প্রবাস

বাংলাদেশ থেকে পাচার হওয়া অর্থ প্রবেশ বন্ধে উদ্যোগ নিবে কানাডার অন্টারিও লিবারেল পার্টি

কানাডার অন্যতম বড় প্রদেশ অন্টারিওর লিবারেল পার্টির নেতা স্টিভেন ডেল ডোকা বলেছেন, আগামী নির্বাচনে প্রিমিয়ার (মুখ্যমন্ত্রী) হিসেবে নির্বাচিত হলে তিনি প্রদেশটিতে মুদ্রা পাচার হয়ে আসা বন্ধে উদ্যোগ নেবেন।
Steven Del Duca
কানাডার অন্টারিও প্রদেশের লিবারেল পার্টির নেতা স্টিভেন ডেল ডোকা। ছবি: সংগৃহীত

কানাডার অন্যতম বড় প্রদেশ অন্টারিওর লিবারেল পার্টির নেতা স্টিভেন ডেল ডোকা বলেছেন, আগামী নির্বাচনে প্রিমিয়ার (মুখ্যমন্ত্রী) হিসেবে নির্বাচিত হলে তিনি প্রদেশটিতে মুদ্রা পাচার হয়ে আসা বন্ধে উদ্যোগ নেবেন।

‘আমি জানি, এই ধরনের মুদ্রা পাচারের ঘটনা বাংলাদেশি কমিউনটিসহ অন্যান্য কমিউনিটিকেও ক্ষতিগ্রস্ত করছে,’ উল্লেখ করে তিনি বলেন, ‘অন্টারিও প্রাদেশিক পুলিশ, আরসিএমপি রেভিনিউ কানাডাকে সমন্বিত করে যৌথভাবে এই সমস্যা সমাধানের উদ্যোগ নিতে হবে।’

কানাডার বাংলা পত্রিকা নতুনদেশ এর প্রধান সম্পাদক শওগাত আলী সাগরের সঙ্গে গতকাল শনিবার টরন্টো সময় সকালে ভার্চুয়াল আলোচনায় প্রাদেশিক লিবারেল পার্টির নেতা স্টিভেন ডেল ডোকা এ কথা বলেন।

আলোচনায় তিনি অন্টারিও প্রাদেশিক সরকারের করোনা মোকাবিলা, অর্থনীতি, স্বাস্থ্যসেবাসহ অন্যান্য জরুরি সেবাখাত নিয়ে নাগরিকদের জন্য তার কর্মপরিকল্পনাও তুলে ধরেন।

বাংলাদেশের ব্যাংকিং ব্যবস্থা থেকে চুরি হওয়া অর্থ কানাডায় পাচার হওয়ার প্রসঙ্গ তুলে ধরে শওগাত আলী সাগর জানতে চান— প্রদেশের প্র্রিমিয়ার হিসেবে নির্বাচিত হলে অন্টারিও যাতে মুদ্রা পাচারকারীদের অভয়ারণ্যে পরিণত না হয় সে ব্যাপারে কী উদ্যোগ নেবেন?

লিবারেল নেতা স্টিভেন বলেন, ‘আমি এ বিষয়ে বিশেষজ্ঞ নই। তবে প্রিমিয়ার হিসেবে নির্বাচিত হলে সংশ্লিষ্ট সংস্থাগুলোকে সমন্বিত করে পাচার হওয়া অর্থ প্রদেশে আসা বন্ধে উদ্যোগ নেবো।’

সংশ্লিষ্ট সংস্থাগুলো যাতে সুনির্দিষ্ট কর্মপন্থা নিয়ে কাজ করতে পারে সে জন্য প্রয়োজনীয় তহবিল প্রাপ্তি নিশ্চিত করা হবে বলেও যোগ করেন তিনি।

