মোদিকে নিয়ে টুইট, চাকরি হারালেন সিনিয়র পাইলট

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে কটূক্তি করে টুইটারে পোস্ট দেওয়ায় চাকরি হারিয়েছেন দেশটির এক সিনিয়র পাইলট। তিনি ভারতীয় উড়োজাহজ সংস্থা গোএয়ারে কর্মরত ছিলেন।
Narendra Modi
ছবি: সংগৃহীত

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে কটূক্তি করে টুইটারে পোস্ট দেওয়ায় চাকরি হারিয়েছেন দেশটির এক সিনিয়র পাইলট। তিনি ভারতীয় উড়োজাহজ সংস্থা গোএয়ারে কর্মরত ছিলেন।

গতকাল শনিবার ভারতীয় সংবাদমাধ্যম টাইমস অব ইন্ডিয়া জানিয়েছে, গত শুক্রবার সেই পাইলট প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে নিয়ে টুইটারে পোস্ট দেওয়ার পরদিনই চাকরি হারিয়েছেন।

ইন্ডিয়া টুডে জানিয়েছে, গত শুক্রবার ক্যাপ্টেন মিকি মালিক এক টুইটে মোদিকে কটূক্তি করে পোস্ট করার পর তা মুছেও দিয়েছিলেন।

সংবাদ প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে আচরণবিধি লঙ্ঘন করার অভিযোগে তাকে চাকরিচ্যুত করেছে গোএয়ার।

এক বিবৃতিতে গোএয়ার জানিয়েছে, ‘আমাদের সংস্থা এ ধরনের ঘটনায় জিরো টলারেন্স নীতি নিয়ে চলে। আইনকানুন, নিয়মনীতি ও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে আচরণ সংক্রান্ত সংস্থার নির্দেশনা কর্মীদের মেনে চলা বাধ্যতামূলক। এরপরও কোনো কর্মী বা সংস্থার সঙ্গে যুক্ত কেউ যদি নিজের ব্যক্তিগত মতামত সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে তুলে ধরেন, তার দায় সংস্থার নয়।’

বরখাস্ত হওয়ার পর ওই ক্যাপ্টেন সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ক্ষমা চেয়ে পোস্ট দিয়েছেন। এক টুইটে তিনি লিখেছেন, ‘আমার টুইটের জন্য যদি কারো মনে আঘাত লাগে সেজন্য আমি ক্ষমা চাচ্ছি। প্রধানমন্ত্রীকে নিয়ে করা পোস্টসহ ও অন্য সব আপত্তিকর টুইটের জন্য আমি ক্ষমা চাচ্ছি।’

তিনি আরও লিখেছেন, ‘আমি জানাচ্ছি যে, আমার কোনো টুইটের জন্য গোএয়ার প্রত্যক্ষ বা পরোক্ষভাবে দায়ী নয়, কারণ এটা আমার ব্যক্তিগত দৃষ্টিভঙ্গি। আমি এর পুরো দায় নিচ্ছি। আমার কাজ ও ভুলের জন্য ক্ষমা চাচ্ছি। আমি এর পরিণতি মেনে নেব।’

Comments

The Daily Star  | English