‘অল দ্য প্রাইম মিনিস্টারস মেন’

​বিশ্বাসযোগ্য অভিযোগের তদন্ত করবে বাংলাদেশ: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

পররাষ্ট্রমন্ত্রী একে আব্দুল মোমেন বলেছেন, আল জাজিরার ‘অল দ্য প্রাইম মিনিস্টারস মেন’ প্রতিবেদনে যেসব অভিযোগের বিশ্বাসযোগ্যতা আছে, সেগুলো তদন্ত করা হবে।
পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আব্দুল মোমেন। ফাইল ছবি

পররাষ্ট্রমন্ত্রী একে আব্দুল মোমেন বলেছেন, আল জাজিরার ‘অল দ্য প্রাইম মিনিস্টারস মেন’ প্রতিবেদনে যেসব অভিযোগের বিশ্বাসযোগ্যতা আছে, সেগুলো তদন্ত করা হবে।

সেই সঙ্গে, ভুল তথ্য ব্যবহার করায় আল জাজিরার বিরুদ্ধে মামলাও হবে। এ বিষয়ে আমরা কাজ করছি।

আজ শনিবার আর্মি স্টেডিয়ামে মুজিব শতবর্ষ উপলক্ষে এক্সিম ব্যাংকের এক অনুষ্ঠানে সাংবাদিকদের তিনি এ কথা বলেন।

তিনি বলেন, ‘আমরা ভুল তথ্যগুলো উপস্থাপন করে মামলা করব।’

দেশে আল জাজিরার সম্প্রচার বন্ধের বিষয়ে সরকার চিন্তা করছে কিনা জানতে চাইলে বলেন, ‘জনগণ বুঝতে পেরেছে যে আল জাজিরার দেওয়া তথ্য মিথ্যা।’

আবদুল মোমেন বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ৪৫ বছরের রাজনৈতিক জীবনে তার কোনো দেহরক্ষী নেই।’

‘এখন তার নিরাপত্তা দেয় এসএসএফ। তার দেহরক্ষী নেতা-কর্মীরা। মায়া, সাবের হোসেন, তোফায়েল আহমেদ, আমুর হোসেন আমু,’ যোগ করেন তিনি।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘আল জাজিরার প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, প্রধানমন্ত্রীর দুজন দেহরক্ষী ছিল। এখন, অনেকেই আমার পেছনে দাঁড়ান। আমরা তাদের সবাইকে চিনিও না। প্রধানমন্ত্রী যখন বক্তৃতা দেন, তখন অনেকে তার পেছনে দাঁড়ায়। একজনের ছবি দেখিয়ে প্রতিবেদনে বলা হয় যে সে প্রধানমন্ত্রীর দেহরক্ষী। এটা ভুয়া তথ্য। আল জাজিরা মিথ্যা তথ্য দিয়ে তার বিশ্বাসযোগ্যতা হারিয়েছে।’

মোমেন বলেন, ‘বিদেশে বাংলাদেশকে নেতিবাচকভাবে দেখানো হচ্ছে। গুগলে বাংলাদেশ খুঁজতে গেলে এখনও ইট ভাটায় কাজ করা দরিদ্র নারীদের বাচ্চাসহ ছবি দেখা যায়।’

‘বাংলাদেশ এখন বদলেছে। অনেক অগ্রগতি আছে, তবে গণমাধ্যমে তার প্রতিফলন নাই,’ অভিযোগ করেন তিনি।

তিনি আরও বলেন, প্রায়ই আমাদের মিডিয়া বলে যে অনেক বিচার বহির্ভূত হত্যা হচ্ছে। গত বছর বাংলাদেশে ১৭-১৮টা এরকম ঘটনা ঘটেছে। যেখানে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে প্রায় এক হাজার বিচার বহির্ভূত হত্যাকাণ্ড হয়েছে।

গত বছর মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে ৮৫ হাজার ধর্ষণের ঘটনা ঘটেছে। কিন্তু, মিডিয়ায় তা আসেনি উল্লেখ করে পররাষ্ট্রমন্ত্রী গণমাধ্যমে বাংলাদেশের ইতিবাচক চিত্র তুলে ধরতে বলেন।

জাতিসংঘের অনুরোধে বাংলাদেশ ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে দুর্নীতির অভিযোগ তদন্ত করবে কিনা জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘হ্যাঁ, এটা তদন্ত করা যেতে পারে। এটা নিয়ে আমাদের কোনো আপত্তি নেই।’

‘তবে, জাতিসংঘ তদন্তের জন্য বাংলাদেশ সরকারের সঙ্গে অফিসিয়ালি যোগাযোগ করেনি,’ যোগ করেন তিনি।

তিনি বলেন, ‘যদি অভিযোগ ওঠে, তবে আমরা অবশ্যই তদন্ত করব। এগুলো বিশ্বাসযোগ্যতা থাকলে, আমরা তদন্ত করব। যদি না হয়, করব না।’

 

আরও পড়ুন:

আল জাজিরার ষড়যন্ত্রের উৎস দেশের মাটিতেই: পরিকল্পনামন্ত্রী

জাতিসংঘকে বাংলাদেশের কাছে ব্যাখ্যা চাওয়ার আহ্বান ৭ মানবাধিকার সংস্থার

বাংলাদেশে আল জাজিরা নিষিদ্ধের দাবি জানিয়েছে বিএফইউজে

আল জাজিরার প্রতিবেদন, সরকারের প্রতিক্রিয়া এবং আমাদের সাংবাদিকতা

সব দেখেছি, শুনেছি: আমরা কী করব?

 আল-জাজিরার প্রতিবেদনটি মিথ্যা, মানহানিকর ও রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত: বাংলাদেশ সরকার

আলজাজিরায় প্রচারিত ‘All the Prime Minister’s Men’ শীর্ষক সংবাদের প্রতিবাদলিপি

আল জাজিরার প্রতিবেদন ও কয়েকটি কথা

আল জাজিরার বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থার বিষয়টি খতিয়ে দেখা হচ্ছে: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

 

Comments

The Daily Star  | English