আজ সৈয়দ মহিদুল ইসলামের ২১তম প্রয়াণ দিবস

স্বাধীনতা-উত্তর বাংলাদেশের মঞ্চনাটকে প্রথম সারির একজন মহিদুল ইসলাম।
টিভি নাটকের দৃশ্যে সৈয়দ মহিদুল ইসলাম ও অমল বোস। ছবি: সংগৃহীত

আজ বরেণ্য অভিনেতা, নির্দেশক, নাট্যকার ও নাট্যশিক্ষক সৈয়দ মহিদুল ইসলামের ২১তম প্রয়াণ দিবস।

স্বাধীনতা-উত্তর বাংলাদেশের মঞ্চনাটকে প্রথম সারির একজন মহিদুল ইসলাম। তিনি ১৯৪৬ সালের ১ জানুয়ারি বর্তমান বাগেরহাট জেলার ফকিরহাটের সৈয়দ মহল্লা গ্রামে জন্ম নেন। ১৯৬৯ সালে তিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বাংলা সাহিত্যে এম এ পাশ করেন। একই বছর রাওয়াল পিন্ডিতে টিভি প্রযোজনার ওপর বিশেষ প্রশিক্ষণ গ্রহণ করেন তিনি।

ভারতের 'ন্যাশনাল স্কুল অব ড্রামা' থেকে নাট্যতত্ত্বে স্নাতকোত্তর ডিগ্রি লাভ করেন মহিদুল ইসলাম। ১৯৭৬ সালে ভারতের কোলকাতায় 'ব্যতিক্রম' নাট্যগোষ্ঠী প্রতিষ্ঠা করেন। ১৯৭৮ সালে বাংলাদেশে ফিরে এসে 'ব্যতিক্রম' নাট্য গোষ্ঠীর নিয়মিত নাট্যচর্চা অব্যাহত রাখেন।

১৯৮৪ সালে প্রতিষ্ঠা করেন 'স্কুল অব অ্যাকটিং' নামে একটি অভিনয় শিক্ষা প্রতিষ্ঠান এবং মৃত্যু পর্যন্ত এর পরিচালক ও মুখ্য প্রশিক্ষক হিসেবে কাজ করেছেন তিনি।

এই প্রতিষ্ঠান থেকে প্রশিক্ষণ গ্রহণ করে বর্তমানে মঞ্চ এবং ইলেকট্রনিক মিডিয়ায় অনেক কর্মী কাজ করে যাচ্ছেন। 'ব্যতিক্রম' নাট্য গোষ্ঠীর প্রযোজনায় তিনি ৩৩টি নাটকে নির্দেশনা দিয়েছেন।

মঞ্চের পাশাপাশি বেতার ও টেলিভিশনের অসংখ্য নাটকের অভিনয় ও পান্ডুলিপি রচনা করেন মহিদুল ইসলাম। 'আমি কার' ও 'স্বপ্নযাত্রা' তার নির্মিত চলচ্চিত্র। চলচ্চিত্রে অভিনয়েও ছিল তার উজ্জ্বল উপস্থিতি। তার রচিত অভিনয় শিক্ষার বিশ্লেষণ ভিত্তিক গ্রন্থ 'অভিনয়'। প্রায় ১১টি নাটক ও লেখা অনুবাদ ও রূপান্তর করেছেন এদেশের দর্শকের জন্য।

২০০২ সালের ২৩ আগস্ট মৃত্যুবরণ করেন তিনি।

Comments

The Daily Star  | English

Dhaka getting hotter

Dhaka is now one of the fastest-warming cities in the world, as it has seen a staggering 97 percent rise in the number of days with temperature above 35 degrees Celsius over the last three decades.

6h ago