যশোরে ৩৯ হাজার মানুষের দ্বিতীয় ডোজ টিকা না পাওয়ার সম্ভাবনা

যশোরে অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার ​করোনাভাইরাসের টিকার প্রথম ডোজ গ্রহণ করা ৩৯ হাজার মানুষ আপাতত পাচ্ছেন না দ্বিতীয় ডোজ।
অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার করোনাভাইরাসের টিকা। ছবি: রয়টার্স

যশোরে অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার করোনাভাইরাসের টিকার প্রথম ডোজ গ্রহণ করা ৩৯ হাজার মানুষ আপাতত পাচ্ছেন না দ্বিতীয় ডোজ।

জেলা সিভিল সার্জন শেখ আবু শাহীন বলেন, ‘সরকার চেষ্টা করছেন দ্রুত টিকা সংগ্রহ করতে। সরবরাহ পাওয়া মাত্রই দ্বিতীয় ডোজ টিকা প্রদান করা হবে।’

তিনি জানান, গত ৭ ফেব্রুয়ারি থেকে সারাদেশের সঙ্গে একযোগে শুরু হয় যশোর জেলায় অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার করোনাভাইরাসের টিকাদান কার্যক্রম। জেলায় এই টিকার প্রথম ডোজ গ্রহণ করেছেন এক লাখ ১৯ হাজার ২৭৩ জন। ৮ এপ্রিল থেকে ১৬ মে পর্যন্ত এই টিকার দ্বিতীয় ডোজ গ্রহণ করেছেন ৭৯ হাজার ৩০৭ জন।

জেলা স্বাস্থ্য বিভাগের কাছে বর্তমানে মজুদ আছে মাত্র ৮৯০ ডোজ টিকা। যা আজ সোমবারের মধ্যেই শেষ হয়ে যাওয়ার কথা।

ফলে প্রথম ডোজ গ্রহণকারী ৩৯ হাজার ৭৬ জন দ্বিতীয় ডোজ গ্রহণ করতে পারবেন না পরবর্তী ধাপে টিকা আসার আগ পর্যন্ত।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের রোগ নিয়ন্ত্রণ বিভাগের (সিডিসি) পরিচালক অধ্যাপক ডা. নাজমুল ইসলাম বলেন, ‘প্রথম ডোজের টিকা গ্রহণের ১২ থেকে ১৬ সপ্তাহ পর্যন্ত গ্রহণ করা যাবে দ্বিতীয় ডোজের টিকা। ফলে টিকা নিয়ে দুশ্চিন্তা করার কোনো কারণ নেই। টিকা আনতে সরকারের সব চেষ্টা অব্যাহত রয়েছে।’

Comments