অপরাধ ও বিচার

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় হেফাজত নেতাসহ গ্রেপ্তার ১০

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় গত ২৬ থেকে ২৮ মার্চ হেফাজতে ইসলামের কর্মী-সমর্থকদের চালানো তাণ্ডবের ঘটনায় সরাসরি জড়িত থাকার অভিযোগে সংগঠনটির জেলা কমিটির সহকারী প্রচার সম্পাদক ও জামিয়া ইসলামিয়া ইউনুছিয়া মাদ্রাসার শিক্ষক মুফতি মাওলানা জাকারিয়া খানকে (৪৩) গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।
মুফতি মাওলানা জাকারিয়া খান। ছবি: সংগৃহীত

 

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় গত ২৬ থেকে ২৮ মার্চ হেফাজতে ইসলামের কর্মী-সমর্থকদের চালানো তাণ্ডবের ঘটনায় সরাসরি জড়িত থাকার অভিযোগে সংগঠনটির জেলা কমিটির সহকারী প্রচার সম্পাদক ও জামিয়া ইসলামিয়া ইউনুছিয়া মাদ্রাসার শিক্ষক মুফতি মাওলানা জাকারিয়া খানকে (৪৩) গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

গতকাল রোববার মধ্যরাতে জাতীয় বীর আব্দুল কুদ্দুস মাখন পৌর মুক্তমঞ্চের সামনে থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়।

জেলায় তাণ্ডব চালানোর ঘটনায় এই প্রথম হেফাজতের কোনো পদে থাকা নেতাকে গ্রেপ্তার করলো পুলিশ।

জেলা পুলিশের বিশেষ শাখা থেকে পাঠানো সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, গ্রেপ্তারকৃত মুফতি মাওলানা জাকারিয়া খান প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে স্বীকার করেছেন যে, ২৬ থেকে ২৮ মার্চ হেফাজতে ইসলামের কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দের নির্দেশে সরকার উৎখাতের পরিকল্পনার অংশ হিসেবে জামিয়া ইউনুছিয়া মাদ্রাসাসহ আশেপাশের বিভিন্ন মাদ্রাসার ছাত্র-শিক্ষককে নিয়ে ব্যাপক তাণ্ডব চালানো হয়। এ সময় তিনি এবং তার সিনিয়র শিক্ষকদের প্রত্যক্ষ নির্দেশে হেফাজতের কর্মী মাদ্রাসার ছাত্র-শিক্ষকরা জেলার বিভিন্ন সরকারি-বেসরকারি স্থাপনায় ভাংচুর ও অগ্নিসংযোগসহ ব্যাপক তাণ্ডব চালায়।

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় হেফাজতে ইসলামের চালানো তাণ্ডবের ঘটনায় এ পর্যন্ত ৫৬টি মামলায় মোট ৩৬৯ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. রইস উদ্দিন জানান, ঘটনার সময় ধারণ করা স্থিরচিত্র ও সিসিটিভি ক্যামেরা ফুটেজ যাচাই-বাছাই করে অভিযুক্তদেরকে শনাক্ত ও গ্রেপ্তার করা হচ্ছে।

সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, তাণ্ডবের ঘটনায় পুলিশ এখন পর্যন্ত যে ৩৬৯ জনকে গ্রেপ্তার করেছে, তাদের মধ্যে ৩২৮ জন হেফাজতে ইসলামের কর্মী ও সমর্থক, ৩৮ জন বিএনপির নেতাকর্মী এবং তিন জন জামায়াত-শিবিরের কর্মী।

পুলিশ জানায়, হেফাজতে ইসলামের আহ্বানে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার বিভিন্ন মাদ্রাসার ছাত্ররা জেলা শহরসহ তিনটি উপজেলায় ব্যাপক হামলা, ভাঙচুর, অগ্নিসংযোগ ও সহিংসতা চালিয়েছে। তারা পুলিশ সুপারের কার্যালয়, পুলিশ লাইনস, হাইওয়ে থানা, পুলিশ ফাঁড়ি, রেলস্টেশনসহ অন্তত ৫৮টি সরকারি ও বেসরকারি স্থাপনায় হামলা চালায়। এ ছাড়াও আওয়ামী লীগ ও ছাত্রলীগের জেলা পর্যায়ের শীর্ষ নেতাদের বাড়িঘর ও অফিস ভাঙচুর করে।

হামলার পরে অজ্ঞাতনামা ৩৯ হাজার এবং ৪১৪ জনের নাম উল্লেখ করে চারটি থানায় ৫৬টি মামলা দায়ের করা হয়েছে।

এর মধ্যে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর মডেল থানায় ৪৯টি, আশুগঞ্জ থানায় চারটি, সরাইল থানায় দুটি এবং আখাউড়া রেলওয়ে থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়।

 

আরও পড়ুন:

হেফাজত বলছে ‘না’, ছবি বলছে ‘হ্যাঁ’

‘রণক্ষেত্র’ ব্রাহ্মণবাড়িয়া

৩ দিনে ঝরে গেল ১৩ প্রাণ, হেফাজতের দাবি ১৭

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় তাণ্ডব: ৪৫ মামলায় ৩৩ হাজার আসামি, নাম নেই হেফাজতের কারও

আবারও পোড়ানো হলো ‘সুরসম্রাট দি আলাউদ্দিন সঙ্গীতাঙ্গন’

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় তাণ্ডব: ৭ মামলায় হেফাজতের কারও নাম নেই

হেফাজতের তাণ্ডব: ব্রাহ্মণবাড়িয়া পৌরসভার কার্যক্রম বন্ধ ঘোষণা

‘হেফাজতের তাণ্ডব ঠেকাতে ব্যর্থ হয়েছে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা আওয়ামী লীগ’

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় হেফাজতের তাণ্ডব: ১১ মামলা, ১০ হাজারের বেশি আসামি, গ্রেপ্তার ২১

‘রণক্ষেত্র’ ব্রাহ্মণবাড়িয়া

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার ঘটনা তদন্তে ৩ সদস্যের কমিটি

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় বিক্ষোভ, রেলস্টেশন ভাঙচুর

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় তাণ্ডবের ঘটনায় মামলা ৩, আসামি ৬৫০০

ময়নাতদন্ত ছাড়াই দাফন ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় নিহত আশিকের

সরাইলে ফাঁড়িতে হামলা, ১৫ পুলিশ সদস্য আহত

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ভূমি অফিস, গণগ্রন্থাগার, আলাউদ্দিন খাঁ সঙ্গীতাঙ্গনে আগুন

Comments

The Daily Star  | English
Sadarghat launch terminal services

Cyclone Remal: launch services resume after two days

Launch operations on inland waterways from Dhaka resumed this noon after two days of suspension due to Cyclone Remal

9m ago