পাকিস্তান বিশ্বকাপ জেতার সামর্থ্য রাখে, বলছেন হাসান আলী

টানা ১১ ওয়ানডে (প্রস্তুতি ম্যাচসহ ১২) হেরে হিসাবের বাইরে চলে যাওয়া পাকিস্তান ঘুরে দাঁড়িয়েছে। বিশ্বকাপে নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে দুর্দান্ত জয় তুলে নিয়েছে তারা। আসরের হট ফেভারিট দলকে হারানোর পর পাকিস্তানের পেসার হাসান আলী আত্মবিশ্বাসের সঙ্গে জানিয়েছেন, বিশ্বজয়ের জন্য যা যা দরকার সেসব তাদের রয়েছে।
hasan ali
ছবি: রয়টার্স

টানা ১১ ওয়ানডে (প্রস্তুতি ম্যাচসহ ১২) হেরে হিসাবের বাইরে চলে যাওয়া পাকিস্তান ঘুরে দাঁড়িয়েছে। বিশ্বকাপে নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে দুর্দান্ত জয় তুলে নিয়েছে তারা। আসরের হট ফেভারিট দলকে হারানোর পর পাকিস্তানের পেসার হাসান আলী আত্মবিশ্বাসের সঙ্গে জানিয়েছেন, বিশ্বজয়ের জন্য যা যা দরকার সেসব তাদের রয়েছে।

সোমবার (৩ জুন) ট্রেন্ট ব্রিজে ১৪ রানে জিতেছে সরফরাজ আহমেদের দল। টসে হেরে ব্যাটিংয়ে নেমে চলতি আসরের সর্বোচ্চ ৩৪৮ রান রান তোলে তারা। ৮ উইকেটের বিনিময়ে। এরপর শেষ ১০ ওভারে দলটির বোলাররা জ্বলে ওঠায় ইংলিশরা পৌঁছাতে পারে ৯ উইকেটে ৩৩৪ রান পর্যন্ত। অথচ কে বলবে, এই পাকিস্তানই গেল ম্যাচে ওয়েস্ট ইন্ডিজের কাছে গুটিয়ে গিয়েছিল মাত্র ১০৫ রানে! তার আগে প্রস্তুতি ম্যাচে আফগানিস্তানের কাছেও ধরাশায়ী হয়েছিল তারা।

ইংল্যান্ডকে হারিয়ে তাই জয়ের পথ খুঁজে পাওয়ার পাশাপাশি নিজেদের সামর্থ্য ও দক্ষতার ওপর আস্থা ফিরে পেয়েছে পাকিস্তান। পেয়েছে আসরের একেবারে শেষ পর্যন্ত যাওয়ার প্রেরণা।

ম্যাচ শেষে হাসান আলী জানান, 'ম্যাচ জিতে আমরা খুব খুশি। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে আমরা অঘটনের শিকার হয়েছিলাম। তবে আমরা ভালোভাবে ঘুরে দাঁড়িয়েছি।'

'আমরা কঠোর পরিশ্রম করছি এবং আমাদের নিজেদের ওপর বিশ্বাস আছে। আমরা বিশ্বাস করি যে, আমরা বিশ্বকাপ জিততে পারব। লোকে আমাদের "আনপ্রেডিক্টেবল" বলে, কিন্তু এটা আমাদের ভালো লাগে না।'

'প্রথম ম্যাচের পর আমরা নিজেদের দুর্বলতাগুলো নিয়ে কথা বলেছিলাম। আমাদের পরিকল্পনা ও সেগুলো বাস্তবায়ন করা নিয়ে আলোচনা করেছিলাম। একটা বিষয় ঠিক, আমাদের কোচ (মিকি আর্থার) আমাদের সবসময় সাহস জুগিয়ে যান।'

'টানা ১১ ওয়ানডে হারায় আমরা হতাশ হয়ে পড়েছিলাম। কিন্তু একটা গুরুত্বপূর্ণ বিষয় হলো, আমরা বিশ্বাস রেখেছি। আমাদের একটা প্রেরণা দরকার ছিল, আমরা তা পেয়েছি। আমরা বেশ আত্মবিশ্বাসী। আমাদের দল ভালো এবং ভারসাম্যপূর্ণ।'

Comments

The Daily Star  | English
 remittance inflow

$12.9b in remittances received in last 6 months: minister

Finance Minister Abul Hasan Mahmud Ali today told the parliament from July to July to January of the current financial year (2023-24), the country received some $12.9 billion ($12, 900.63 million) in remittances

27m ago