ভারতকে গুঁড়িয়ে নারী টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের শিরোপা অস্ট্রেলিয়ার

মেলবোর্নে বিশ্বকাপের ফাইনালে ভারতকে ৮৫ রানে উড়িয়ে দিয়েছে স্বাগতিক অস্ট্রেলিয়া।
australia womens
ছবি: টুইটার

ভারতীয় বোলারদের ওপর তাণ্ডব চালিয়ে অ্যালিসা হিলি আর বেথ মুনি গড়লেন শতরানের ওপেনিং জুটি। দুজনেই তুলে নিলেন হাফসেঞ্চুরি। হিলি ফিরলেও মুনি উইকেটে থাকলেন শেষ পর্যন্ত। তাদের কল্যাণে শিরোপা নির্ধারণী মঞ্চে বড় সংগ্রহ গড়ল অস্ট্রেলিয়া নারী ক্রিকেট দল। এরপর নতুন বলে আক্রমণ শুরু করা ডানহাতি পেসার মেগান শাট ও বাঁহাতি স্পিনার জেস জোনাসেন এলোমেলো করে দিলেন ভারতের মেয়েদের টপ অর্ডার। এই ধাক্কা আর কাটিয়ে উঠতে না পেরে তারা গুটিয়ে গেল একশর নিচে। বিশাল জয়ে নারী টি-টোয়েন্টি বিশকাপের শিরোপা ধরে রাখল অজিরা।

রবিবার (৮ মার্চ) মেলবোর্নে বিশ্বকাপের ফাইনালে ভারতকে ৮৫ রানে উড়িয়ে দিয়ে চ্যাম্পিয়ন হয়েছে স্বাগতিক অস্ট্রেলিয়া। টস জিতে ব্যাটিংয়ে নেমে নির্ধারিত ২০ ওভারে স্কোরবোর্ডে ৪ উইকেটে ১৮৪ রান তোলে অজিরা। জবাবে ৫ বল বাকি থাকতে ভারতীয়রা অলআউট হয় মাত্র ৯৯ রানে। তাতে ঘরের মাঠের স্টেডিয়ামে উপস্থিত ৮৬ হাজার ১৭৪ জন দর্শকের সামনে উল্লাসে মাতেন হিলি-মুনিরা।

নারী টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের সাত আসরে এটি অস্ট্রেলিয়ার পঞ্চম শিরোপা। একবার তারা হয়েছে রানার্সআপ। গেল আসরেও তারা ইংল্যান্ডের মেয়েদের হারিয়ে শিরোপা জিতেছিল। আর এবারই প্রথম বিশ্বকাপের ফাইনালে ওঠা ভারতকে সন্তুষ্ট থাকতে হলো রানার্সআপ হয়ে।

এবারের বিশ্বকাপের উদ্বোধনী ম্যাচেও মুখোমুখি হয়েছিল অস্ট্রেলিয়া ও ভারত। সে ম্যাচে অজিদের ১৭ রানে হারিয়ে চমকে দিয়েছিল ভারত। কিন্তু ফাইনালটা হয়েছে একপেশে। মেগ ল্যানিংয়ের দলের সঙ্গে ন্যূনতম প্রতিদ্বন্দ্বিতাও গড়তে পারেননি হারমানপ্রিত কাউররা।

হিলি ৩৯ বলের ঝড়ো ইনিংসে করেন ৭৫ রান। তার ব্যাট থেকে আসে ৭ চার ও ৫ ছক্কা। আরেক ওপেনার মুনি ৫৪ বলে ১০ রানে ৭৮ রানে অপরাজিত থাকেন। দুজনে উদ্বোধনী জুটিতে ১১.৪ ওভারে যোগ করেন ১১৫ রান। ভারতের হয়ে ৩৮ রানে ২ উইকেট নেন দিপ্তি শর্মা। দলটির সব বোলারই ওভারপ্রতি সাতের বেশি রান দেন। সবচেয়ে বড় ঝড়টা গেছে পেসার শিখা পান্ডের ওপর দিয়ে। ৪ ওভারে ৫২ রান দেন তিনি, পাননি কোনো উইকেট।

লক্ষ্য তাড়ায় পাওয়ার প্লের মধ্যে ৪ উইকেট হারিয়ে ফেলে ভারত। তানিয়া ভাটিয়া মাথায় আঘাত পেয়ে আহত অবসরে যান। ইনিংসের পরের দিকে তার কনকাশন বদলি হিসেবে ব্যাট করতে নামেন রিচা ঘোষ। অর্থাৎ ফাইনালে ভারতের মোট ১২ খেলোয়াড় ব্যাটিং করেন।

নিয়মিত বিরতিতে উইকেট হারানো ভারতের মাত্র চার ব্যাটসম্যান পৌঁছান দুই অঙ্কে। ছয়ে নামা দিপ্তির ৩৫ বলে ৩৩ রানের ইনিংস কেবল হারের ব্যবধান কমায়। এছাড়া স্মৃতি মান্ধানা ১১, ভেদা কৃষ্ণমূর্তি ১৯ ও রিচা ১৮ রান করেন। অস্ট্রেলিয়ার হয়ে শাট ১৮ রানে নেন ৪ উইকেট। জোনাসেন ৩ উইকেট দখল করেন ২০ রান খরচায়।

সংক্ষিপ্ত স্কোর:

অস্ট্রেলিয়া: ২০ ওভারে ১৮৪/৪ (হিলি ৭৫, মুনি ৭৮*, ল্যানিং ১৬, গার্ডনার ২, হেইনেস ৪, কেয়ারি ৫*; দিপ্তি ২/৩৮, শিখা ০/৫২, রাজেশ্বরী ০/২৯, পুনম ১/৩০, রাধা ১/৩৪)

ভারত: ১৯.১ ওভারে ৯৯ (শেফালি ২, মান্ধানা ১১, তানিয়া আহত অবসর ২, জেমিমা ০, হারমানপ্রিত ৪, দিপ্তি ৩৩, কৃষ্ণমূর্তি ১৯, রিচা ১৮, শিখা ২, রাধা ১, পুনম ১, রাজেশ্বরী ১*; শাট ৪/১৮, জোনাসেন ৩/২০, মলিনেউ ১/২১, কিমিন্সে ১/১৭, কেয়ারি ১/২৩)

ফল: অস্ট্রেলিয়া নারী ক্রিকেট দল ৮৫ রানে জয়ী।

ম্যাচসেরা: অ্যালিসা হিলি।

Comments

The Daily Star  | English

Iran says it gave warning before attacking Israel; US says that's not true

Turkish, Jordanian and Iraqi officials said Iran gave wide notice days before its drone and missile attack on Israel, but US officials said Tehran did not warn Washington and that it was aiming to cause significant damage

1h ago