বিশাল ছক্কায় কাঁধ থেকে বোঝা নামালেন ম্যাক্সওয়েল

২৮ বলে ৩৯ রান করে বেঙ্গালুরুর জয়ে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখেন তিনি। তার আগ্রাসী ইনিংসে ছিল ৩ চার ও ২ ছক্কা।
maxwell and harshal
(বাঁ থেকে) ম্যাক্সওয়েল ও হার্শাল। ছবি: আইপিএল টুইটার

গ্লেন ম্যাক্সওয়েল নামটা শুনলেই প্রথমে কোন দৃশ্য ভেসে ওঠে চোখে? ঠিকই ধরেছেন। বিশাল বিশাল সব ছক্কা। কখনো সীমানার বাইরে তো কখনো স্টেডিয়ামের বাইরে আছড়ে পড়ে বল। অথচ অস্ট্রেলিয়ার এই আগ্রাসী ডানহাতি ব্যাটসম্যান ছয় মারতেই যেন ভুলে গিয়েছিলেন!

ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগের (আইপিএল) গত আসরে একটি ছক্কাও হাঁকাতে পারেননি ‘দ্য বিগ শো’ খ্যাত তারকা। তার পারফরম্যান্স ছিল দুঃস্বপ্নের মতো। কিংস ইলেভেন পাঞ্জাবের (বর্তমানে পাঞ্জাব কিংস) হয়ে ১৩ ম্যাচে মোটে ১০৮ রান করেছিলেন ১০১.৮৮ স্ট্রাইক রেটে। তার ব্যাট থেকে চারই এসেছিল কেবল ৯টি! অথচ তাকে দলে ভেড়াতে পাঞ্জাবকে গুণতে হয়েছিল ১০ কোটি ৭৫ লাখ রুপি।

ঠিকানা বদলে এবার ম্যাক্সওয়েল নাম লিখিয়েছেন রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরুতে। আগের মৌসুমের ব্যর্থতার পরও তাকে চড়া দামে কিনেছে ফ্র্যাঞ্চাইজিটি। খরচ করেছে ১৪ কোটি ২৫ লাখ রুপি! তাই অবধারিতভাবে বাড়তি চাপ রয়েছে তার ওপর। সেই চ্যালেঞ্জ সামনে রেখে ম্যাক্সওয়েলের শুরুটা হয়েছে বেশ ভালো।

শুক্রবার আইপিএলের ১৪তম আসরের উদ্বোধনী ম্যাচে শিরোপাধারী মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের মুখোমুখি হয় বেঙ্গালুরু। চেন্নাইয়ের এম চিদাম্বরম স্টেডিয়ামে নাটকীয় লড়াইয়ে তারা পায় ২ উইকেটের জয়। শেষ বলে নিষ্পত্তি হওয়া ম্যাচে ম্যাক্সওয়েল দেখান ঝলক। ২৮ বলে ৩৯ রান করে বেঙ্গালুরুর জয়ে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখেন তিনি। তার আগ্রাসী ইনিংসে ছিল ৩ চার ও ২ ছক্কা।

চারে নামা ম্যাক্সওয়েল মুখোমুখি হওয়া ১৬তম ডেলিভারিতে মারেন বিশাল ছক্কা। দৈর্ঘ্যের হিসাবে যা ছিল ১০০ মিটারেরও বেশি! ক্রুনাল পান্ডিয়ার বলে হাঁকানো ওই ছয়ে খরা কাটান তিনি। আইপিএলে ১৭১ বল পর এটাই তার প্রথম ছক্কা। উইকেটের অন্য প্রান্তে থাকা বেঙ্গালুরু অধিনায়ক বিরাট কোহলিও বিস্মিত হয়ে যান বিশাল ওই ছক্কা দেখে। 

সবমিলিয়ে তাই বেশ স্বস্তি অনুভব করছেন ম্যাক্সওয়েল। দারুণ জয়ের পর ৫ উইকেট নেওয়া সতীর্থ পেসার হার্শাল প্যাটেলের সঙ্গে আলাপচারিতায় তিনি বলেন, ‘অবশ্যই খুব ভালো লেগেছে। গত বছর আমি একটি ছক্কাও মারতে পারিনি। আমি বিরাটকে মনে করিয়ে দিয়েছিলাম যে, গত বছর কোনো ছক্কা মারিনি। অবশেষে মাঝব্যাটে একটি লাগাতে পেরেছি। তাতে কাঁধ থেকে বড় বোঝা নেমে গেছে। ভালোভাবে শুরু করায় দারুণ লাগছে। আরেক প্রান্তে অধিনায়ক থাকায় কাজটা সহজও হয়েছে।’

১৬০ রানের লক্ষ্য তাড়ায় বেঙ্গালুরুর সফলতার মূল কৃতিত্ব অবশ্য এবি ডি ভিলিয়ার্সের। দক্ষিণ আফ্রিকার এই অভিজ্ঞ ব্যাটসম্যান ৪৮ রান করেন মাত্র ২৭ বলে। তার বিস্ফোরক ইনিংসে ছিল ৪ চার ও ২ ছক্কা। তবে ম্যাচসেরার পুরস্কার জেতেন হার্শাল। শেষ বলে জয়সূচক রানটি তার ব্যাট থেকেই আসে।

Comments

The Daily Star  | English

Met office issues second three-day heat alert

Bangladesh Meteorological Department (BMD) today issued a 3-day heat alert as the ongoing heatwave is expected to continue for the next 72 hours

1h ago