করোনাভাইরাস

বিশ্বে মৃত্যু ৫ লাখ ৩৪ হাজার, ব্রাজিলে প্রায় ৬৫ হাজার

বিশ্বব্যাপী প্রতিনিয়ত মহামারি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা বাড়ছে। ইতোমধ্যে পাঁচ লাখ ৩৪ হাজারেরও বেশি মানুষ মারা গেছেন। আক্রান্ত হয়েছেন এক কোটি ১৪ লাখের বেশি। এ ছাড়া, সুস্থও হয়েছেন সাড়ে ৬১ লাখের বেশি মানুষ।
ব্রাজিলে করোনা আক্রান্ত রোগীকে পরীক্ষা করছেন স্বাস্থ্যকর্মীরা। ২ জুলাই ২০২০। ছবি: রয়টার্স

বিশ্বব্যাপী প্রতিনিয়ত মহামারি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা বাড়ছে। ইতোমধ্যে পাঁচ লাখ ৩৪ হাজারেরও বেশি মানুষ মারা গেছেন। আক্রান্ত হয়েছেন এক কোটি ১৪ লাখের বেশি। এ ছাড়া, সুস্থও হয়েছেন সাড়ে ৬১ লাখের বেশি মানুষ।

আজ সোমবার জনস হপকিনস ইউনিভার্সিটির করোনাভাইরাস রিসোর্স সেন্টার এ তথ্য জানিয়েছে।

জনস হপকিনস ইউনিভার্সিটির সর্বশেষ তথ্য অনুযায়ী, বিশ্বব্যাপী করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন এক কোটি ১৪ লাখ ৪৯ হাজার ৭০৭ জন এবং মারা গেছেন পাঁচ লাখ ৩৪ হাজার ২৬৭ জন। এ ছাড়া, সুস্থ হয়েছেন ৬১ লাখ ৬১ হাজার ৭৩২ জন।

করোনাভাইরাসে সবচেয়ে বেশি আক্রান্ত ও মৃত্যু যুক্তরাষ্ট্রে। দেশটিতে আক্রান্ত হয়েছেন ২৮ লাখ ৮৮ হাজার ৬৩৫ জন এবং মারা গেছেন এক লাখ ২৯ হাজার ৯৪৭ জন। এ ছাড়া, সুস্থ হয়েছেন নয় লাখ ছয় হাজার ৭৬৩ জন।

যুক্তরাষ্ট্রের পর সবচেয়ে বেশি আক্রান্ত ও মৃত্যু দক্ষিণ আমেরিকার দেশ ব্রাজিলে। দেশটিতে আক্রান্ত হয়েছেন ১৬ লাখ তিন হাজার ৫৫ জন, মারা গেছেন ৬৪ হাজার ৮৬৭ জন এবং সুস্থ হয়েছেন ১০ লাখ ২৯ হাজার ৪৫ জন।

মৃত্যুর সংখ্যার দিক থেকে তৃতীয়তে রয়েছে যুক্তরাজ্য। দেশটিতে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে এখন পর্যন্ত ৪৪ হাজার ৩০৫ জন মারা গেছেন। আক্রান্ত হয়েছেন দুই লাখ ৮৬ হাজার ৯৩১ জন। এ ছাড়া, সুস্থ হয়েছেন ১ হাজার ৩৭৫ জন।

প্রতিবেশী দেশ ভারতে আক্রান্ত হয়েছেন ছয় লাখ ৭৩ হাজার ১৬৫ জন, মারা গেছেন ১৯ হাজার ২৬৮ জন এবং সুস্থ হয়েছেন চার লাখ নয় হাজার ৮৩ জন।

