টানা ২০ ম্যাচে অপরাজিত ইতালি

করোনাভাইরাসের কারণে দলের বেশ কিছু শীর্ষস্থানীয় খেলোয়াড়দের পায়নি ইতালি। রয়েছে ইনজুরি সমস্যাও। এমনকি দলের কোচ রবার্তো মানচিনিও করোনাভাইরাসে আক্রান্ত। এস্তোনিয়ার বিপক্ষে ধরতে গেলে দ্বিতীয় সারির দলই নামাতে হয় তাদের। কিন্তু তাতে কোনো সমস্যা হয়নি। বড় জয়েই টানা ২০ ম্যাচে অপরাজিত থাকার রেকর্ডটি সমৃদ্ধ করল দলটি।
ছবি: সংগৃহীত

করোনাভাইরাসের কারণে দলের বেশ কিছু শীর্ষস্থানীয় খেলোয়াড়দের পায়নি ইতালি। রয়েছে ইনজুরি সমস্যাও। এমনকি দলের কোচ রবার্তো মানচিনিও করোনাভাইরাসে আক্রান্ত। এস্তোনিয়ার বিপক্ষে ধরতে গেলে দ্বিতীয় সারির দলই নামাতে হয় তাদের। কিন্তু তাতে কোনো সমস্যা হয়নি। বড় জয়েই টানা ২০ ম্যাচে অপরাজিত থাকার রেকর্ডটি সমৃদ্ধ করল দলটি।

বুধবার স্তাদিও আর্তেমিও ফ্রাঞ্চিতে এস্তোনিয়াকে ৪-০ গোলের ব্যবধানে হারিয়েছে ইতালি। দলের হয়ে জোড়া গোল করেন ভিনসেনজো গ্রিফো। একটি করে গোল পেয়েছেন ফেদেরিকো বের্নারদেস্কি ও রিকার্দো ওরসোলিনি।

এদিন ম্যাচে শুরু থেকেই আক্রমণাত্মক ফুটবল উপহার দেয় ইতালি। চতুর্দশ মিনিটে এগিয়ে যায় স্বাগতিকরা। কেভিন লাসানিয়ার পাস থেকে দূরপাল্লার শটে লক্ষ্যভেদ করেন গ্রিফো। বারপোস্টে লেগে জালে জড়ায় বল।

২৭তম মিনিটে ব্যবধান দ্বিগুণ করে স্বাগতিকরা। জিওভান্নি দি লোরেঞ্জোর কাছ থেকে বল পেয়ে ডান প্রান্ত দিয়ে ডি-বক্সে ঢুকে জোরালো শটে লক্ষ্যভেদ করেন বের্নারদেস্কি। প্রথমার্ধে দুই গোলে এগিয়ে থেকেই মাঠ ছাড়ে দলটি।

৭৫তম মিনিটে সফল স্পটকিক থেকে ব্যবধান বাড়ান গ্রিফো। ডি-বক্সের মধ্যে রবের্তো গাইলিয়ারদিনিকে এস্তোনিয়ার জর্জি তুনইয়োভ ফাউল করলে পেনাল্টির বাঁশি বাজান রেফারি। ১১ মিনিট পর আরও একটি পেনাল্টি পায় দলটি। ওরসোলিনিকে ডি-বক্সের মধ্যে হেনরি জারভেলেড ফাউল করলে পেনাল্টি পায় দলটি। সফল স্পটকিকে ব্যবধান ৪-০ করেন ওরসোলিনি।

আগামী রোববার নেশন্স লিগে ‘এ’ লিগের ১ নম্বর গ্রুপের ম্যাচে পোল্যান্ডের মুখোমুখি হবে ইতালি। এরপর বুধবার বসনিয়া ও হার্জেগোভিনার মোকাবেলা করবে তারা।

Comments