও তুলে আনেন তিনি। সব মিলিয়ে বেজায় চটেছেন এ জার্মান। তাই এ পুরষ্কার নিজেদের ঘরে আনার জন্য চ্যাম্পিয়ন্স লিগে আরও ভালো কিছু করা প্রয়োজন বলে মনে করেন তিনি।

'একজন বাভারিয়ান, পোলিশ এবং জার্মানদের দৃষ্টিকোণ থেকে, গতকাল সন্ধ্যার ব্যালন ডি'অর অনুষ্ঠানটি অবশ্যই হতাশাজনক ছিল৷ কিছু কিছু ক্ষেত্রে আরও একটু বেশি। যদিও আমি এই ব্যবসায় বেশি সময় ধরেই ছিলাম এবং তাই ফলাফলে সত্যিই অবাক হইনি (২০১৩ সালেও ফ্রাঙ্ক রিবেরির ক্ষেত্রে এমন হয়েছিল), পুরো বিষয়টি আমার মধ্যে একটি চিন্তা তৈরি করেছে: বুন্ডেসলিগায় আমাদের দারুণ খেলোয়াড় রয়েছে এবং আমাদের লুকিয়ে রাখা যাবে না। বিশ্বব্যাপী স্বীকৃতির জন্য আরও আন্তর্জাতিক সাফল্য প্রয়োজন।' -বলেন থমাস মুলার।

লেভাকে এবারের ব্যালন ডি'অর পাওয়ার যোগ্য মনে করলেও মেসিকে অভিনন্দন জানাতে ভুল করেননি থমাস মুলার, 'লিওনেল মেসির সঙ্গে, ব্যক্তিগতভাবে তিনি সম্ভবত সর্বকালের সেরা ফুটবলার। তাই ব্যালন ডি'অর জেতার জন্য লিওনেলকে অভিনন্দন, যদিও যদি আমি মনে করি যে রবার্ট লেভানদভস্কি এবার এটির প্রাপ্য ছিল।'

উল্লেখ্য, বরাবরের মতো বুন্ডেসলিগায় গত মৌসুমে দারুণ সময় কাটিয়েছেন লেভা। মাত্র ২৯ ম্যাচে করেছেন ৪১ গোল। তাতে ভেঙ্গেছেন কিংবদন্তি জার্ড মুলারের ৪৯ বছরের রেকর্ড। জিতেছেন ইউরোপিয়ান গোল্ডেন শুও। বুন্ডেসলিগাসহ জিতেছেন আরও দুটি শিরোপা। তবে চ্যাম্পিয়ন্স লিগ ও জাতীয় দলের ব্যর্থতায় পিছিয়ে পড়েন তিনি।

তবে ২০২০ সালটা আরও বেশি স্বপ্নের কেটেছে এ পোলিশ তারকার। চোখ ধাঁধানো পারফরম্যান্সে বায়ার্নের হয়ে লিগ, চ্যাম্পিয়নস লিগ, জার্মান কাপসহ ট্রেবল জয়ের অনন্য কীর্তি গড়েন। বুন্ডেসলিগায় সেরা গোলদাতা হওয়ার পাশাপাশি চ্যাম্পিয়ন্স লিগেরও সর্বোচ্চ গোলদাতা হয়েছিলেন তিনি। কিন্তু সে বছর করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের কারণে ব্যালন ডি'অর দেওয়া হয়নি কাউকেই।

মুলারের যুক্তি এখানেই। যেহেতু ২০২ সালে কাউকে ব্যালন ডি'অর দেওয়া হয়নি। তাই সে বছরের পারফরম্যান্স বিবেচনায় আনা উচিৎ ছিল বলে মনে করেন তিনি। এমনকি জার্ড মুলারের রেকর্ড ভাঙ্গায় ২০২১ সালের ব্যক্তিগত পারফরম্যান্সেও লেভাকে এগিয়ে রাখেন তিনি। চলতি মৌসুমেও মেসির ঢের ধারাবাহিক ছন্দে আছেন লেভা।

Comments

The Daily Star  | English

13 killed in bus-pickup collision in Faridpur

At least 13 people were killed and several others were injured in a head-on collision between a bus and a pick-up at Kanaipur area in Faridpur's Sadar upazila this morning

1h ago