খেলা

প্রথম সেশনেই বিপর্যয়ে জিম্বাবুয়ে

প্রথম ইনিংসেই বড় ব্যবধানে পিছিয়ে আছে জিম্বাবুয়ে। তার উপর আগের দিন শেষ বিকেলেই নেই ২ উইকেট। চতুর্থ দিন ভালো কিছুর আশায় মাঠে নেমেছিল সফরকারীরা। তবে শুরুতেই স্পিনারদের ঘূর্ণিতে পড়ে বড় চাপে পড়ে। এরপর অধিনায়ক ক্রেইগ আরভিন ও অভিজ্ঞ ক্রিকেটার সিকান্দার রাজা হাল ধরার চেষ্টা করলেও তাদের প্রতিরোধ শেষ হয় টাইগারদের দারুণ ফিল্ডিংয়ে। ফলে বড় বিপর্যয়েই পড়েছে জিম্বাবুয়ে।
ছবি: ফিরোজ আহমেদ

প্রথম ইনিংসেই বড় ব্যবধানে পিছিয়ে আছে জিম্বাবুয়ে। তার উপর আগের দিন শেষ বিকেলেই নেই ২ উইকেট। চতুর্থ দিন ভালো কিছুর আশায় মাঠে নেমেছিল সফরকারীরা। তবে শুরুতেই স্পিনারদের ঘূর্ণিতে পড়ে বড় চাপে পড়ে। এরপর অধিনায়ক ক্রেইগ আরভিন ও অভিজ্ঞ ক্রিকেটার সিকান্দার রাজা হাল ধরার চেষ্টা করলেও তাদের প্রতিরোধ শেষ হয় টাইগারদের দারুণ ফিল্ডিংয়ে। ফলে বড় বিপর্যয়েই পড়েছে জিম্বাবুয়ে।

মঙ্গলবার মিরপুর শেরে বাংলা ক্রিকেট স্টেডিয়ামে টেস্টের প্রথম সেশন পর্যন্ত ব্যাট করে ৫ উইকেটে ১১৪ রান করেছে জিম্বাবুয়ে। এখনও ১৮১ রানে পিছিয়ে আছে দলটি।

এদিন সকালেই জিম্বাবুয়েকে চেপে ধরে টাইগাররা। পঞ্চম ওভারেই আসে সাফল্য। তাইজুলের বলে স্লিপে ক্যাচ দিয়ে সাজঘরমুখী হন কেভিন কাসুজা। ছয় ওভার পর বল পর হাতে নিয়েই তোপ দাগান নাঈমও। অভিজ্ঞ ব্র্যান্ডন টেইলর স্লগ সুইপ খেলতে গিয়ে স্কয়ার লেগে সহজ ক্যাচ দিয়ে বিদায় নেন। ফলে ৪৪ রানে ৪ উইকেট হারিয়ে বড় চাপে পড়ে যায় জিম্বাবুয়ে।

এরপর রাজাকে নিয়ে ইনিংস মেরামতের কাজে নামেন আরভিন। ৬৬ রানের জুটিতে দলকে চাপমুক্ত করার চেষ্টা করেন তারা। তবে ৩০তম ওভারে শেষ বলে অনেকটা আত্মহত্যা করেন আরভিন। কাভার-পয়েন্টে ঠেলে দিয়ে সিঙ্গেল নিতে গিয়েছিলেন রাজা। সাড়া দেন আরভিন। অথচ সেখানে রান ছিল না। দ্রুতই বল ধরে দারুণ থ্রোতে স্টাম্প ভাঙলে সাজঘরে ফিরতে হয় আরভিনকে।

এদিনও দারুণ কিছু করার ইঙ্গিত দিচ্ছিলেন আরভিন। ৪৩ রানের ইনিংস খেলেন তিনি। অনেকটা ওয়ানডে স্টাইলেই ব্যাট চালান তিনি। ৪৯ বলে ৬টি চার ও ১টি ছক্কায় এ রান করেন তিনি। তবে রাজা উইকেটে টিকে আছেন ৩৩ রানে। ৫৬ বলে ৩টি চার ও ১টি ছক্কায় এ রান করেন তিনি। তার সঙ্গী টিমিচেন মারুমা ব্যাট করছেন ৩ রানে।

বাংলাদেশের হয়ে দারুণ বোলিং করছেন নাঈম হাসান। ৩টি শিকার তার। পেতে পারতেন আরও একটি। ২৯তম ওভারের প্রথম বলে আরভিনকে অতিরিক্ত বাউন্সে পরাজিত করেছিলেন নাঈম। এগিয়ে গিয়ে ব্যাট করতে গিয়ে বাড়তি বাউন্সে লাইন মিস করেন আরভিন। কিন্তু বলটাই ধরতে পারেননি উইকেটরক্ষক লিটন কুমার দাস। অন্যথায় সহজ স্টাম্পিং করতে পারতেন তিনি। অপর উইকেটটি পেয়েছেন তাইজুল ইসলাম।

সংক্ষিপ্ত স্কোর: (চতুর্থ দিনের প্রথম সেশন পর্যন্ত)

জিম্বাবুয়ে প্রথম ইনিংস: ২৬৫

বাংলাদেশ প্রথম ইনিংস: ৫৬০/৬

জিম্বাবুয়ে দ্বিতীয় ইনিংস: ৩২ ওভারে ১১৪/৫ (মাসাউরে ০, কাসুজা ১০, টিরিপানো ০, টেইলর ১৭, আরভিন ৪৩, রাজা ব্যাটিং ৩৩, মারুমা ব্যাটিং ৩; নাঈম ৩/৪৪, তাইজুল ১/৪২, রাহী ০/৪, ইবাদত ০/১৬)।

Comments