আটকে রেখে নিপীড়ন, ৯৯৯ এ ফোন কলে উদ্ধার ২ কিশোরী

চট্টগ্রামের আগ্রাবাদে একটি বাড়ি থেকে আটকে রাখা দুই কিশোরীকে উদ্ধার করেছে পুলিশ। গ্রেপ্তার করা হয়েছে তিন জনকে।
999 call service

চট্টগ্রামের আগ্রাবাদে একটি বাড়ি থেকে আটকে রাখা দুই কিশোরীকে উদ্ধার করেছে পুলিশ। গ্রেপ্তার করা হয়েছে তিন জনকে।

‘জাতীয় জরুরি সেবা ৯৯৯’ নম্বরে এ দুই কিশোরীকে আটকে রেখে জোর করে যৌনকর্মী হিসেবে কাজ করানো হচ্ছে এমন ফোন কল পেয়ে তাদের উদ্ধার করে চট্টগ্রামের ডবলমুরিং থানা পুলিশ।

পুলিশ জানায়, গতকাল রাত দেড়টার দিকে চট্টগ্রামের আগ্রাবাদ থেকে একজন কলার ৯৯৯ নম্বরে ফোন করে জানান তার মামাতো বোনকে গত ১৭/১৮ দিন ধরে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না। তারা এ কয়দিন অনেক জায়গায় খোঁজাখুঁজি করেও কোনো খোঁজ পাননি। আধা ঘণ্টা আগে তারা খবর পেয়েছেন তার বোনকে আগ্রাবাদের একটি বাড়িতে আটকে রেখে নিপীড়ন করা হচ্ছে। এক ব্যক্তি তাদের এটি জানিয়েছেন। 

৯৯৯ তাৎক্ষণিকভাবে বিষয়টি ডবলমুরিং থানায় জানিয়ে দ্রুত ব্যবস্থা নিতে অনুরোধ জানায়। ৯৯৯ থেকে সংবাদ পেয়ে ডবলমুরিং থানার একটি দল অবিলম্বে ঘটনাস্থলে যায়।

ডবলমুরিং থানার এস আই মাহবুব রাব্বানি অপু জানান, ভোর সাড়ে তিন টায় ডবলমুরিং ঘটনাস্থলে গিয়ে বাড়িটিতে অভিযান ও  তল্লাশি চালিয়ে দুই কিশোরীকে উদ্ধার করা হয়। এসময় পাচারকারী চক্রের এক নারীসহ দুই জনকে গ্রেপ্তার করা হয়। এ বিষয়ে থানায় একটি মামলা হয়েছে।

Comments