শীর্ষ খবর

ভোমরা ও সোনামসজিদ স্থলবন্দর দিয়ে ভারতীয় পেঁয়াজ আমদানি শুরু

করোনা মহামারির কারণে প্রায় দীর্ঘ সাড়ে তিন মাস বন্ধ থাকার পর আজ থেকে আবারও সাতক্ষীরার ভোমরা ও চাঁপাইনবাবগঞ্জের সোনামসজিদ স্থলবন্দর দিয়ে ভারতীয় পেঁয়াজ আমদানি শুরু হয়েছে।
বেনাপোলে ভারতীয় পেঁয়াজ বোঝাই ট্রাক। ফাইল ছবি

করোনা মহামারির কারণে প্রায় দীর্ঘ সাড়ে তিন মাস বন্ধ থাকার পর আজ থেকে আবারও সাতক্ষীরার ভোমরা ও চাঁপাইনবাবগঞ্জের সোনামসজিদ স্থলবন্দর দিয়ে ভারতীয় পেঁয়াজ আমদানি শুরু হয়েছে।

আজ শনিবার ভোমরা স্থলবন্দরের সিঅ্যান্ডএফ এজেন্টস অ্যাসোসিয়েশনের অর্থ সম্পাদক মাকসুদ খান এবং সোনামসজিদ-পানামা পোর্ট লিংক লিমিটেডের ম্যানেজার মাঈনুল ইসলাম দ্য ডেইলি স্টারকে এ তথ্য নিশ্চিত করেন।

সাতক্ষীরার ভোমরা সিঅ্যান্ডএফ এজেন্টস অ্যাসোসিয়েশনের অর্থ সম্পাদক মাকসুদ খান জানান, দীর্ঘ সাড়ে তিন মাস বন্ধ থাকার পর শনিবার বিকেল থেকে আবারও শুরু হয়েছে পেঁয়াজ আমদানি। ওপারে ২৫টি পেঁয়াজবাহী ট্রাক ভোমরা বন্দরে প্রবেশের অপেক্ষায় আছে।

ভোমরা স্থলবন্দরের রাজস্ব কর্মকর্তা আকবর আলী জানান, আজ বিকেল পাঁচটা পর্যন্ত মোট নয়টি পেঁয়াজবাহী ট্রাক ভারত থেকে ভোমরা বন্দরে প্রবেশ করেছে। এতে ২৪২ মেট্রিক টন ভারতীয় পেঁয়াজ আমদানি হয়েছে।

সোনামসজিদ স্থলবন্দরের বেসরকারি বন্দর পরিচালনাকারী প্রতিষ্ঠান সোনামসজিদ-পানামা পোর্ট লিংক লিমিটেডের ম্যানেজার মাঈনুল ইসলাম জানান, শনিবার সোনামসজিদ বন্দরে ভারত থেকে আমদানিকৃত ৭টি পেঁয়াজ বোঝাই ট্রাক এসেছে। এ ট্রাকগুলোতে প্রায় ১৮০ টন পেঁয়াজ আছে। আরও কিছু পেঁয়াজ বোঝাই ট্রাক সোনামসজিদ স্থল বন্দরে প্রবেশের অপেক্ষায় আছে।

উল্লেখ্য, গত সেপ্টেম্বরে পেঁয়াজ রপ্তানির ওপর নিষেধাজ্ঞা দেয় ভারত। এরপর থেকে পেঁয়াজ আমদানি বন্ধ ছিল। গত ২৮ ডিসেম্বর রপ্তানি নিষেধাজ্ঞার আদেশ প্রত্যাহার করে ভারতের বাণিজ্য মন্ত্রণালয়। ওই আদেশ ১ জানুয়ারি থেকে কার্যকর হয়েছে। নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহারের পর শনিবার থেকে আবার ভারতীয় পেঁয়াজ আমদানি শুরু হলো।

আরও পড়ুন:

সাড়ে ৩ মাস পর হিলি দিয়ে পেঁয়াজ আমদানি শুরু

Comments