শেষ টি-টোয়েন্টিতে ভারতকে হারিয়েছে অস্ট্রেলিয়া

সিরিজ নির্ধারণ হয়ে গিয়েছিল আগেই। ম্যাচটি ছিল স্রেফ নিয়মরক্ষার। তবে অস্ট্রেলিয়ার জন্য ছিল হোয়াইটওয়াশ এড়ানোর লড়াই। আর শেষ টি-টোয়েন্টি ম্যাচটি জিতে সম্মান রক্ষা করেছে দলটি।
ছবি: রয়টার্স

সিরিজ নির্ধারণ হয়ে গিয়েছিল আগেই। ম্যাচটি ছিল স্রেফ নিয়মরক্ষার। তবে অস্ট্রেলিয়ার জন্য ছিল হোয়াইটওয়াশ এড়ানোর লড়াই। আর শেষ টি-টোয়েন্টি ম্যাচটি জিতে সম্মান রক্ষা করেছে দলটি।

সিডনিতে ভারতকে ১২ রানে হারিয়েছে অস্ট্রেলিয়া। প্রথমে ব্যাট করতে নেমে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৫ উইকেটে ১৮৬ রান করে অস্ট্রেলিয়া। জবাবে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৭ উইকেটে ১৭৪ রানের বেশি করতে পারেনি ভারত। এ ম্যাচ হারলেও ২-১ ব্যবধানে সিরিজ জিতে নিয়েছে দলটি।

লক্ষ্য তাড়ায় শুরুটা ভালো হয়নি ভারতের। খালি হাতে ফিরে যান ওপেনার লোকেশ রাহুল। দ্বিতীয় উইকেটে আরেক ওপেনার শেখর ধাওয়ানকে নিয়ে ৭৪ রানের দারুণ এক জুটি গড়ে প্রাথমিক চাপ সামলে নেন অধিনায়ক বিরাট কোহলি। তবে এ জুটি ভাঙতে দ্রুত তিন উইকেট হারিয়ে চাপে পড়ে ভারত। তবে এক প্রান্ত ধরে রেখে নিজের স্বাভাবিক ব্যাটিং করে যান অধিনায়ক। পঞ্চম উইকেটে হার্দিক পান্ডিয়ার সঙ্গে গড়েন ৪৪ রানের জুটি।

কিন্তু দলীয় ১৫১ রানে রানের গতি বাড়াতে গিয়ে ড্যানিয়েল স্যামসের হাতে ক্যাচ তুলে দেন কোহলি। আর তাতেই ম্যাচ থেকে ছিটকে পড়ে ভারত। শেষ দিকে অবশ্য কিছুটা ঝড় তুলে ভারতকে আশা দেখিয়েছিলেন শার্দুল ঠাকুর। তবে তা যথেষ্ট হয়নি। ১২ রান দূরেই থামে দলটি।

দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ৮৫ রানের ইনিংস খেলেন অধিনায়ক কোহলি। ৬১ বলে ৪টি চার ও ৩টি ছক্কায় এ রান করেন তিনি। ধাওয়ানের ব্যাট থেকে আসে ২৮ রান। শেষ দিকে ৭ বলে দুই ছক্কায় ১৭ রান করে অপরাজিত থাকেন শার্দুল। অজিদের পক্ষে ২৩ রানের খরচায় ৩টি উইকেট নেন মিচেল সোয়েপসন।

এর আগে টস জিতে প্রথমে ব্যাট করতে নামে অস্ট্রেলিয়া। শুরুতেই ধাক্কা খায় দলটি। খালি হাতেই বিদায় নেন দলীয় অধিনায়ক অ্যারন ফিঞ্চ। তবে দ্বিতীয় উইকেটে স্টিভ স্মিথকে সঙ্গে নিয়ে ৫৫ রানের জুটি গড়ে প্রাথমিক চাপ কাটিয়ে ওঠার চেষ্টা করেন ম্যাথিউ ওয়েড। এরপর স্মিথ ফিরে গেলে গ্লেন ম্যাক্সওয়েলের সঙ্গে আরও একটি দারুণ জুটি গড়েন ওয়েড। তৃতীয় উইকেটে স্কোরবোর্ডে ৯০ রান যোগ করেন এ দুই ব্যাটসম্যান। এরপর দুই ব্যাটসম্যান আউট হয়ে গেলে শেষ দিকে খুব একটা আগাতে পারেনি দলটি। ১৮৬ রান নিয়ে সন্তুষ্ট থাকতে হয় তাদের।

দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ৮০ রানের ইনিংস খেলেন ওয়েড। ৫৩ বলে ৭টি চার ও ২টি ছক্কায় এ রান করেন তিনি। ৩৬ বলে ৩টি করে চার ও ছক্কায় ৫৪ রানের ইনিংস খেলেন ম্যাক্সওয়েল। এছাড়া স্মিথের ব্যাট থেকে আসে ২৪ রান। ভারতের পক্ষে ৩৪ রানের খরচায় ২টি উইকেট নিয়েছেন ওয়াশিংটন সুন্দর।

Comments