বাংলাদেশের সিদ্ধান্তে মিসবাহর ক্ষোভ ও বিরক্তি

পাকিস্তানে গিয়ে টি-টোয়েন্টি খেলতে চাইলেও বাংলাদেশের টেস্ট খেলতে না চাওয়ার কোনো যুক্তি খুঁজে পাচ্ছেন না মিসবাহ-উল হক। পাকিস্তানের প্রধান কোচ ও প্রধান নির্বাচক রীতিমতো ক্ষোভ ও বিরক্তি প্রকাশ করেছেন বাংলাদেশের প্রতি।
Misbah-ul-Haq
ছবি: এএফপি

পাকিস্তানে গিয়ে টি-টোয়েন্টি খেলতে চাইলেও বাংলাদেশের টেস্ট খেলতে না চাওয়ার কোনো যুক্তি খুঁজে পাচ্ছেন না মিসবাহ-উল হক। পাকিস্তানের প্রধান কোচ ও প্রধান নির্বাচক রীতিমতো ক্ষোভ ও বিরক্তি প্রকাশ করেছেন বাংলাদেশের প্রতি।

আইসিসির এফটিপি (ফিউচার ট্যুর প্রোগ্রাম) অনুযায়ী, আসছে মাসে পাকিস্তানের মাটিতে তিন টি-টোয়েন্টি আর দুই টেস্টের সিরিজ খেলার কথা বাংলাদেশের। নিরাপত্তাজনিত কারণে পাকিস্তানে লম্বা সময় অবস্থান করতে এর মধ্যেই অপারগতা জানিয়ে দিয়েছে বিসিবি। কেবল একটি ভেন্যুতে গিয়ে টি-টোয়েন্টি খেলতে রাজি বাংলাদেশ, টেস্ট সিরিজ চায় নিরপেক্ষ ভেন্যুতে।

কিন্তু নিরপেক্ষ ভেন্যুতে বাংলাদেশের সঙ্গে টেস্ট না খেলার কথা জানিয়ে দিয়েছে পাকিস্তানও। এবার তাদের প্রধান কোচ মিসবাহ তো রীতিমতো তেড়েই এলেন বাংলাদেশের উপর, ‘আমি তাদের রাজি না হওয়ার কারণ বুঝতে পারছি না। তারা টি-টোয়েন্টি খেলতে আসবে কিন্তু টেস্ট খেলতে আসবে না, এর কোনো যুক্তি নেই। পাকিস্তানের প্রতি এটা অবিচার।’

‘আমার কেবল মনে হচ্ছে, তারা একটা খোঁড়া যুক্তি দাঁড় করিয়েছে। এটা যদি হয়, তাহলে বড় অন্যায় হবে পাকিস্তানের প্রতি, যখন এখানে অন্য দলগুলো এসে সমস্যা ছাড়াই খেলে যাচ্ছে।’

সম্প্রতি টেস্ট খেলতে পাকিস্তানে রয়েছে শ্রীলঙ্কা দল। টেস্ট সিরিজের আগে টি-টোয়েন্টির জন্য তারা পাঠিয়েছিল দ্বিতীয় সারির দল। বেশ কিছু দিনের ব্যবধানে অনুষ্ঠিত হওয়া সিরিজ দুটিতে কোনো দলই পাকিস্তানে লম্বা সময় অবস্থান করার মতো সূচি রাখেনি। তবে টি-টোয়েন্টি আর টেস্ট সিরিজ দুটোই একসঙ্গে খেলতে হলে বাংলাদেশকে লম্বা সময়ই থাকতে হবে পাকিস্তানে। দেশটিতে নিরাপত্তা সংকট তৈরি হওয়ার পর যা কোনো দলই করেনি।

বাংলাদেশের আপত্তি এখানেই। বিসিবি পরিষ্কার জানিয়েছে, তাদের নিরাপত্তা পর্যবেক্ষক দল পাকিস্তানে ক্রিকেটারদের লম্বা সময় না থাকার পরামর্শ দিয়েছে।

শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে পাকিস্তানের টি-টোয়েন্টি ও টেস্ট সিরিজে দেখা গেছে নিরাপত্তার ঘেরাটোপ। মাঠ ও হোটেলের বাইরে ক্রিকেটারদের চলাচল ছিল ভীষণ সীমাবদ্ধ। এমনকি গ্যালারিতেও অবাধে দর্শক প্রবেশ করাতে পারেনি আয়োজকরা। ম্যাচ দেখতে কেবল বাছাই করা দর্শকদেরই আসতে দেওয়া হয়েছে। এমন দমবন্ধ পরিস্থিতিতে সেখানে লম্বা সময় থাকতে রাজি না বাংলাদেশ।

পাকিস্তান নিরপেক্ষ ভেন্যুতে খেলতে রাজি না হলে বাতিল হয়ে যেতে পারে দুদলের টেস্ট সিরিজ। আর তা হলে ২০২০ সালের গ্রীষ্মের আগে টেস্ট ম্যাচ পাচ্ছে না পাকিস্তান। কোচ মিসবাহ এত লম্বা বিরতি দেখে ক্রিকেটারদের ফর্ম নিয়ে পড়েছেন শঙ্কায়, ‘অনেক দিন পর পর খেললে পারফর্ম করা যায় না। তারা (পিসিবি) খেলোয়াড়দের দোষ দেবে কী করে যদি তারা (বিরতির পর ফিরে) পারফর্ম না করে।’

Comments

The Daily Star  | English

Air pollution caused most deaths in 2021

Air pollution has become the leading cause of death in Bangladesh, outpacing fatalities from high blood pressure, poor diet and tobacco use, found a new study.

9h ago