কোহলির নজর এখন মানসিক স্বাস্থ্যের দিকে

অপ্রত্যাশিত ছুটির প্রথমভাগটা হতে পারে স্বস্তির। ছুটি লম্বা হলে দ্বিতীয় ভাগে ফিটনেস ঠিক রাখার চিন্তা হয় বড়। আর আরও লম্বা হলে তখন দেখা দিতে পারে মানসিক অস্থিরতা, অস্বস্তি। করোনাভাইরাসের কারণে গৃহবন্দী সময়টা দীর্ঘতর হওয়া ভারত অধিনায়ক বিরাট কোহলি তাই নজর দিচ্ছেন নিজের মনের দিকে।
virat kohli
ছবি: বিসিবি

অপ্রত্যাশিত ছুটির প্রথমভাগটা হতে পারে স্বস্তির। ছুটি লম্বা হলে দ্বিতীয় ভাগে ফিটনেস ঠিক রাখার চিন্তা হয় বড়। আর আরও লম্বা হলে তখন দেখা দিতে পারে মানসিক অস্থিরতা, অস্বস্তি। করোনাভাইরাসের কারণে গৃহবন্দী সময়টা দীর্ঘতর হওয়া ভারত অধিনায়ক বিরাট কোহলি তাই নজর দিচ্ছেন নিজের মনের দিকে।

একটি ভারতীয় টিভি চ্যানেলে সাক্ষাতকারে কোহলি জানান আপাতত নিজেকে ফুরফুরে রাখার চেষ্টা করছেন তিনি। যেকোনো সময় খেলা শুরু হলেও যাতে চাঙ্গা থাকতে পারেন সেই চ্যালেঞ্জ এখন তার কাছে বড়।

‘এই মুহূর্তে আমি নিজেকে যত বেশি সম্ভব ইতিবাচক রাখার চেষ্টা করছি, আনন্দে থাকার চেষ্টা করছি, ফুরফুরে থাকাকে গুরুত্ব দিচ্ছি। জীবনে সামনে কি আছে তা নিয়ে ভাবছি। একটা সময় খেলা শুরু হবে। খেলা শুরু হলেই যাতে আমি পরিপূর্ণ আত্মবিশ্বাস নিয়ে নামতে পারি, সেজন্য নিজেকে তৈরি রাখছি।’

আন্তর্জাতিক খেলোয়াড়দের এত দীর্ঘ সময় বাড়িতে বসে থাকার অভ্যাস নেই। শুরুর দিকে এই অবসরটা তাদের জন্য ছিল শাপেবর। পারিবারকে নিবিড় সময় দিতে পারার সুযোগ দেখছিলেন অনেকে। কিন্তু মাঠেই যাদের জীবন নিবিষ্ট, একসময় বন্দি সময়টা বিষিয়ে উঠতে বাধ্য।

ক্রীড়া চিকিৎসকদের অনেকে তাই খেলোয়াড়দের মানসিক স্বাস্থ্যের দিকে নজর দিচ্ছেন। ভারতীয় দলের মেডিকেল বিভাগের পরামর্শও তাই। ভারত অধিনায়ক তাই নেতিবাচক ব্যাপার এড়িয়ে নিজের মনকে রাখছেন সচেষ্ট।

নতুন করোনাভাইরাস কোভিড-১৯ মহামারিতে ভারতে আক্রান্তের সংখ্যা ৫০ হাজার ছাড়িয়েছে। বৃহস্পতিবার পর্যন্ত মৃতের সংখ্যা ১৭৮৭ জন।

Comments

The Daily Star  | English

Rajuk seals off Nababi Bhoj and fines Swiss Bakery

Both restaurants are located on Bailey Road, where a fire claimed 46 lives last week

Now