সাংবাদিক রোজিনাকে হেনস্তা: প্রতিবাদে সরব ক্রীড়া সাংবাদিকেরা

মিরপুর শের-ই-বাংলা ক্রিকেট স্টেডিয়ামে জড়ো হয়ে অবিলম্বে রোজিনার মুক্তির দাবি করেছেন ক্রীড়া সাংবাদিকেরা।
protest rozina

প্রথম আলোর জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক রোজিনা ইসলামকে সচিবালয়ে আটকে রেখে হেনস্তা ও গ্রেপ্তারের ঘটনায় উদ্বেগ প্রকাশের পাশাপাশি প্রতিবাদ জানিয়েছেন ক্রীড়া সাংবাদিকেরা।

মঙ্গলবার মিরপুর শের-ই-বাংলা ক্রিকেট স্টেডিয়ামে জড়ো হয়ে অবিলম্বে রোজিনার মুক্তির দাবি করেছেন তারা। প্রতিবাদ কর্মসূচিতে সাংবাদিকদের হাতে থাকা ব্যানারে লেখা লেখা ছিল, ‘সাংবাদিকতা কোনো অপরাধ নয়’ এবং ‘রোজিনার মুক্তি চাই।’

এই প্রতিবাদ সমাবেশে এসে ক্রীড়া সাংবাদিক নোমান মোহাম্মদ বলেন, ‘পেশাগত কারণে তথ্য সংগ্রহ করা একজন সাংবাদিকের দায়িত্ব, এটা কোনো অপরাধ নয়। সাংবাদিক রোজিনাকে পেশাগত দায়িত্ব পালনে বাধা দিয়ে, হেনস্থা করে অপরাধ করেছেন স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তারা। সাংবাদিক রোজিনা তার প্রতিবেদনের মাধ্যমে অনিয়ম, দুর্নীতি তুলে ধরছিলেন।’

বেসরকারি টেলিভিশন এনটিভির ক্রীড়া প্রতিবেদক বর্ষণ কবির বলেন, সাংবাদিক রোজিনার গলা চেপে ধরে সকল সাংবাদিকদের ভয়ংকর বার্তা দেওয়া হয়েছে, ‘আমরা ছবিতে দেখেছি একজন কর্মকর্তা সাংবাদিক রোজিনার গলা চেপে ধরছেন। এতে করে পুরো সাংবাদিক সমাজকে একটা ভয়ংকর বার্তা দেওয়া হলো। একটি গণতান্ত্রিক দেশের জন্য যা মোটেও সুখকর নয়।’

protest rozina
ছবি: ফিরোজ আহমেদ

বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে বাংলাদেশ জাতীয় ফুটবল দলের অনুশীলন শেষেও প্রতিবাদ জানিয়েছেন সাংবাদিকেরা। তারা অবিলম্বে সাংবাদিক রোজিনার মুক্তি ও মামলা প্রত্যাহারের দাবি করেছেন। 

গতকাল সোমবার পেশাগত দায়িত্ব পালনের জন্য স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ে গেলে সাংবাদিক রোজিনাকে সেখানে পাঁচ ঘণ্টার বেশি সময় আটকে রেখে হেনস্তা করা হয়। এক পর্যায়ে, তিনি অসুস্থ হয়ে পড়েন।

রাত সাড়ে আটটার দিকে পুলিশ রোজিনাকে শাহবাগ থানায় নিয়ে যায়। রাত পৌনে ১২টার দিকে পুলিশ জানায়, রোজিনার বিরুদ্ধে অফিশিয়াল সিক্রেটস অ্যাক্টে মামলা হয়েছে। তাকে এই মামলায় গ্রেপ্তার দেখানো হয়েছে। মঙ্গলবার সকালে তাকে আদালতে হাজির করে রিমান্ডের আবেদন করে পুলিশ। আদালত রিমান্ড নামঞ্জুর করে বৃহস্পতিবার জামিন শুনানির দিন ধার্য করেন। 

এই ঘটনার নিন্দা জানিয়ে বিবৃতি দিয়েছে কমিটি টু প্রটেক্ট জার্নালিস্ট (সিপিজে), অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনালসহ দেশি-বিদেশি বিভিন্ন সংগঠন। এছাড়া, সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে সাংবাদিকসহ বিভিন্ন পর্যায়ের ব্যক্তিরাও প্রতিবাদ জানাচ্ছেন।

Comments

The Daily Star  | English
fire incident in dhaka bailey road

Fire Safety in High-Rise: Owners exploit legal loopholes

Many building owners do not comply with fire safety regulations, taking advantage of conflicting legal definitions of high-rise buildings, said urban experts after a deadly fire on Bailey Road claimed 46 lives.

58m ago