শৈশব থেকেই বেনজেমার ‘আইডল’ রোনালদো

রিয়াল মাদ্রিদের ফরাসি স্ট্রাইকার করিম বেনজেমার ফুটবলের প্রতি ভালোবাসা তৈরি হয়েছিল রোনালদোকে দেখে।
benzema and ronaldo
ছবি: সম্পাদিত

রিয়াল মাদ্রিদের ফরাসি স্ট্রাইকার করিম বেনজেমার ফুটবলের প্রতি ভালোবাসা তৈরি হয়েছিল রোনালদোকে দেখে। কিংবদন্তি এই ব্রাজিলিয়ান তারকাকে শৈশব থেকেই অনুসরণ করেন তিনি।

বৃহস্পতিবার স্প্যানিশ গণমাধ্যম মোভিস্টারকে বেনজেমা বলেছেন, ‘ছোটবেলা থেকেই আমার আইডল ছিলেন রোনালদো। তার কারণেই আমি ফুটবল দেখতে শুরু করেছিলাম। আমি তার মুভমেন্ট দেখতাম এবং তিনি যা করতেন সেগুলো অনুকরণ করার চেষ্টা করতাম। কিন্তু তার মতো আর কেউ ছিল না। আমি তাকে অনুসরণ করতাম।’

রোনালদোর খেলা কেন মনে ধরেছিল তারও ব্যাখ্যা দিয়েছেন তিনি, ‘কিছু কিছু খেলোয়াড়ের তার মতো গতি ছিল, কিন্তু একই সময়ে তার মতো বলের উপর নিয়ন্ত্রণ ও দক্ষতা তাদের ছিল না। লোকেরা মনে করে, তিনি হয়তো কেবল গোল করতেন, কিন্তু তিনি আসলে সবকিছুই করতে পারতেন। স্ট্রাইকারদের শুধু গোল করা নয়, অনেক কিছু পারতে জানতে হয় এবং তিনি ছিলেন আদর্শ উদাহরণ।’

রিয়াল মাদ্রিদের বর্তমান কোচ ও স্বদেশি বিশ্বকাপ জয়ী সাবেক তারকা জিনেদিন জিদানকে দেখেও শিখেছেন বেনজেমা, ‘তার (রোনালদো) ও জিনেদিন জিদানের কছ থেকে আমি অনেক কিছু শিখেছি।’

২০০৯ সালে অলিম্পিক লিওঁ ছেড়ে রিয়ালে নাম লেখান বেনজেমা। কিন্তু শুরুর দিকে মানিয়ে নিতে ভীষণ সমস্যা হয়েছিল তার, ‘(রিয়ালের সঙ্গে) চুক্তি স্বাক্ষর করতে পেরে আমি খুবই খুশি হয়েছিলাম, কিন্তু এর সঙ্গে জুড়ে আরও যেসব বিষয় আমার সামনে এসেছিল, সেগুলোর জন্য আমি মানসিকভাবে তৈরি ছিলাম না। এই দল, দলের লোকজন, এত চাপ... আমি যখন লিওঁতে ছিলাম, তখন সবকিছু থেকে আমাকে রক্ষা করতেন সভাপতি (জ্যাঁ-মিকেল অলাস)।’

হতাশ হয়ে নতুন ঠিকানায় পাড়ি দেওয়ার ভাবনাও খেলা করেছিল বেনজেমার মনে। তিনি যোগ করেছেন, ‘এটা এমন একটা ক্লাব, যারা অনেক অনেক ইউরোপিয়ান শিরোপা জিতেছে এবং যাদের সবসময় তারকা খেলোয়াড় ছিল। ওই সময়টা খুব কঠিন ছিল। বিশেষ করে, আমি একা ছিলাম এবং স্প্যানিশ বলতে পারতাম না। প্রথম বছরটা বেশ কঠিন কেটেছিল।’

তবে রিয়াল সভাপতি ফ্লোরেন্তিনো পেরেজের সঙ্গে কথা বলে লস ব্লাঙ্কোসদের শিবিরে থেকে যেতে সম্মত হন তিনি, ‘তিনি আমার বাড়িতে এসেছিলেন। আমি কখনোই ভাবিনি যে, তিনি এমন কিছু করবেন। যখন আমি তাকে দেখতে পেলাম, আমি অন্য ক্লাবের কথা মাথা থেকে ঝেড়ে ফেললাম। আমি তাকে বললাম, আমি তার কাছে প্রতিজ্ঞা করছি (ক্লাবে থেকে যেতে)।’

Comments

The Daily Star  | English

Dhaka getting hotter

Dhaka is now one of the fastest-warming cities in the world, as it has seen a staggering 97 percent rise in the number of days with temperature above 35 degrees Celsius over the last three decades.

6h ago