করোনার ভারতীয় স্ট্রেইন উগান্ডায়

এবার উগান্ডায় শনাক্ত হয়েছে করোনাভাইরাসের ভারতীয় ধরন। সম্প্রতি পূর্ব আফ্রিকান দেশটিতে করোনা আক্রান্তের হার কমে গেলেও আশঙ্কা করা যাচ্ছে যে, ভাইরাসটির ভারতীয় ধরন খুব দ্রুত ছড়িয়ে পড়বে।
UGANDA.jpg
লকডাউনে ক্ষতিগ্রস্ত উগান্ডার জনগণকে ত্রাণ দিচ্ছে সেনাবাহিনী। ছবি: রয়টার্স

এবার উগান্ডায় শনাক্ত হয়েছে করোনাভাইরাসের ভারতীয় ধরন। সম্প্রতি পূর্ব আফ্রিকান দেশটিতে করোনা আক্রান্তের হার কমে গেলেও আশঙ্কা করা যাচ্ছে যে, ভাইরাসটির ভারতীয় ধরন খুব দ্রুত ছড়িয়ে পড়বে। 

দেশটির ঊর্ধ্বতন এক স্বাস্থ্য কর্মকর্তা আজ শুক্রবার রয়টার্সকে জানান, নতুন করে সেদেশে সংক্রমণ বাড়তে পারে।

শুক্রবার রয়টার্সকে সরকার পরিচালিত উগান্ডা ভাইরাস গবেষণা ইনস্টিটিউটের (ইউভিআরআই) প্রধান পন্টিয়ানো কালেবু বলেন, ‘হ্যাঁ, আমরা এমন একজনকে পেয়েছি, যিনি ভারতীয় ভ্যারিয়েন্টে সংক্রমিত হয়েছেন।’

তিনি জানান, কয়েকদিন আগে ভারতফেরত এক নাগরিক উগান্ডায় ঢোকার পর তার করোনা শনাক্ত হয়। তিনি ভারতীয় ধরনটিতে আক্রান্ত হয়েছেন। তবে, তাত্ক্ষণিকভাবে তার সম্পর্কে আর কোনো তথ্য জানা যায়নি।

স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র ইমানুয়েল আইনবিউনা রয়টার্সকে জানান, শুক্রবার দেশটির করোনাভাইরাস টাস্কফোর্স সার্বিক পরিস্থিতি নিয়ে আলোচনা করবে।

এখন পর্যন্ত, আফ্রিকার অন্যান্য অনেক দেশের মতো উগান্ডাতেও তুলনামূলকভাবে করোনাভাইরাস কম সংক্রমিত হয়েছে। তবে, ভারতে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ তীব্র আকারে ছড়িয়ে পড়ায় নতুন করে উদ্বেগ দেখা দিয়েছে। ভারতীয় রূপটি আফ্রিকাতেও ব্যাপকভাবে সংক্রমিত হতে পারে বলে আশংকা করা হচ্ছে।

উগান্ডায় অন্যতম প্রধান রপ্তানিকারক দেশ ভারত, দু’দেশের মধ্যে দৃঢ় সম্পর্কও রয়েছে।

উগান্ডার স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের তথ্য অনুযায়ী, মঙ্গলবার পর্যন্ত দেশটিতে ৪১ হাজার ৭৯৭ জনের সংক্রমণ ও ৩৪২ জন মারা যাওয়ার খবর পাওয়া গেছে।

বৃহস্পতিবার আফ্রিকার রোগ নিয়ন্ত্রণ ও প্রতিরোধ কেন্দ্র (সিডিসি) সতর্ক করেছে যে, ভারতের বিপর্যয়কর পরিস্থিতিতে আফ্রিকার সরকারগুলোকে অবশ্যই সজাগ থাকতে হবে।

সিডিসির প্রধান জন নেকেনগাসং জানান, মহামারি মোকাবিলায় সর্তকতা হিসেবে আফ্রিকান ইউনিয়ন আগামী ৮ মে আফ্রিকান স্বাস্থ্য মন্ত্রীদের নিয়ে একটি বৈঠক আহ্বান করবে।

ভারতে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত আরও তিন লাখ ৮৬ হাজার ৪৫২ জনকে শনাক্ত করা হয়েছে। এটিই এখন পর্যন্ত দেশটিতে ও বিশ্বে একদিনে সর্বোচ্চ শনাক্ত।

দেশটিতে ২৪ ঘণ্টায় করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন আরও তিন হাজার ৪৯৮ জন। করোনায় এ পর্যন্ত ভারতে মারা গেছেন দুই লাখ আট হাজার ৩৩০ জন।

দেশটিতে মোট শনাক্ত হয়েছেন এক কোটি ৮৭ লাখ ৬২ হাজার ৯৭৬ জন। সংক্রমণের দিক থেকে বিশ্বের মধ্যে ভারতের অবস্থান বর্তমানে দ্বিতীয়।

Comments

The Daily Star  | English

Secondary schools, colleges to open from Sunday amid heatwave

The government today decided to reopen secondary schools, colleges, madrasas, and technical education institutions and asked the authorities concerned to resume regular classes and activities in those institutes from Sunday amid the ongoing heatwave

2h ago