‘ভবিষৎ ভাবনায় নেই’, তাই বাদ মাশরাফি

আগামীর বাংলাদেশ দলের পরিকল্পনায় টিম ম্যানেজমেন্টের চাহিদায় নেই সাবেক অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা।
Mashrafe Mortaza
ফাইল ছবি: ফিরোজ আহমেদ

আগামীর বাংলাদেশ দলের পরিকল্পনায় টিম ম্যানেজমেন্টের চাহিদায় নেই সাবেক অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা। ৩৭ পেরুনো দেশের সফলতম অধিনায়ককে তাই দলে রাখা যায়নি বলে জানিয়েছেন প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদিন নান্নু। আরেক নির্বাচক হাবিবুল বাশার সুমনের মতে বাস্তবতা মেনেই সামনে তাকাতে হবে।

সোমবার ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে তিন ওয়ানডে ও দুই টেস্টের জন্য আলাদা দুটি প্রাথমিক স্কোয়াড ঘোষণা করেছে বিসিবি। কেবল ওয়ানডে সংস্করণের খেলা চালিয়ে যাওয়া মাশরাফি বাদ পড়েছেন এই দল থেকে।

টানা দুই বিশ্বকাপে দেশকে নেতৃত্ব দেওয়া। ওয়ানডেতে দেশের সর্বোচ্চ উইকেট শিকারী মাশরাফি পারফরম্যান্সের কারণে প্রথমবার বাদ পড়লেন ক্যারিয়ারের একদম শেষ লগ্নে এসে।

মিরপুর শেরে বাংলা ক্রিকেট স্টেডিয়ামের একাডেমি ভবনের সামনে দল নিয়ে ব্যখ্যা দিতে এসে প্রধান নির্বাচক প্রথমেই বললেন, তাদের মাথায় কাজ করেছে ২০২৩ বিশ্বকাপের ভাবনা।

টিম ম্যানেজমেন্টও সেরকম একটা চাহিদা দিয়েছিল যাতে কঠিন হলেও মাশরাফিকে বাদ দিতে হয়েছে,  ‘অবশ্যই ( বাদ দেওয়া কঠিন ছিল)।  ওর প্রতি সম্মান আমাদের সব সময়ই আছে। আমাদের দেশের জন্য অনেক কিছু দিয়েছে। এটা কঠিন সিদ্ধান্ত ছিল, তারপরও বাস্তবতা আমাদের মানতেই হবে। সামনের দিকে এগিয়ে যেতে হবে।  ২০২৩ বিশ্বকাপের পরিকল্পনা অনুযায়ী এই সিদ্ধান্ত টিম ম্যানেজমেন্টের সবাই মিলে সম্মিলিতভাবে নিয়েছি। মাশরাফিকে বাদ দিতে হয়েছে। সেই হিসেবে আমি মনে করি ওর জায়গায় যে খেলবে তার জন্য একটা বিরাট সুযোগ।’

মাশরাফির বাদ পড়ার সিরিজে প্রথমবার দলে এসেছে যুব বিশ্বকাপজয়ী বাঁহাতি পেসার শরিফুল ইসলাম। এসেছেন ডানহাতি তরুণ হাসান মাহমুদ। প্রধান নির্বাচক মনে করেন এই তরুণদের জন্য জায়গা বের করতেই মাশরাফিকে সরাতে হয়েছে,  ‘এখানে অনেক কিছুই ইস্যু এসেছে। টিম ম্যানেজমেন্ট আমাদের প্ল্যান দিয়েছে। আমরাও আমাদের পরিকল্পনা নিয়ে অনেক আলোচনা করেছি। আলোচনার পরেই সিদ্ধান্তে এসেছি। বাংলাদেশের ক্রিকেটের কথা চিন্তা করে, দেশের ক্রিকেটের আগামীর কথা চিন্তা করে এটা নিয়েছি। তরুণ ক্রিকেটারদেরও আমাদের একটা সুযোগের জায়গা দিতে হবে।’

২০০১ সালে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে পা রাখেন মাশরাফি। দীর্ঘ পথচলায় দেশের সবচেয়ে বড় আইকন হয়েছেন তিনি। মাশরাফির অবদানের কথা স্বীকার করেও বাস্তবতার চাহিদা মনে করিয়ে দিলেন হাবিবুল, ‘মাশরাফি ২০ বছর আমাদের সার্ভিস দিয়েছে। ওর সঙ্গে কারো তুলনা আমি করব না। কারণ অনেক বছর ও সেবা দিয়ে যাচ্ছে। কিন্তু প্রধান নির্বাচক যেহেতু বলেছেন সামনের দিকে তাকাতে হবে। দেখুন এখনো আমি মনে করি সে বেশ ভালো (পারফর্মার)। কিন্তু এক বছর পরে খুব কঠিন (পারফর্ম করা)। আমরা সবাই জানি এটাই বাস্তবতা। আমরা যদি সামনের দিকে দেখি নতুনদের শুরু করতে হবে। আমরা মনে করছি তারা আমাদের আগামীতে ভালো করবে। তাদেরকে তৈরি হওয়ার সুযোগ দিতে হবে যেহেতু সামনে আমাদের অনেক খেলা আছে।’

Comments

The Daily Star  | English

Recovering MP Azim’s body almost impossible: DB chief

Killers disfigured the body so much that it would be tough to identify those as human flesh

1h ago