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ বাড়ছে রাশিয়া, পেরু ও চিলিতেও। রাশিয়ায় এখন পর্যন্ত আক্রান্ত হয়েছেন ছয় লাখ ৮০ হাজার ২৮৩ জন এবং মারা গেছেন ১০ হাজার ১৪৫ জন। এ ছাড়া, সুস্থ হয়েছেন চার লাখ ৪৯ হাজার ৯৯৫ জন। পেরুতে আক্রান্ত হয়েছেন তিন লাখ দুই হাজার ৭১৮ জন এবং মারা গেছেন ১০ হাজার ৫৮৯ জন। এ ছাড়া, সুস্থ হয়েছেন এক লাখ ৯৩ হাজার ৯৫৭ জন। চিলিতে আক্রান্ত হয়েছেন দুই লাখ ৯৫ হাজার ৫৩২ জন এবং মারা গেছেন ছয় হাজার ৩০৮ জন। এ ছাড়া, সুস্থ হয়েছেন দুই লাখ ৬১ হাজার ৩৯ জন।

ইউরোপের দেশ স্পেনে এখন পর্যন্ত আক্রান্ত হয়েছেন দুই লাখ ৫০ হাজার ৫৪৫ জন, মারা গেছেন ২৮ হাজার ৩৮৫ জন এবং সুস্থ হয়েছেন এক লাখ ৫০ হাজার ৩৭৬ জন। ইতালিতে আক্রান্ত হয়েছেন দুই লাখ ৪১ হাজার ৬১১ জন, মারা গেছেন ৩৪ হাজার ৮৬১ জন এবং সুস্থ হয়েছেন এক লাখ ৯২ হাজার ১০৮ জন। ফ্রান্সে আক্রান্ত হয়েছেন দুই লাখ চার হাজার ২২২ জন, মারা গেছেন ২৯ হাজার ৮৯৬ জন এবং সুস্থ হয়েছেন ৭৭ হাজার ১৮৫ জন। জার্মানিতে আক্রান্ত হয়েছেন এক লাখ ৯৭ হাজার ৫২৩ জন, মারা গেছেন নয় হাজার ২৩ জন এবং সুস্থ হয়েছেন এক লাখ ৮১ হাজার ৭১৯ জন।

মধ্যপ্রাচ্যের দেশ ইরানে আক্রান্ত হয়েছেন দুই লাখ ৪০ হাজার ৪৩৮ জন, মারা গেছেন ১১ হাজার ৫৭১ জন এবং সুস্থ হয়েছেন দুই লাখ এক হাজার ৩৩০ জন। তুরস্কে আক্রান্ত হয়েছেন দুই লাখ পাঁচ হাজার ৭৫৮ জন, মারা গেছেন পাঁচ হাজার ২২৫ জন এবং সুস্থ হয়েছেন এক লাখ ৮০ হাজার ৬৮০ জন।

ভাইরাসটির সংক্রমণস্থল চীনে আক্রান্ত হয়েছেন ৮৪ হাজার ৮৭১ জন, মারা গেছেন ৪ হাজার ৬৪১ জন এবং সুস্থ হয়েছেন ৭৯ হাজার ৭১৮ জন।

উল্লেখ্য, গত ৮ মার্চ বাংলাদেশে প্রথম করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগী শনাক্ত করে সরকারের রোগতত্ত্ব, রোগনিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা প্রতিষ্ঠান (আইইডিসিআর)। প্রতিষ্ঠানটির সর্বশেষ তথ্য অনুযায়ী, দেশে এখন পর্যন্ত করোনাভাইরাসে আক্রান্ত এক লাখ ৬২ হাজার ৪১৭ জনকে শনাক্ত করা হয়েছে। মারা গেছেন দুই হাজার ৫২ জন। এ ছাড়া, সুস্থ হয়েছেন ৭২ হাজার ৬২৫ জন।

Comments

The Daily Star  | English

Court orders to freeze, attach ex-IGP Benazir’s properties

A Dhaka court today ordered to freeze and attach all moveable and immovable properties of Benazir Ahmed, former inspector general of police, in connection with the allegations of corruption brought against him

46m ago