মোহামেডানের নির্বাচনী বৈতরণী পার হতে পারেননি সালাম মোর্শেদি

শনিবার একটি পাঁচ তারকা হোটেলে হয়ে যায় নির্বাচন। চেয়ারম্যান আগেই বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়ে যাওয়ায় ভোট ছিল পরিচালক পদে। ২০ প্রার্থীর মধ্যে বেছে নেওয়া হয় ১৬ জন পরিচালক। সেখানেও টিকতে পারেননি মোর্শেদী।
আব্দুস সালাম মুর্শেদী। স্টার ফাইল ফটো

১০ বছর পর হওয়া ঐতিহ্যবাহী ক্লাব মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাবের পরিচালনা পর্ষদ নির্বাচনে সবচেয়ে বড় চমক আব্দুস সালাম মোর্শেদির হার। বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশনের (বাফুফে) সহ-সভাপতি থাকা সংসদ সদস্য ও সাবেক এই ফুটবলার ২০ পরিচালক প্রার্থীর মধ্যে হয়েছেন ১৭তম।  

শনিবার একটি পাঁচ তারকা হোটেলে হয়ে যায় নির্বাচন। চেয়ারম্যান আগেই বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়ে যাওয়ায় ভোট ছিল পরিচালক পদে। ২০ প্রার্থীর মধ্যে বেছে নেওয়া হয় ১৬ জন  পরিচালক। সেখানেও টিকতে পারেননি মোর্শেদী। 

নির্বাচনের প্রধান কমিশনার এবিএম রেজাউল করিম কাওছার জানান  গৃহীত ২৩২ ভোটের মধ্যে সালাম ১২১ ভোট পেয়ে হয়েছেন ১৭ত । মোট ৩৩৯ জন ভোটার থাকলেও ভোট দিয়েছিলেন ২৩৯ জন। তবে সাতটি ভোট বাতিল হয়ে যায়।

সালাম মোর্শেদি ছাড়াও জিততে পারেননি মোহাম্মদ মোস্তাকুর রহমান, সাজেদ আল আদেল ও কামরুন নাহার ডানা।

মোহামেডানের পরিচালক পদে যারা নির্বাচিত হয়েছে- শফিউল ইসলাম (২২৬), প্রকৌশলী গোলাম মোহাম্মদ আলমগির ও মাহবুব আনাম (২২৩), সাদিকুর রহমান (২২২), মোস্তাফা কামাল (২২০), মাসুদুজ্জামান (২১৯), কাজি ফিরোজ রশিদ এমপি , এজিএম সাব্বির ও মইন উদ্দিন হাসান রশিদ (২১৮), দাতো মোহাম্মদ ইকরামুল হক (২১৫),  মোহাম্মদ মনজুর আলম (২১৮), কোজেতেছা নুর নাহরিন (২১০), , আবু হাসান চৌধুরী প্রিন্স (২০৮), প্রকৌশলী কবির আহমেদ ভূঁইয়া (১৭৬), জামাল রানা ও মোহাম্মদ হানিফ ভূঁইয়া (১৪৪)

এর আগে চেয়ারম্যান হিসেবে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হন সাবেক সেনা প্রধান জেনারেল মোহাম্মদ আব্দুল মুবিন এসবিপি (অব:)।

Comments