আন্তর্জাতিক মাদার তেরেসা পুরস্কারে ভূষিত বাংলাদেশের ৩ শিল্পপতি

সমাজের বিভিন্ন ক্ষেত্রে বিশেষ অবদান রাখার জন্য বাংলাদেশের তিনজন বিশিষ্ট শিল্পপতিকে সম্মানীত করা হয়েছে ‘সেন্ট মাদার তেরেসা ইন্টারন্যাশনাল অ্যাওয়ার্ড’ দিয়ে।
Mother Teresa International Awards 2018
২৩ জানুয়ারি ২০১৮, ভারতের কলকাতার ইস্টার্ন জোনাল কালচারাল সেন্টারে ‘সেন্ট মাদার তেরেসা ইন্টারন্যাশনাল অ্যাওয়ার্ড’ নিচ্ছেন বাংলাদেশের পিএইচপি গ্রুপের চেয়ারম্যান আলহাজ সুফি মহম্মদ মিজানুর রহমান। ছবি: সুব্রত আচার্য

সমাজের বিভিন্ন ক্ষেত্রে বিশেষ অবদান রাখার জন্য বাংলাদেশের তিনজন বিশিষ্ট শিল্পপতিকে সম্মানীত করা হয়েছে ‘সেন্ট মাদার তেরেসা ইন্টারন্যাশনাল অ্যাওয়ার্ড’ দিয়ে।

গতকাল (২৩ জানুয়ারি) সন্ধ্যায় সল্টলেকের ইস্টার্ন জোনাল কালচারাল সেন্টারে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে তাঁদেরকে এই সম্মাননা তুলে দেয় মাদার তেরেসা ইন্টারন্যাশনাল অ্যাওয়ার্ড কমিটি। পুরস্কার প্রাপকদের তালিকায় ২৮জন ভারতীয়ও ছিলেন।

সমাজ সেবায় বিশেষ অবদান রাখায় বাংলাদেশের পিএইচপি গ্রুপের চেয়ারম্যান আলহাজ সুফি মহম্মদ মিজানুর রহমান, গাজী গ্রুপের চেয়ারম্যান বীর প্রতীক গোলাম দস্তগীর গাজী এমপি এবং থার্মাক্স গ্রুপের চেয়ারম্যান আবদুল কবীর মোল্লাকে এই সম্মানে ভূষিত করা হয়।

পশ্চিমবঙ্গের সাবেক রাজ্যপাল ও মাদার তেরেসা ইন্টারন্যাশনাল অ্যাওয়ার্ড কমিটির প্রধান পৃষ্ঠপোষক শ্যামল সেন, কমিটির চেয়ারম্যান অ্যান্থনি অরুণ বিশ্বাস, পশ্চিমবঙ্গের বিধাননগর পুরসভার মেয়র সব্যসাচী দত্ত প্রমুখ ব্যক্তিবর্গ এই অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন।

‘মাদার তেরেসা রত্ন’ পুরস্কারে ভূষিত হন প্রয়াত ভাস্কর আদিত্য। এছাড়াও শিক্ষা, সংস্কৃতি, ক্রীড়া, চিকিৎসা, রাজনীতি, প্রশাসক, সেরা স্কুল, সেরা কলেজসহ একাধিক ক্ষেত্রেও সেরাদেরকে এই আন্তর্জাতিক পুরস্কারে সম্মানিত করা হয়।

সংগীতে বিশেষ অবদানের জন্য এই আন্তর্জাতিক পুরস্কারে ভূষিত হয়েছেন বিদ্রোহী কবি কাজী নজরুল ইসলামের পুত্রবধূ কল্যাণী কাজীসহ চারজন।

মাদার তেরেসার নামাঙ্কিত এই পুরস্কার পেয়ে আলহাজ সুফি মহম্মদ মিজানুর রহমান জানান, “আজকে মাদার তেরেসা কমিটি আমাদের যে অমূল্য ভূষণে ভূষিত করেছে তাতে আমরা অনুপ্রাণিত ও অভিভূত। এই অনুভূতি প্রকাশের কোন ভাষা নেই। আমরা জীবনের শেষ মুহূর্ত পর্যন্ত এই ঘটনাকে স্মরণ রাখবো। মাদার তেরেসা যেমন তাঁর সমস্ত জীবনকে আর্ত-মানবতার জন্য উৎসর্গ করে গেছেন, আমরা যেন প্রত্যেকে সেই ধারাকে অব্যাহত রেখে আমাদের জীবনের পথকে এগিয়ে নিয়ে যেতে পারি। অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়িয়ে তাদের মুখে হাসি ফোটাতে পারি। আজ আমরা অনেক সৌভাগ্যবান, আনন্দিত ও গর্বিত।”

গোলাম দস্তগীর গাজী বলেন, “যে কোন পুরস্কার সবসময়ই আনন্দের। সামাজিক কাজে আমরা সবাই মাদার তেরেসাকে অনুসরণ করে আসছি। তাই তাঁর নামাঙ্কিত পুরস্কার পেয়ে আমি খুবই অনুপ্রাণিত।”

থার্মাক্স গ্রুপের চেয়ারম্যান আবদুল কাদির মোল্লা জানান, “আমার ক্ষুদ্র জীবনে বিভিন্ন সামাজিক কাজে অনেক পুরস্কার পেয়েছি, কিন্তু আজকের মাদার তেরেসা পুরস্কার আমাকে অনেক উৎসাহিত করেছে। এই পুরস্কার আমার উন্নয়নমূলক কাজকে আরও বেগবান করবে। পাশাপাশি আগামীতে আমাকে আরও প্রস্তুত করবে।”

এর আগে এই একই সম্মানে ভূষিত হন বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, প্রাক্তন পররাষ্ট্রমন্ত্রী দীপু মণিসহ বাংলাদেশের বেশ কয়েকজন বিশিষ্ট ব্যক্তি।

Comments