পাবনায় প্রকাশ্যে ব্যবসায়ীর টাকা ছিনতাইকালে ছাত্রলীগ নেতাসহ আটক ৩

পাবনায় প্রকাশ্যে এক ব্যবসায়ীর প্রায় ছয় লাখ টাকা ও সাত লাখ টাকার চেক ছিনতাই করে পালানোর সময় জেলা ছাত্রলীগের সহসভাপতি রুহুল আমিনসহ তিন জনকে আটক করে পুলিশের হাতে তুলে দিয়েছে স্থানীয়রা।

পাবনায় প্রকাশ্যে এক ব্যবসায়ীর প্রায় ছয় লাখ টাকা ও সাত লাখ টাকার চেক ছিনতাই করে পালানোর সময় জেলা ছাত্রলীগের সহসভাপতি রুহুল আমিনসহ তিন জনকে আটক করে পুলিশের হাতে তুলে দিয়েছে স্থানীয়রা।

আজ রবিবার দুপুরে জেলার সাঁথিয়া উপজেলার ভুলবাড়িয়া ইউনিয়নের বৃহঃস্পতিপুর বাজার থেকে তাদের আটক করা হয়। আতাইকুলা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা নাসিরুল ইসলাম এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

নাসিরুল ইসলাম জানান, রবিবার দুপুরে সাঁথিয়া এলাকার ব্যবসায়ী সিরাজুল ইসলাম নগদ পাঁচ লাখ পঁচাশি হাজার আটশত টাকা ও সাত লাখ টাকার চেক অগ্রণী ব্যাংকের আতাইকুলা শাখায় জমা দিতে যাচ্ছিলেন। এ সময় বৃহঃস্পতিপুর বাজার এলাকায় ভিড়ের মধ্যে রুহুল আমিন ও তার অনুসারীরা ওই ব্যবসায়ীকে ছুরি দিয়ে আঘাত করে টাকা ও চেক ছিনিয়ে নিয়ে পালানোর চেষ্টা করে। পরে ব্যবসায়ী সিরাজুলের চিৎকারে স্থানীয়রা রুহুল ও তার তিন সঙ্গীকে আটক করে পুলিশের হাতে তুলে দেয়।

ওসি আরও জানান, আটককৃতদের আতাইকুলা থানায় নেওয়া হয়েছে। তাদের কাছ থেকে চার লাখ বিশ হাজার টাকা উদ্ধার করা হয়েছে। বাকি টাকা উদ্ধারের চেষ্টা চলছে।

এ ঘটনায় ভুক্তভোগী ব্যবসায়ী সিরাজুল বাদী হয়ে আতাইকুলা থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন।

ছিনতাইয়ের অভিযোগে ছাত্রলীগ সহসভাপতির আটক হওয়ার ঘটনাকে দুঃখজনক হিসেবে অভিহিত করেন পাবনা জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক তাজুল ইসলাম।

জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক তাজুল ইসলাম বলেন, ‘কারো ব্যক্তিগত অপরাধের দায় সংগঠন নেবে না। এক্ষেত্রে, অপরাধে যুক্ত থাকার প্রমাণ পেলে তাকে ছাত্রলীগ থেকে স্থায়ীভাবে বহিষ্কার করা হবে।’

আটককৃতরা হলেন- পাবনা জেলা ছাত্রলীগের সহসভাপতি রুহুল আমিন (২৭), রানা হক (২৭) এবং শিপন হোসেন (২৫)।

Comments

The Daily Star  | English
Corruption in Bangladesh civil service

The nine lives of a corrupt public servant

Let's delve into the hypothetical lifelines in a public servant’s career that help them indulge in corruption.

5h ago