বাংলাদেশি অধ্যূষিত স্কারবোরো সাউথওয়েস্ট ও বিচেস ইস্ট ইয়র্ক নির্বাচনী এলাকায় বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত প্রার্থীদের মনোনয়নের জন্য বিবেচনা করা হবে কিনা? স্টিভেন বলেন, ‘শুধু এই দুটি আসনই নয়, আরও বেশি নির্বাচনী এলাকায় বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত যোগ্য প্রার্থীরা প্রতিদ্বন্দ্বিতার জন্য এগিয়ে এলে আমি খুবই খুশি হব।’

তিনি আরও বলেন, ‘দুই বছর আগের নির্বাচনে দল ক্ষমতায় ছিল। অধিকাংশ আসনই দীর্ঘ দিনের পুরনো নেতাদের আয়ত্ত্বে ছিল। এখন অনেক সুযোগ সৃষ্টি হয়েছে। বাংলাদেশি কমিউনিটিসহ প্রত্যেক কমিউনিটি থেকেই আমরা উল্লেখযোগ্য সংখ্যক প্রার্থী আশা করতে পারি।’

‘বাংলাদেশি কমিউনিটির সত্যিকারের যোগ্য ও মেধাবী তরুণরা আগামী নির্বাচনে লিবারেল পার্টির মনোনয়নের জন্য এগিয়ে আসবে এবং কেউ কেউ অন্টারিও লিবারেল পার্টির মনোনয়ন লাভে সক্ষম হবে বলে আমি আশা করি।’

প্রার্থীতা বাছাইয়ে একটি দল প্রার্থীর কাছে কী চায়? স্টিভেন বলেন, ‘পরিশ্রমী, দক্ষ ও যোগ্য তরুণদের সম্ভাব্য প্রার্থীতার জন্য লিবারেল পার্টি বিবেচনায় রাখছে। একজন সম্ভাব্য প্রার্থীকে অবশ্যই দলের মূল্যবোধ মনে-প্রাণে ধারণ করে বৈচিত্র, সহিষ্ণুতা, অন্যকে সমর্থন ও সহযোগিতা করার মানসিকতার প্রমাণ দিতে হবে।’

নিজের অভিজ্ঞতা তুলে ধরে ৪৬ বছর বয়সী এই নেতা বলেন, ‘আমি ১৫ বছর বয়স থেকে লিবারেল পার্টির কর্মসূচির সঙ্গে যুক্ত আছি। একটি দলের প্রার্থী হওয়া একেবারে সহজ ব্যাপার নয়। প্রত্যেক দলই নিবেদিত প্রাণ, পরিশ্রমী ব্যক্তিকে প্রার্থী হিসেবে দেখতে চায়। নির্বাচনী এলাকায় হাজার হাজার দরজায় গিয়ে ভোটারদের সঙ্গে সরাসরি কথা বলার অভিজ্ঞতা, তহবিল সংগ্রহ, দলের বার্তা কার্যকরভাবে নাগরিকদের কাছে পৌঁছে দেওয়ার মতো যোগযোগের দক্ষতা থাকতে হবে।’

‘দলের নেতা নির্বাচনের সময় আমার ঘোষণা ছিল নারী-পূরুষ সমান সংখ্যক প্রার্থী মনোনয়ন দেওয়া। আগামী নির্বাচনে সেটি বাস্তবায়নের চেষ্টা করা হবে,’ যোগ করেন তিনি। বলেন, ‘আমি আরও বেশি সংখ্যক তরুণ ও নারীদের প্রার্থী হিসেবে দেখতে চাই।’

স্টিভেন ডেল ডোকা অন্টারিও লিবারেল পার্টির নেতা হিসেবে নতুন নির্বাচিত হয়েছেন। আগামী ২০২২ সালের জুনে অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া নির্বাচনে তার দল জয়ী হলে তিনি প্রদেশটির মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব পালন করবেন।

Comments

The Daily Star  | English

Babar Ali: Another Bangladeshi summits Mount Everest

Before him, Musa Ibrahim (2010), M.A. Muhit (2011), Nishat Majumdar (2012), and Wasfia Nazreen (2012) successfully summited Mount Everest. Mohammed Khaled Hossain summited Mount Everest in 2013 but died on his way down

52m ago