ভারতে ভোট শুরু ১১ এপ্রিল, ফল গণনা ২৩ মে

ভারতে গণতান্ত্রিক উৎসবের বাদ্য বাজিয়ে দিলেন দেশটির প্রধান নির্বাচন কমিশনার। রোববার স্থানীয় সময় বিকেল ৫টায় নয়াদিল্লিতে বিজ্ঞানভবনে আচমকাই ভারতের ১৭তম জাতীয় নির্বাচন (লোকসভা নির্বাচন) এর সূচি প্রকাশ করা হলো।
নয়াদিল্লিতে ভারতের পার্লামেন্ট ভবন। ছবি: রয়টার্স

ভারতে গণতান্ত্রিক উৎসবের বাদ্য বাজিয়ে দিলেন দেশটির প্রধান নির্বাচন কমিশনার। রোববার স্থানীয় সময় বিকেল ৫টায় নয়াদিল্লিতে বিজ্ঞানভবনে আচমকাই ভারতের ১৭তম জাতীয় নির্বাচন (লোকসভা নির্বাচন) এর সূচি প্রকাশ করা হলো।

এবার মোট সাত দফায় লোকসভা ভোট গ্রহণ করবে ভারতের নির্বাচন কমিশন। ভোটের ফল প্রকাশ করা হবে একদফায়। নির্বাচন কমিশনের ঘোষণা অনুযায়ী, দেশটিতে প্রথম দফার ভোট শুরু হবে ১১ এপ্রিল। এর পর পর্যায়ক্রমে সপ্তম দফা ভোট হবে ১৯ মে। ভোট গণনা ২৩ মে। এবার ভারত জুড়ে ভোটারের সংখ্যা ৯০ কোটি।

সুষ্ঠু ভোট পরিচালনা নিয়ে ইসি বলেছে, সুষ্ঠুভাবে নির্বাচন পরিচালনা করতে কমিশন বদ্ধ পরিকর। ভোটের যাবতীয় প্রস্তুতি নেওয়া হয়েছে।

নির্বাচন কমিশনের পূর্ণ বেঞ্চকে নিয়ে এদিন প্রায় দেড় ঘণ্টার সংবাদ সম্মেলনে ভোটের নির্ঘণ্ট প্রকাশ করেন ৪০ মিনিট জুড়ে। বাকি সময়ে সাংবাদিকদের বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর দেয় ইসি।

কমিশনের ঘোষণায় বলা হয়েছে, লোকসভা নির্বাচনের  প্রথম দফায় (১১ এপ্রিল) ২০ রাজ্যের ভোট হবে ৯১ আসনে। দ্বিতীয় দফায় (১৮ এপ্রিল) ১৩ রাজ্যে ভোট হবে ৯৭ আসনে। তৃতীয় দফায় (২৩ এপ্রিল) ১১৫ আসনের ভোট হবে ১৪ রাজ্যে। চতুর্থ দফায় (২৯ এপ্রিল ) ভোট হবে ৯ রাজ্যে ৭১ আসনে। পঞ্চম দফায় (৬ মে) ভোট হবে ৭ রাজ্যের ৫১ আসনে। ষষ্ঠ দফায় (১২ মে) ভোট হবে ৭ রাজ্যের ৫৯ আসনে। সপ্তম এবং শেষ দফার (১৯ মে) ভোট হবে ৮ রাজ্যের ৫৯ আসনে।

ভারতের  মুখ্য নির্বাচন কমিশনার সুনীল আরোরা বলেন, এবার ইভিএমেও প্রার্থীদের ছবি থাকবে। প্রার্থীর বিরুদ্ধে ফৌজদারি মামলা থাকলে তা মনোনয়ন পত্রে উল্লেখ করতে হবে। ভোটের ৪৮ ঘণ্টা আগে লাউড স্পিকারে নিষেধাজ্ঞা থাকবে। রাত ১০টা থেকে সকাল ৬টা পর্যন্ত মাইক ব্যবহার করা যাবে না। প্রচারে পরিবেশের ক্ষতি করে এমন জিনিস ব্যবহার না করার জন্য রাজনৈতিক দলগুলির কাছে অনুরোধ জানিয়েছে নির্বাচন কমিশন। ভোটারদের আস্থা বাড়াতে বাহিনী রুটমার্চ করবে। অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপের মাধ্যমে ভিডিও তুলে নির্বাচন কমিশনকে পাঠাতে পারবেন ভোটার। সব সংবেদনশীল ঘটনার ভিডিওগ্রাফি করা হবে।

ভারতের নির্বাচন কমিশন আরও বলেছে, ভারতের সমস্ত রাজ্যের নির্বাচনী কর্মকর্তা, মুখ্যসচিব ও  ডিজিপিদের সঙ্গে ইতিমধ্যে কথা হয়ে গিয়েছে। বৈঠক হয়েছে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র সচিবের সঙ্গেও। কেন্দ্র ও রাজ্যের শুল্ক দফতরের সঙ্গে আলোচনা হয়েছে। আবহাওয়া এবং বিভিন্ন সম্প্রদায়ের ধর্মীয় উৎসব সব কিছু মাথায় রেখে নির্বাচনী নির্ঘণ্ট তৈরি করা হয়েছে বলেও জানান প্রধান নির্বাচন কমিশনার।

ভারতের চলতি ১৬তম লোকসভার মেয়াদ শেষ ৩ জুন।

পশ্চিমবঙ্গে সাত দফায় ভোট :

সাত দফার প্রত্যেক দফায় ৪২ আসন বিশিষ্ট রাজ্যটির কোনও না কোনও আসনের ভোট গ্রহণ করা হবে। যেমন প্রথম দফায় ১১ এপ্রিল ভোট হবে কোচবিহার ও আলিপুর দুয়ার এই দুটি আসনে। দ্বিতীয় দফায় ভোট হবে জলপাইগুড়ি, রায়গঞ্জ এবং দার্জিলিংয়ের তিন আসনে। তৃতীয় দফায় ভোট হবে ২৩ এপ্রিল পাঁচ আসনে। আসনগুলো হচ্ছে, বালুরঘাট, জঙ্গিপুর, মালদা উত্তর, মালদা দক্ষিণ এবং মুর্শিদাবাদ। চতুর্থ দফা ভোট নেওয়া হবে বহরমপুর, কৃষ্ণনগর, রাণাঘাট, বর্ধমান পূর্ব, বীরভূম, বোলপুর, বর্ধমান-দুর্গাপুর এবং আসানসোলে। পঞ্চম দফায় ভোট হবে ৬ মে। বনগাঁ, উলুবেড়িয়া, শ্রীরামপুর, আরামবাগ, হুগলি, বারাকপুর এবং হাওড়ার সাত আসনে। ষষ্ঠ দফায় ভোট নেওয়া হবে ১২ মে। সেবার ভোট হবে ৮ আসনের। আসনগুলো হচ্ছে, তমলুক, কাঁথি, ঝাড়গ্রাম, ঘাটাল, মেদেনীপুর, পুরুলিয়া, বাঁকুড়া, বিষ্ণুপুর। এবং শেষ সপ্তম দফায় ভোট হবে ১৯ মে বসিরহাট, দমদম, জয়নগর, মথুরা, যাদবপুর, কলকাতা উত্তর, কলকাতা দক্ষিণ এবং ডায়মন্ড হারবার এই ৯টি আসনে।

Comments

The Daily Star  | English
Bangladesh Expanding Social Safety Net to Help More People

Social safety net to get wider and better

A top official of the ministry said the government would increase the number of beneficiaries in two major schemes – the old age allowance and the allowance for widows, deserted, or destitute women.

3h ago