ল্যাঙ্গারের মেজাজে অতিষ্ঠ অস্ট্রেলিয়ার ক্রিকেটাররা!

টানটান উত্তেজনার রোমাঞ্চকর সিরিজ হলেও হারের ধাক্কায় ক্রিকেটারদের পারফরম্যান্স, দলের পরিকল্পনা এসেছে আলোচনায়। সিডনি মর্নিং হেরাল দলের ভেতরের এক সূত্রের বরাতে জানিয়েছে
Justin Langer
ছবি: ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া

ভারতের সঙ্গে নিজ মাঠে হারের ধাক্কা বুঝি একেই বলে। অস্ট্রেলিয়ার প্রধান কোচ হিসেবে মোটেও স্বস্তিতে নেই জাস্টিন ল্যাঙ্গার। হতাশার মৌসুমের মধ্যে অজি কোচকে সামলাতে হচ্ছে দলের অভ্যন্তরীণ রাজনীতির ঝাপ্টা। অস্ট্রেলিয়া গণমাধ্যম সিডনি মর্নিং হেরাল্ড জানিয়েছে, ক্রিকেটারদের অনেকেই ল্যাঙ্গারের কোচিং স্টাইল পছন্দ করছেন না। তার হেডমাস্টারসুলভ খবরদারি, খিটখিটে মেজাজে বিরক্ত ক্রিকেটাররা।

ভারতের বিপক্ষে ঘরের মাঠে শুরুটা দারুণ ছিল অস্ট্রেলিয়ার। প্রতিপক্ষের সেরা ক্রিকেটাররা ছিটকে যাওয়ায় সিরিজে পরিষ্কার ফেভারিট ছিল তারা। অথচ সেই সিরিজ হারতে হয়েছে। ব্রিসবেনে ৩২ বছরের দুর্গেরও পতন হয়েছে।

টানটান উত্তেজনার রোমাঞ্চকর সিরিজ হলেও হারের ধাক্কায় ক্রিকেটারদের পারফরম্যান্স, দলের পরিকল্পনা এসেছে আলোচনায়। সিডনি মর্নিং হেরাল দলের ভেতরের এক সূত্রের বরাতে জানিয়েছে, ‘জৈব সুরক্ষা বলয়ের মধ্যে ল্যাঙ্গারের ব্যবস্থাপনা, মেজাজ ক্রিকেটারদের অতিষ্ঠ করে তুলেছে।’

কোচের চিন্তা ভাবনা ও প্রকাশের ধরণে সিনিয়র ক্রিকেটাররাও হতাশ বলে খবর দিয়েছে গণমাধ্যমটি। অস্ট্রেলিয়ার খেলোয়াড়দের অনেকেই সহকারি কোচ অন্ড্রু ম্যাকডোনাল্ডের সঙ্গে মধুর সম্পর্ক গড়েছেন। যেকোনো সমস্যা নিয়ে আলোচনার জন্য তাদের কাছে ম্যাকডোনাল্ডকেই বেশি স্বস্তিকর মনে হচ্ছে।'

এক প্রতিবেদনে বেরিয়ে আসে, ‘ব্রিসবেন টেস্টের সময় ল্যাঙ্গার এক খেলোয়াড়কে নির্দেশ নিয়েছিলেন পকেটে স্যান্ডউইচ নিয়ে মাঠে এসে না খেতে।’ ল্যাঙ্গার তখন বলেছিলেন,  'আমরা ভারতের বিপক্ষে লড়ছি। চেষ্টা করছি জেতার। আর আমাদের একজন খেলোয়াড় পকেটে স্যান্ডউইচ নিয়ে ঘুরছে।'

বল টেম্পারিং কেলেঙ্কারিতে ড্যারেন লেম্যান দায়িত্ব ছাড়ার পর কোচ হিসেবে ২০১৮ সালে নিয়োগ পান প্রাক্তন ওপেনার ল্যাঙ্গার। তিনি এই দায়িত্বে কতদিন থাকতে পারবেন না নিয়ে সংশয় তৈরি হলেও  অস্ট্রেলিয়া দলের ম্যানেজার বেন ওলিভার অবশ্য জানান কাজটা উপভোগ করছেন ল্যাঙ্গার। পদত্যাগের কোন চিন্তাই নেই তার। বেন কথা বলেছেন কোচের পক্ষ হয়েই, ‘সে সব সময় উঁচু একটা মান রেখেছে। দলের সংস্কৃতি ও পারফরম্যান্স উন্নতি করেছে।’

‘দলে সততা, নিবেদন ও খেলোয়াড়দের যত্নের সঙ্গে উদারভাবে পরিচালিত করে।’

ল্যাঙ্গারের দীর্ঘদিনের ওপেনিংসঙ্গী ও ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার সাবেক সদস্য ম্যাথু হেইডেনও বলছেন, ক্রিকেটারদের নিজের পারফরম্যান আগে খতিয়ে দেখা উচিত। হেইডেন পাশে দাঁড়িয়েছেন ল্যাঙ্গারের, ‘সে খুবই সৎ লোক। খেলাটাকে গভীরে গিয়ে বোঝে।’

Comments

The Daily Star  | English
Forex reserves rise by $180 million in a week

Forex reserves rise by $180 million in a week

Reserves hit $18.61 billion on May 21, up from $18.43 billion on May 15

13m ago