জাতির পিতা এ দেশের জন্য রক্ত দিয়ে গেছেন: প্রধানমন্ত্রী

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, ক্ষুধা ও দারিদ্র্য মুক্ত বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা বিনির্মাণের মাধ্যমে তার রক্তের ঋণ শোধ করতে হবে।
pm
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। ফাইল ছবি

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, ক্ষুধা ও দারিদ্র্য মুক্ত বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা বিনির্মাণের মাধ্যমে তার রক্তের ঋণ শোধ করতে হবে।

তিনি বলেন, “জাতির পিতা এ দেশের জন্য রক্ত দিয়ে গেছেন। তার স্বপ্ন পূরণের মাধ্যমে রক্তের ঋণ শোধ করতে হবে। তার স্বপ্ন ছিলো বাংলাদেশ থেকে ক্ষুধা ও দারিদ্র্য মুক্ত করে স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়া। আমরা সেই সোনার বাংলাদেশ গড়বো, সেটাই আমাদের লক্ষ্য।”

আজ (১৬ আগস্ট) জাতীয় শোক দিবস ও জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৪তম শাহাদাত বার্ষিকী উপলক্ষে বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ আয়োজিত এক সভায় প্রধানমন্ত্রী এ কথা বলেন।

আওয়ামী লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এতে সভাপতিত্ব করেন।

জাতির পিতা না থাকলেও তার আদর্শ রয়ে গেছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, “যদি তার আদর্শ হৃদয়ে ধারণ করে রাজনীতি করেন তাহলে আপনারা জনগণের বিশ্বাস ও আস্থা অর্জন করতে পারবেন।”

গত ১০ বছরে বাংলাদেশের উল্লেখযোগ্য অব্যাহত উন্নয়নে সারাবিশ্বের মানুষ আশ্চর্যান্বিত হয়েছে উল্লেখ করে শেখ হাসিনা বলেন, “একটি জাতি তখনই এগিয়ে যেতে পারে- যখন যারা স্বাধীনতার জন্য আত্মত্যাগ করেছিলো এবং নীতিগত ও আদর্শের সঙ্গে রাজনীতি করে এবং তারাই যখন ক্ষমতায় থাকে। পরাজিত শক্তির সহযোগীরা ক্ষমতায় থাকলে জাতি সামনে এগোতে পারে না।”

সভায় অন্যদের মধ্যে আওয়ামী লীগ নেতা আমির হোসেন আমু, তোফায়েল আহমেদ, মতিয়া চৌধুরী, মোহাম্মদ নাসিম, অ্যাডভোকেট আব্দুল মতিন খসরু, জাহাঙ্গীর কবির নানক, আব্দুর রহমান, এএফএম বাহাউদ্দিন নাসিম ও অ্যাডভোকেট আজমত উল্লাহ খান বক্তব্য দেন।

এর আগে সভার শুরুতে, ১৫ই আগস্টের হত্যাযজ্ঞে বঙ্গবন্ধু এবং অন্যান্য শহীদদের স্মরণে এক মিনিট নীরবতা পালন করা হয়।

Comments

The Daily Star  | English

Bailey Road fire: 2 owners of 'Cha Chumuk', manager of 'Kachchi Bhai' held for questioning

Police today detained three people, including two owners of a food shop called "Cha Chumuk" in connection with last night's deadly fire at the seven-storey building on Bailey Road in Dhaka.

25m ago