খেলা

করোনাভাইরাস: সেলফিও তুলতে পারবেন না ইংলিশ ক্রিকেটাররা

ভক্তদের অটোগ্রাফ দেওয়া থেকেও ক্রিকেটারদের বিরত থাকতে বলেছে ইসিবি।
root and burns
জো রুট ও ররি বার্নস (ডানে)। ছবি: এএফপি

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ এড়াতে আরও কিছু সতর্কতামূলক ব্যবস্থা গ্রহণ করেছে ইংল্যান্ড অ্যান্ড ওয়েলস ক্রিকেট বোর্ড (ইসিবি)। আসন্ন শ্রীলঙ্কা সফরে প্রতিপক্ষের সঙ্গে ‘হ্যান্ডশেক’ (করমর্দন) না করার নির্দেশনা দলের ক্রিকেটারদের আগেই দিয়েছিল তারা। এবার ভক্তদের সঙ্গে সেলফি তোলা থেকে বিরত থাকতে এবং জনসমাগম যতটা সম্ভব এড়িয়ে চলতে বলা হয়েছে খেলোয়াড়দের।

বুধবার (১১ মার্চ) এক বিবৃতিতে ভক্তদের অটোগ্রাফ দেওয়া থেকেও ক্রিকেটারদের বিরত থাকতে বলেছে ইসিবি।

‘ইংল্যান্ডের খেলোয়াড় এবং স্টাফদের যেকোনো ধরনের অপ্রয়োজনীয় জনসমাগম এবং অস্থায়ীভাবে ভক্তদের সঙ্গে সেলফি তোলা বা অটোগ্রাফ দেওয়ার মতো নৈমিত্তিক বিষয়গুলো এড়িয়ে যেতে বলা হয়েছে। যদিও আমরা স্বীকার করি, কিছু সমর্থকদের জন্য এটি হতাশাব্যঞ্জক হবে। কিন্তু আমরা জোর দিয়ে বলতে চাই, ইংল্যান্ড টেস্ট স্কোয়াডের সুরক্ষার জন্যই এই পদক্ষেপ এবং এটি এমন একটি সিদ্ধান্ত, যা হালকাভাবে নেওয়া হয়নি।’

বিবৃতিতে ভক্তদের প্রতি অনুরোধ জানিয়ে ইসিবি আরও বলেছে, ভাইরাসের সংক্রমণ ও বিস্তার রোধে তারা যেন বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার নির্দেশনা অনুসরণ করে চলেন।

গেল সোমবার ব্রিটিশ গণমাধ্যম বিবিসি তাদের এক প্রতিবেদনে জানায়, ইংলিশ অধিনায়ক জো রুট শ্রীলঙ্কার ঘরের মাঠের সিরিজে হ্যান্ডশেক না করার বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

সবশেষ দক্ষিণ আফ্রিকা সফরে পাকস্থলি ও অন্ত্রের প্রদাহ এবং ফ্লু জাতীয় সমস্যায় ভুগেছে ইংল্যান্ড। সতর্কতার অংশ হিসেবে তাই লঙ্কান ক্রিকেটারদের সঙ্গে হাতে হাত মেলানোর পরিবর্তে ‘ফিস্ট বাম্পস’ (হাত মুষ্টিবদ্ধ করে অন্যের মুষ্টিবদ্ধ হাতের সঙ্গে আলতো করে টোকা দেওয়া) করবে ইংলিশরা।

চলতি মাসে দুই ম্যাচের টেস্ট সিরিজ খেলবে শ্রীলঙ্কা ও ইংল্যান্ড। ম্যাচগুলো বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের অন্তর্ভুক্ত। গলে প্রথম টেস্ট মাঠে গড়াবে আগামী ১৯ মার্চ। আর ২৭ মার্চ থেকে শুরু হতে যাওয়া শেষ টেস্টের ভেন্যু কলম্বো।

Comments