১৬ মে থেকে মাঠে গড়াচ্ছে বুন্ডেসলিগা

বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানিয়েছে, প্রায় দুই মাস ধরে স্থগিত থাকা বুন্ডেসলিগা আগামী ১৬ মে থেকে শুরু হচ্ছে।
bayern munich and borussia dortmund
ছবি: এএফপি

অবশেষে এসেছে চূড়ান্ত ঘোষণা। করোনাভাইরাসের কারণে স্থগিত হয়ে থাকা বুন্ডেসলিগা ফের চালু হতে যাচ্ছে। জার্মানির শীর্ষ ক্লাব প্রতিযোগিতা মাঠে গড়াবে আগামী ১৬ মে থেকে। সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের সবুজ সংকেতের পর এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

বৃহস্পতিবার বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানিয়েছে, প্রায় দুই মাস ধরে স্থগিত থাকা বুন্ডেসলিগা আগামী ১৬ মে থেকে শুরু হচ্ছে। জার্মান ফুটবল লিগের (ডিএফএল) প্রধান নির্বাহী ক্রিস্টিয়ান সেইফের্ট এক সংবাদ সম্মেলনে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। ইউরোপের শীর্ষ লিগগুলোর মধ্যে বুন্ডেসলিগা কর্তৃপক্ষই সবার আগে ফুটবল মৌসুম আবার চালু করতে যাচ্ছে।

গেল এপ্রিলের মাঝামাঝি সময় থেকে অনুশীলন শুরু করেছে বায়ার্ন মিউনিখ, বরুসিয়া ডর্টমুন্ডসহ বুন্ডেসলিগার ক্লাবগুলো। তবে কবে থেকে লিগ চালু হবে তা নিয়ে ছিল ধোঁয়াশা। ডিএফএলের এই ঘোষণায় অবশ্য কেটে গেছে সব দোলাচল। জুনের মধ্যে লিগ শেষ করার ব্যাপারেও আশাবাদ ব্যক্ত করেছে তারা।

রয়টার্স তাদের প্রতিবেদনে আরও জানিয়েছে, লিগ চালুর প্রথম দিনেই দেখা মিলবে জমজমাট লড়াইয়ের। ডার্বি ম্যাচে শালকে জিরো ফোরের মুখোমুখি হবে বরুসিয়া ডর্টমুন্ড। বাকি ম্যাচগুলোর সূচি এখনও জানা যায়নি।

তবে খেলা শুরু হলেও মাঠে দর্শক প্রবেশের অনুমতি দিচ্ছে না বুন্ডেসলিগা কর্তৃপক্ষ। দর্শকশূন্য স্টেডিয়ামে খেলতে হবে রবার্ট লেওয়ানডস্কি, ফিলিপ কুতিনহো, মার্কো রয়িস, এর্লিং ব্রাট হালান্ডদের। তা ছাড়া, ক্লাবগুলোকে স্বাস্থ্যবিধি বিষয়ক নির্দেশনা কঠোরভাবে অনুসরণের কথাও মনে করিয়ে দিয়েছেন ডিএফএলের প্রধান নির্বাহী সেইফের্ট।

উল্লেখ্য, করোনাভাইরাস মহামারি আকারে ছড়িয়ে পড়ায় গেল ১৩ মার্চ থেকে স্থগিত হয়ে আছে বুন্ডেসলিগা। তার আগে ২৫ ম্যাচে ৫৫ পয়েন্ট নিয়ে শিরোপার দৌড়ে শীর্ষে ছিল টানা সাতবারের চ্যাম্পিয়ন বায়ার্ন মিউনিখ। দুইয়ে থাকা বরুসিয়া ডর্টমুন্ডের অর্জন ৫১ পয়েন্ট। ৫০ পয়েন্ট নিয়ে তাদের ঠিক পেছনেই আছে আরবি লাইপজিগ। লিগের এখনও নয় রাউন্ডের খেলা বাকি।

Comments

The Daily Star  | English

Took action against 'former peon' who amassed Tk 400cr: PM

Prime Minister Sheikh Hasina said she has taken action against a former "peon" of her own house who amassed Tk 400 crore in wealth

1h ago