এবার সুযোগ কাজে লাগাতে চাই: বিজয়

২০১৫ বিশ্বকাপের মাঝ পথে ইনজুরিতে পড়ে দেশে ফিরেছিলেন এনামুল হক বিজয়। এরপর প্রায় তিন বছর পর গত বছর ফের উইন্ডিজ সিরিজে দলে ডাক পেয়েছিলেন। কিন্তু প্রত্যাশা মেটাতে না পারায় বাদ পড়ে যান আবার। তাতে অনেকেই বিজয়ের শেষ দেখে ফেলেছিলেন। তবে আবারো ফিরলেন জাতীয় দলের ডেরায়। আর এর অপেক্ষাতেই ছিলেন তিনি। এবার পারফর্ম করেই জাতীয় দলে জায়গা পোক্ত করতে চান এ ওপেনার।
Anamul Haque Bijoy
ফাইল ছবি

২০১৫ বিশ্বকাপের মাঝ পথে ইনজুরিতে পড়ে দেশে ফিরেছিলেন এনামুল হক বিজয়। এরপর প্রায় তিন বছর পর গত বছর ফের উইন্ডিজ সিরিজে দলে ডাক পেয়েছিলেন। কিন্তু প্রত্যাশা মেটাতে না পারায় বাদ পড়ে যান আবার। তাতে অনেকেই বিজয়ের শেষ দেখে ফেলেছিলেন। তবে আবারো ফিরলেন জাতীয় দলের ডেরায়। আর এর অপেক্ষাতেই ছিলেন তিনি। এবার পারফর্ম করেই জাতীয় দলে জায়গা পোক্ত করতে চান এ ওপেনার।

মূলত লিটন কুমার দাস ছুটিতে থাকায় জায়গা মিলেছে তার। তবে এ সুযোগটাই কাজে লাগাতে চান তিনি। মুঠোফোনে ডেইলি স্টারকে জানালেন নিজের অনুভূতির কথা, 'আমি এমন দিনের জন্য অপেক্ষা করছিলাম। এখন আমার একমাত্র কাজ হচ্ছে ভালো খেলা। একজন ক্রিকেটার হিসেবে আমি বিশ্বাস করি পারফরম্যান্সই সব কিছু। সিরিজটা ভালো খেলতে চাই।'

লম্বা সময় পর গত বছরের শুরুতে উইন্ডিজ সিরিজে সুযোগ পেয়ে কাজে লাগাতে পারেননি তিনি। তিন ম্যাচে করেছিলেন মাত্র ৩৩ রান। একটি ম্যাচে অবশ্য দারুণ সূচনা করেছিলেন। কিন্তু ২৩ রান করার পর অহেতুক এক শটে উইকেট বিলিয়ে দিয়ে এসেছিলেন। সে স্মৃতি ভুলে যাননি তিনি। এবার কাজটা করে দেখাতে চান এ ওপেনার, 'আশা করছি এবার সুযোগটা কাজে লাগাতে পারব। আমার জন্য সবাই দোয়া করবেন।'

বর্তমানে বাংলাদেশ এ দলের হয়ে আফগানিস্তানের বিপক্ষে খেলছেন বিজয়। সেখানে দারুণ খেলছেন তিনি। ঝকঝকে একটি সেঞ্চুরি তুলেই নির্বাচকদের দৃষ্টি কাড়েন এ ওপেনার। এছাড়া চলতি বছর ঢাকা প্রিমিয়ার লিগেও দারুণ খেলেছেন বিজয়। শুরু করেছিলেন দুর্দান্ত। টানা তিন ম্যাচে সেঞ্চুরি করেছিলেন। কিন্তু শেষ দিকে সে ধারাটা ধরে রাখতে পারেননি। তারপরও ১৬ ম্যাচে করেছেন ৫৫২ রান।

সাম্প্রতিক সময়ে তার পারফরম্যান্সেই জে ডাক পেয়েছেন তা জানালেন প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদীন নান্নুও, 'সে (বিজয়) সবসময় আমাদের দৃষ্টিতে ছিল। সম্প্রতি সে বাংলাদেশ এ দলের হয়ে দারুণ খেলেছে। আশা করছি সে তার পারফরম্যান্সের ধারাবাহিকতা শ্রীলঙ্কায় ধরে রাখবে। ইমরুল কায়েসও আমাদের দৃষ্টিতে ছিল। কিন্তু তার সাম্প্রতিক পারফরম্যান্স প্রত্যাশা অনুযায়ী নেই। তাই আমরা বিজয়কেই বেছে নিয়েছি।'

৩৭টি ওয়ানডে ম্যাচ খেলে ৩০.৫২ গড়ে ১০৩৮ রান করেছেন বিজয়। তাতে ৩টি করে সেঞ্চুরি ও হাফসেঞ্চুরিও রয়েছে তার। স্ট্রাইক রেট ৭০.৯০। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে ক্যারিয়ার সেরা ১২০ রানের ইনিংস খেলেছেন তিনি। তবে তার স্ট্রাইক রেট নিয়ে প্রায়ই আলোচনা হয়। সাম্প্রতিক সময়ে অবশ্য এ নিয়ে কাজ করছেন তিনি।

Comments

The Daily Star  | English

Change Maker: A carpenter’s literary paradise

Right in the heart of Jhalakathi lies a library stocked with over 8,000 books of various genres -- history, culture, poetry, and more.

38m ago