বোনার-মায়ার্সের রেকর্ড জুটি ভাঙলেন তাইজুল

কথায় বলে, অপেক্ষার ফল নাকি মধুর হয়। ওয়েস্ট ইন্ডিজের দুই ব্যাটসম্যানের ক্ষেত্রে ঘটছে সেটাই।
bonner and mayers
ছবি: ফিরোজ আহমেদ

এনক্রুমা বোনার টেস্ট অভিষেকের স্বাদ নিয়েছেন ৩২ পেরিয়ে। কাইল মায়ার্স কিছুটা আগে পেয়েছেন। তবে ২৮ বছর বয়সে প্রথমবারের মতো সাদা পোশাক গায়ে জড়ানোর মানে তাকেও অপেক্ষা করতে হয়েছে লম্বা সময়। কথায় বলে, অপেক্ষার ফল নাকি মধুর হয়। ওয়েস্ট ইন্ডিজের দুই ব্যাটসম্যানের ক্ষেত্রে ঘটছে সেটাই। বোনার-মায়ার্সের ম্যারাথন জুটি জায়গা করে নিয়েছে রেকর্ড বইতে। তবে চা-বিরতির পর প্রথম ওভারে এই জুটি ভেঙে বাংলাদেশকে কিছুটা স্বস্তি দিয়েছেন তাইজুল ইসলাম।

এই প্রতিবেদন লেখার সময়, রবিবার চট্টগ্রামে বাংলাদেশ ও ওয়েস্ট ইন্ডিজের প্রথম টেস্টের পঞ্চম দিনের শেষ সেশনের খেলা চলছে। ৩৯৫ রানের লক্ষ্যে নামা ক্যারিবিয়ানরা ১০০ ওভার শেষে দ্বিতীয় ইনিংসে ৪ উইকেটে তুলেছে ২৮৩। ডানহাতি বোনার ক্যারিয়ারের প্রথম হাফসেঞ্চুরি তুলে এগোচ্ছিলেন তিন অঙ্কের দিকে। শেষ সেশনের প্রথম ওভারে তাকে ফিরিয়ে বাংলাদেশের মাথাব্যথার কারণ হয়ে জুটির সমাপ্তি টেনেছেন তাইজুল। ছক্কা হজমের পরের বলেই এলবিডব্লিউতে বোনারকে কুপোকাত করে দলকে কাঙ্ক্ষিত ব্রেক-থ্রু দিয়েছেন এই বাঁহাতি স্পিনার। তার সংগ্রহ ২৪৫ বলে ৮৬ রান।

বাঁহাতি মায়ার্স ইতোমধ্যে পেয়ে গেছেন অভিষেক টেস্টে সেঞ্চুরির বিরল স্বাদ। তিনি খেলছেন ২২২ বলে ১২১ রান নিয়ে। বোনারের সঙ্গে চতুর্থ উইকেটে তিনি যোগ করেন ৪৪২ বলে ২১৬ রান। পঞ্চম দিনের প্রথম দুই সেশনে বাংলাদেশের বোলারদের একরাশ হতাশা উপহার দেন তারা। চা-বিরতি পর্যন্ত তাই উইকেটবিহীন কাটাতে হয় স্বাগতিকদের। এই জুটির কল্যাণে ম্যাচে চালকের আসনে রয়েছে সফরকারীরা। বিশাল লক্ষ্য তাড়ায় ৩০ ওভারে তাদের দরকার আরও ১১২ রান। হাতে রয়েছে ৬ উইকেট।

টেস্টের চতুর্থ ইনিংসে দুই অভিষিক্ত ক্রিকেটারের সর্বোচ্চ জুটি ছিল ১৩৪ রানের। ২০০৩ সালে পাকিস্তানের মোহাম্মদ হাফিজ ও ইয়াসির হামিদ বাংলাদেশের বিপক্ষেই করাচিতে রেকর্ড গড়েছিলেন। ১৮ বছর পর জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে ওই কীর্তি ভেঙে নিজেদের করে নিয়েছেন বোনার ও মায়ার্স।

ওয়েস্ট ইন্ডিজের জার্সিতে অভিষেক টেস্ট খেলতে নামা দুই ক্রিকেটারের আগের সর্বোচ্চ জুটির রেকর্ড গড়া হয়েছিল ১৯৩০ সালে। জর্জ হ্যাডলি ও ফ্রাঙ্ক ডি কেয়ার্স ইংল্যান্ডের বিপক্ষে বার্বাডোজে যোগ করেছিলেন ১২৪ রান। সেটা অনেক আগেই পেরিয়ে যান বোনার ও মায়ার্স। তাদের সামনে ছিল আরও একটি রেকর্ডের হাতছানি।

১৯৬৪ সালে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে করাচিতে পাকিস্তানের খালিদ ইবাদউল্লাহ ও আব্দুল কাদির গড়েছিলেন ২৪৯ রানের উদ্বোধনী জুটি। যেকোনো উইকেটে দুই অভিষিক্ত ক্রিকেটারের সর্বোচ্চ রানের জুটি এটি। এতদিন একমাত্র ডাবল সেঞ্চুরির জুটিও ছিল সেটি। বোনার ও মায়ার্স তাতে ভাগ বসিয়েছেন। কিন্তু ২১৬ রানে জুটি থামায় নতুন রেকর্ড গড়া হয়নি তাদের।

Comments

The Daily Star  | English

Thousands pray for rain as Bangladesh sizzles in heatwave

Thousands of Bangladeshis yesterday gathered to pray for rain in the middle of an extreme heatwave that prompted authorities to shut down schools around the country

7m ago