জিম্বাবুয়ে টেস্টে মাহমুদউল্লাহ বাদ, নতুন মুখ হাসান-ইয়াসির

দলে ফিরেছেন মোস্তাফিজুর রহমান, তাসকিন আহমেদ, মুশফিকুর রহিম ও মেহেদী হাসান মিরাজ।
Mahmudullah
মাহমুদউল্লাহ। ফাইল ছবি

ফর্মহীনতার কারণে মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের বাদ পড়ার জোরালো গুঞ্জন চলছিল। সত্যি হয়েছে সেই জল্পনা-কল্পনা। জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে আসন্ন টেস্টের বাংলাদেশের দল থেকে বাদ পড়েছেন অভিজ্ঞ তারকা ব্যাটসম্যান। তবে সরাসরি বাদ না বলে ‘বিশ্রাম’ শব্দটি ব্যবহার করেছেন প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদিন। চমক রয়েছে আরও। প্রথমবারের মতো সাদা পোশাকের দলে ডাক পেয়েছেন পেসার হাসান মাহমুদ ও টপ অর্ডার ব্যাটসম্যান ইয়াসির আলি চৌধুরী রাব্বি।

রবিবার (১৬ ফেব্রুয়ারি) জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে একমাত্র টেস্টের জন্য ১৬ সদস্যের দল ঘোষণা করেছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। দলে এসেছে অনেক পরিবর্তন। পাকিস্তানের বিপক্ষে সবশেষ রাওয়ালপিন্ডি টেস্টের দলে থাকা পেসার রুবেল হোসেনও বাদ পড়েছেন। আরেক পেসার আল-আমিন হোসেন নেই চোটের কারণে। আর বিয়ের জন্য ছুটি নিয়েছেন অলরাউন্ডার সৌম্য সরকার।

জিম্বাবুয়ে টেস্টে রাখা হবে না এমন কানাঘুষা উড়িয়ে দলে ফিরেছেন সাদা পোশাকে দেশের সেরা ব্যাটসম্যান মুশফিকুর রহিম। তার সঙ্গী হয়েছেন আরও তিন ক্রিকেটার। দুই পেসার মোস্তাফিজুর রহমান ও তাসকিন আহমেদ এবং স্পিন অলরাউন্ডার মেহেদী হাসান মিরাজকে ফেরানো হয়েছে।

দলের দুই নতুন মুখ প্রসঙ্গে বিসিবির প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল বলেছেন, ‘আমরা মনে করি, হাসান মাহমুদ এবং ইয়াসির আলী চৌধুরীর বিশাল সম্ভাবনা রয়েছে এবং তারা আমাদের ভবিষ্যৎ পরিকল্পনার একটা বড় অংশ জুড়ে আছে।’

ঘোষিত স্কোয়াড সম্পর্কে তার মূল্যায়ন, ‘আমি বিশ্বাস করি, আমরা বর্তমান পরিস্থিতিতে সম্ভাব্য সেরা টেস্ট দল নির্বাচন করেছি। অভিজ্ঞতা এবং সম্ভাবনার খুব সুন্দর মিশ্রণ রয়েছে এখানে।’

পাকিস্তান সফরে থাকলেও মিরপুর টেস্টের স্কোয়াডে ঠাঁই না পাওয়া মাহমুদউল্লাহসহ চার ক্রিকেটারের প্রসঙ্গে মিনহাজুল বলেছেন, ‘দুর্ভাগ্যজনকভাবে কিছু খেলোয়াড়কে বাদ পড়তে হয়েছে, কিন্তু ভারসাম্য এবং ধারাবাহিকতা নিশ্চিত করাকে আমরা অগ্রাধিকার দিচ্ছি। আমরা অনুভব করেছি যে মাহমুদউল্লাহর লাল বলের ক্রিকেট (টেস্ট) থেকে বিরতি প্রয়োজন। আল-আমিনের হালকা চোট রয়েছে এবং সে কারণেই আমরা ভেবেছি যে সীমিত ওভারের ম্যাচগুলির জন্য পুরোপুরি প্রস্তুত হওয়ার সময় দেওয়া উচিত তাকে যেখানে সে বেশি গুরুত্বপূর্ণ। রুবেল এই মুহূর্তে আমাদের লাল বলের পরিকল্পনার অংশ নয়। সৌম্য ছুটির জন্য আবেদন করেছিল এবং সে কারণে তাকে বিবেচনা করা হয়নি।’

১৬ সদস্যের এই স্কোয়াড থেকে টেস্টের আগের দিন তিন ক্রিকেটারকে ছেড়ে দেওয়া হবে। বাকি ১৩ জন একাদশে সুযোগ পাওয়ার জন্য বিবেচনায় থাকবেন। জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে আগামী ২২ ফেব্রুয়ারি মিরপুর শের-ই-বাংলা ক্রিকেট স্টেডিয়ামে টেস্ট খেলতে নামবে বাংলাদেশ।

মিরপুর টেস্টের বাংলাদেশ দল: মুমিনুল হক (অধিনায়ক), তামিম ইকবাল, সাইফ হাসান, নাজমুল হোসেন শান্ত, মুশফিকুর রহিম, মোহাম্মদ মিঠুন, লিটন দাস, তাইজুল ইসলাম, নাঈম হাসান, ইবাদত হোসেন, আবু জায়েদ চৌধুরী রাহি, তাসকিন আহমেদ, মোস্তাফিজুর রহমান, হাসান মাহমুদ, মেহেদী হাসান মিরাজ ও ইয়াসির আলি চৌধুরী রাব্বি।

Comments

The Daily Star  | English

Fixed expenses to eat up 40pc of next budget

The government has to spend about 40 percent of the next budget on subsidies, interest payments, and salaries and allowances of government employees, which will limit its ability to spend on social safety net, health and education.

1h ago