অবশেষে পদ্মা সেতুর দ্বিতীয় স্প্যান বসল

প্রথম স্প্যান বসানোর চার মাস পর পদ্মা সেতুর দ্বিতীয় স্প্যান বসানো হয়েছে। রবিবার সকাল সাড়ে ৮টায় স্প্যানটি খুঁটির ওপর বসানো হয়।
padma bridge second span
দ্বিতীয় স্প্যান বসানোর পর এখন পদ্মা সেতুর ৩০০ মিটার দৃশ্যমান। ছবি: স্টার

প্রথম স্প্যান বসানোর চার মাস পর পদ্মা সেতুর দ্বিতীয় স্প্যান বসানো হয়েছে। রবিবার সকাল সাড়ে ৮টায় স্প্যানটি খুঁটির ওপর বসানো হয়।

শনিবার ৩৮ ও ৩৯ নম্বর খুঁটিতে ৭বি (সুপার স্ট্রাকচার) স্প্যান বসানোর কাজ শুরু হলেও সন্ধ্যা ঘনিয়ে যাওয়ায় কাজ স্থগিত রাখা হয়েছিল। আজ রবিবার বেলা উঠতেই স্প্যান বসানোর কাজ শুরু হয়। ঘড়ির কাঁটায় ঠিক সকাল সাড়ে ৮টায় বিশাল স্প্যানটি পিলারের ওপর নেওয়া হয়। বেয়ারিং ও অস্থায়ী কাঠামোর সাথে এটি সেট করার প্রক্রিয়া চলছে। ৩৮ নম্বর খুঁটিতে স্থাপন করা ৭এ নম্বর প্রথম স্প্যানের সাথের ওয়েল্ডিং করার পর অস্থায়ী কাঠামো সরিয়ে নেওয়া হবে।

ধূসর রঙের ১৫০ মিটার দৈর্ঘ্য ও তিন হাজার ১৪০ টন ওজনের স্প্যানটি খুঁটিতে লেগে যাওয়ার পর পদ্মা সেতু এখন ৩০০ মিটার দৃশ্যমান।

দায়িত্বশীল প্রকৌশলীরা জানিয়েছেন, স্প্যানটি খুঁটির ওপর বসিয়ে দিলেও ক্রেন দিয়ে ঝুলিয়ে রাখা হয়েছে, পুরোপুরি ভার দেওয়া হয়নি। প্রথম স্প্যানের মতই আনুষঙ্গিক কাজ শেষ হওয়ার পর ক্রেনটি সরিয়ে নেওয়া হবে।

পদ্মা সেতুর প্রথম স্প্যানটি বসেছিল গত ৩০ সেপ্টেম্বর। প্রায় চার মাস পর বসল দ্বিতীয় স্প্যান। তবে এখন থেকে প্রতিমাসেই একাধিক স্প্যান বসানো সম্ভব হবে বলে দায়িত্বশীলরা মনে করছেন।

তবে এবার স্প্যান বসানো নিয়ে কোন আনুষ্ঠানিকতা ছিল না। কোন সংবাদকর্মীকেও সেখানে প্রবেশ করতে দেওয়া হয়নি। প্রকৌশলীরা বলেছেন, প্রথম স্প্যান বসানোর সময় আনুষ্ঠানিকতা ছিল। এখন ঘন ঘনই স্প্যান বসবে। আনুষ্ঠানিকতা আর হবে না।

দায়িত্বশীল এক প্রকৌশলী গতকাল জানান, শনিবার স্প্যান বহনকারী ক্রেনের জাহাজটি খুঁটি থেকে মাত্র ২শ’ ফুট দূরে ছিল। স্প্যান বসানোর কাজে দায়িত্বরত সার্ভেয়ার মীর ফারুক হোসেন সিএসসি বলেন, তিন হাজার ৬০০ টন উত্তোলনক্ষমতার ভাসমান ক্রেনের জাহাজ “তিয়ান ইয়াহাও” স্প্যানটিকে পাঁজা করে ধরে খুঁটি দুটোর ওপর বসিয়ে দেয়। এই কাজের আগে ওয়েট টেস্ট, বেজ প্লেট, দৈর্ঘ্য, পাইল পজিশন, টায়াল লোড টেস্ট, মেজারমেন্টসহ যাবতীয় আনুষঙ্গিক পরীক্ষা নিরীক্ষা সম্পন্ন করা হয়।

মীর ফারুক হোসেন জানান, স্প্যানটি শনিবার বসানোর কথা থাকলেও খুঁটির কাছে পৌঁছতেই দিনের আলো শেষ হয়ে যায়। আর স্প্যান বসানোর পরও অনেক কাজ থাকে যা রাতে করা সম্ভব নয় তাই রবিবার সকালে বসানো হল।

Comments

The Daily Star  | English
MP Azim’s body recovery

Feud over gold stash behind murder

Slain lawmaker Anwarul Azim Anar and key suspect Aktaruzzaman used to run a gold smuggling racket until they fell out over money and Azim kept a stash worth over Tk 100 crore to himself, detectives said.

4h ago