ফাইনালে নিষেধাজ্ঞা পাওয়া থেকে বাঁচলেন জেসন রয়

অল্পতে রক্ষা পেলেন ইংল্যান্ডের জেসন রয়। যদিও ক্রিকেট বিশেষজ্ঞরাসহ অনেকেই ধারণা করছিলেন এক ম্যাচের নিষেধাজ্ঞা পেতে পারেন এই ইংলিশ ওপেনিং ব্যাটসম্যান, তবে ম্যাচ ফির ৩০ শতাংশ জরিমানা দিয়ে বেঁচে গেলেন তিনি। সেই সঙ্গে তার নামের পাশে যুক্ত হয়েছে দুটি ডিমেরিট পয়েন্ট।
jason roy
ছবি: এএফপি

অল্পতে রক্ষা পেলেন ইংল্যান্ডের জেসন রয়। যদিও ক্রিকেট বিশেষজ্ঞরাসহ অনেকেই ধারণা করছিলেন এক ম্যাচের নিষেধাজ্ঞা পেতে পারেন এই ইংলিশ ওপেনিং ব্যাটসম্যান, তবে ম্যাচ ফির ৩০ শতাংশ জরিমানা দিয়ে বেঁচে গেলেন তিনি। সেই সঙ্গে তার নামের পাশে যুক্ত হয়েছে দুটি ডিমেরিট পয়েন্ট।

ঘটনা খোলাসা যাক। বৃহস্পতিবার (১২ জুলাই) বার্মিংহামের এজবাস্টনে বিশ্বকাপের দ্বিতীয় সেমিফাইনালে মুখোমুখি হয়েছিল ইংল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়া। অসিদের ছুঁড়ে দেওয়া ২২৪ রানের লক্ষ্য ছুঁয়ে ফেলতে ইংলিশদের পথ দেখাচ্ছিলেন রয়। তুলেছিলেন ঝড়। ৫০ বলে হাফসেঞ্চুরি পূরণ করার পর চড়াও হয়েছিলেন মিচেল স্টার্ক-স্টিভেন স্মিথদের ওপর। পাচ্ছিলেন সেঞ্চুরির সুবাস। কিন্তু আম্পায়ার কুমার ধর্মসেনার একটি ভুল সিদ্ধান্তে থামতে হয় তাকে।

ইংলিশদের ইনিংসের ২০তম ওভার চলছে তখন। বোলিং করছিলেন প্যাট কামিন্স। লেগ স্টাম্পের বাইরে দিয়ে চলে যেতে থাকা চতুর্থ ডেলিভারিটি পুল করতে চেয়েছিলেন ডানহাতি রয়। তবে বল তার ব্যাটে বা গ্লাভসে ছোঁয়া তো দূরে থাক, বেশ খানিকটা দূর দিয়ে গিয়ে পৌঁছায় উইকেটরক্ষক অ্যালেক্স ক্যারের হাতে। এর পরপরই কামিন্স-ক্যারে এবং আরও কয়েকজন অসি ফিল্ডার মিলে ক্যাচের আবেদন তোলেন। দ্বিধা-দ্বন্দ্বে ভুগে বেশ খানিকটা সময় নিয়ে আঙুল উঁচিয়ে আউটের সিদ্ধান্ত জানান ধর্মসেনা। তাতে দুর্ভাগ্যজনকভাবে ৮৫ রানে শেষ হয় রয়ের ইনিংস। ৬৫ বলের ইনিংসে তিনি মেরেছিলেন নয়টি চার ও পাঁচটি ছয়।

ভুল সিদ্ধান্তে এভাবে আউট হওয়াটা মেনে নিতে পারেননি রয়। রিভিউ নেওয়ার সুযোগও ছিল না তার। কারণ আগেই তা নষ্ট করে গিয়েছিলেন আরেক ওপেনার জনি বেয়ারস্টো। ফলে হতভম্ব রয় খানিকক্ষণ দাঁড়িয়ে থাকেন ক্রিজে। এরপর দুই আম্পায়ার- ধর্মসেনা ও মারিয়াস এরাসমাসের কাছে সিদ্ধান্তের বিপরীতে তীব্র আপত্তি জানান। শেষমেশ অসন্তোষ নিয়ে হাঁটা দেন সাজঘরের উদ্দেশে। তার আগে তিনি এমন কিছু শব্দ ব্যবহার করেন, যা ভাষায় প্রকাশের অযোগ্য।

রয়ের বিদায়ের পর জয়ের বাকি কাজটা সারেন ইংল্যান্ডের জো রুট ও অধিনায়ক ইয়ন মরগান। ১০৭ বল ও ৮ উইকেট হাতে রেখে তারা হারিয়ে দেয় অস্ট্রেলিয়াকে। ফলে ২৭ বছর পর ফের বিশ্বকাপের ফাইনালে জায়গা করে নিয়েছে ইংলিশরা। আগামী রবিবার (১৪ জুলাই) ২০১৯ বিশ্বকাপের শিরোপার লড়াইয়ে লর্ডসে তারা মুখোমুখি হবে নিউজিল্যান্ডের।

আম্পায়ারের সিদ্ধান্তে আপত্তি তোলা এবং অশ্রাব্য ভাষা ব্যবহার করায় পরবর্তী ম্যাচে রয় নিষিদ্ধ হতে পারেন, এমন শঙ্কা জেগেছিল। অর্থাৎ ঘরের মাঠে ফাইনালে তিনি খেলতে পারবেন কি না সে বিষয়টা পড়েছিল হুমকির মুখে। তবে জরিমানা দিয়ে ও ডিমেরিট পয়েন্ট পেয়ে পার পেলেন তিনি।

Comments

The Daily Star  | English

Prottoy pension scheme: Quader sits with protesting university teachers

Awami League General Secretary Obaidul Quader today sat for a discussion with a delegation of university teachers currently on work stoppage to press home their demand for the cancellation of "Prottoy" under the universal pension scheme

25m ago