ঝুলিতে তিনটি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ চান গেইল

ওয়েস্ট ইন্ডিজ দলের ৮ জন ক্রিকেটারের মধ্যে গেইল একজন যিনি ২০১২ ও ২০১৬ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ফাইনাল জিতেছেন। ২০২১ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে এমনটা করতে পারলে তিনটি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ জেতার অনন্য এক রেকর্ড ঝুলিতে জমা হবে তার।
Chris Gayle
ছবি: এএফপি

২০১৯ সালের পর আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে লম্বা বিরতি কাটিয়ে ফের ওয়েস্ট ইন্ডিজ দলে ফিরেছেন ক্রিস গেইল। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে তিন ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজ সামনে রেখে শুরু করেছেন প্রস্তুতি। তবে তার নজর কেবল এই সিরিজেই নেই। অক্টোবর-নভেম্বরে ভারতে হতে যাওয়া আগামী টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপটা জিততে মরিয়া ‘ইউনিভার্স বস।’

ওয়েস্ট ইন্ডিজ দলের ৮ জন ক্রিকেটারের মধ্যে গেইল একজন যিনি ২০১২ ও ২০১৬ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ফাইনাল জিতেছেন। ২০২১ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে এমনটা করতে পারলে তিনটি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ জেতার অনন্য এক রেকর্ড ঝুলিতে জমা হবে তার।

২০১৯ ওয়ানডে বিশ্বকাপের পর অগাস্ট মাসে ঘরের মাঠে ভারতের বিপক্ষে খেলেছিলেন গেইল। এরপর নানান ফ্রেঞ্চাইজি ক্রিকেটে তাকে ব্যস্ত দেখা গেলেও উইন্ডিজের হয়ে দেখা যায়নি। লম্বা সময় পর ফেরা এই বিস্ফোরক ব্যাটসম্যানের ভাবনা ঘুরছে এখন কেবল দলকে ঘিরেই, ‘আমি জানি ফেরার পর কিছুটা নজর আমার দিকে আসবে। কিন্তু সত্যি আমি এটা চাই না। আমরা দলের দৃষ্টিভঙ্গিতে পুরোটা দেখছি। (কাইরন) পোলার্ড  খুব শক্ত অধিনায়ক। আমাদের দলে দারুণ মানসম্মত কিছু খেলোয়াড় আছে। আমি সিরিজটা জিততে চাই। ভালো শুরু এনে দিতে চাই। ফিরতে পারা দারুণ ব্যাপার। আশা করি আমি পারফর্ম করব, দলকে সহায়তা দিয়ে জেতার মতো জায়গায় নিয়ে যাব।’

সামনে শ্রীলঙ্কা সিরিজ। কিন্তু গেইল এই সিরিজকে দেখছেন বিশ্বকাপের পথে একটা পদক্ষেপ হিসেবে, তার মাথায় একটাই লক্ষ্য,  ‘সিরিজ জেতাটা উদযাপন করতে চাই কিন্তু বড় বিষয় হলো সামনে। আমি ঝুলিতে তিনটি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ পেতে চায়। আমার মাথায় এই লক্ষ্যটাই আছে যে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপটা আবার জিতব। সামনে বেশ কিছু খেলা আছে। এসব সিরিজ থেকে যতটুকু পারি সাফল্য আনতে হবে।’

‘বিশ্বকাপের এখনো যদিও কিছুটা দেরি আছে। এই সময়ের মধ্যে ঝিলিক দেওয়া মানে বিশ্বকাপের সময় ঝিলিক দেওয়া। কাজেই আমাদের শক্তিটা ধরে রাখতে হবে, ফিট থাকতে হবে। আমরা কী করতে সক্ষম সেটা দেখাতে তৈরি থাকতে হবে।’

Comments

The Daily Star  | English

Personal data up for sale online!

A section of government officials are selling citizens’ NID card and phone call details through hundreds of Facebook, Telegram, and WhatsApp groups, the National Telecommunication Monitoring Center has found.

1h ago