যেসব চলচ্চিত্রে অভিনয়ের প্রস্তাব ফিরিয়ে দিয়েছিলেন শ্রীদেবী

বলিউডে প্রথম সুপারস্টার অভিনেত্রী শ্রীদেবী শুধু হিন্দি চলচ্চিত্র্রেমীদের কাছেই জনপ্রিয় নন। তাঁর ব্যাপক জনপ্রিয়তা রয়েছে দক্ষিণ ভারতের চলচ্চিত্র জগতেও। তিনি তামিল, কানাড়া ও মালায়ালম ভাষার চলচ্চিত্রে অভিনয়ের পর আসেন হিন্দি চলচ্চিত্রের কেন্দ্রভূমি বলিউডে। তাই এই চারটি ভাষার চলচ্চিত্রে অভিনয় করার প্রস্তাব তাঁকে সবসময় ঘিরে রেখেছিলো।
Sridevi
বলিউডের প্রথম সুপারস্টার অভিনেত্রী শ্রীদেবী। ছবি: সংগৃহীত

বলিউডে প্রথম সুপারস্টার অভিনেত্রী শ্রীদেবী শুধু হিন্দি চলচ্চিত্র্রেমীদের কাছেই জনপ্রিয় নন। তাঁর ব্যাপক জনপ্রিয়তা রয়েছে দক্ষিণ ভারতের চলচ্চিত্র জগতেও। তিনি তামিল, কানাড়া ও মালায়ালম ভাষার চলচ্চিত্রে অভিনয়ের পর আসেন হিন্দি চলচ্চিত্রের কেন্দ্রভূমি বলিউডে। তাই এই চারটি ভাষার চলচ্চিত্রে অভিনয় করার প্রস্তাব তাঁকে সবসময় ঘিরে রেখেছিলো।

তিন দশকের অভিনয়-জীবনে তিন শতাধিক চলচ্চিত্রে অভিনয়ের পরও শ্রীদেবীকে ফিরিয়ে দিতে হয়েছে অনেক চলচ্চিত্রে অভিনয়ের প্রস্তাব।

১৯৯০ এর দশকটিকে শ্রীদেবীর অভিনয় ক্যারিয়ারে স্বর্ণযুগ হিসেবে দেখা হয়। এই দশকটি শুরুই হয়েছিলো বলিউডে শ্রীদেবীর ব্যাপক দর্শকপ্রিয়তার মধ্য দিয়ে। কেননা, তত দিনে তিনি বলিউডের ‘চাঁদনি’ বনে গিয়েছিলেন।

পরিচালক শশী কাপুর চেয়েচিলেন শ্রীদেবী এবং অমিতাভ বচ্চনকে নিয়ে একটি সিনেমা তৈরি করতে। সেই মোতাবেক তিনি সাজাতে থাকেন ‘আজুবা’-র গল্প। কিন্তু, এই দুজন তারকাকে এক মঞ্চে আনতে গিয়ে বেড়ে যায় ছবি নির্মাণের খরচ। ১৯৯১ সালে মুক্তি পাওয়া ‘আজুবা’-য় অভিনয় করার প্রস্তাব শ্রীদবেী প্রত্যাখান করেছিলেন বিগ বি-র সমান পারিশ্রমিক না দেওয়ার কারণে।

১৯৯২ সালে মুক্তি পাওয়া ‘বেটা’-র পরিচালক ইন্দ্র কুমার চেয়েছিলেন ছবিটিতে অভিনেত্রী শ্রীদেবী অভিনয় করুক অনিল কাপুরের বিপরীতে। কিন্তু তিনি তা প্রত্যাখান করেন। কারণ হিসেবে শ্রীদেবী জানান যে তিনি অনিলের সঙ্গে আগেও বেশ কয়েকটি চলচ্চিত্রে অভিনয় করেছেন। পরে সেই চরিত্রে মাধুরী দীক্ষিত অভিনয় করে ফিল্ম ফেয়ার পুরস্কার লাভ করেছিলেন।

১৯৯৩ সালে অভিনেতা শাহরুখ খানের বিপরীতে ‘ডর’ ছবিতে অভিনয়ের প্রস্তাব ফিরিয়ে দিয়েছিলেন শ্রীদেবী। ছবিটির নির্মাতা চেয়েছিলেন শ্রীদেবী প্রধান নায়িকার ভূমিকায় অভিনয় করুক। কিন্তু, একই ধরনের একটি চরিত্রে আগে অভিনয় করেছেন এমন কথা বলে সেই প্রস্তাব ফিরিয়ে দেন তিনি। পরে এই চরিত্রে অভিনয় করেছিলেন জুহি চাওলা। এটি জুহির অভিনয়-জীবনে একটি মাইলফলক হয়েছিলো।

২০০০ সালের বলিউড ব্লকবাস্টার ‘মোহাব্বাতে’ এ অভিনয় করেছিলেন অমিতাভ বচ্চন, শাহরুখ খান ও ঐশ্বরিয়া রাই। খবরে প্রকাশ, সেই চলচ্চিত্রে অভিনয়ের জন্যে শ্রীদেবীকে প্রস্তাব দেওয়া হয়েছিলো। কিন্তু, তিনি তা ফিরিয়ে দেওয়ায় সেই চরিত্রটিই সিনেমা থেকে বাদ দিতে হয়েছিলো।

ভারতের চলচ্চিত্রে ইতিহাস সৃষ্টিকারী ‘বাহুবলী’-তে অভিনয়ের প্রস্তাব ফিরিয়ে দিয়েছিলেন শ্রীদবেী। কেননা, সে সময় তিনি দক্ষিণ ভারতে আরেকটি কাজে ব্যস্ত হয়ে পড়েছিলেন। অগত্যা, সেই চরিত্রে অভিনয় করেছিলেন রামা কৃষনান।

২০০৩ সালে মুক্তি পায় পরিচালক রবি চোপড়ার ‘বাগবান’। এতে অভিনয় করেছিলেন অমিতাভ বচ্চন এবং সালমান খান। ছবিটিতে অভিনয়ের প্রস্তাব ফিরিয়ে দিয়েছিলেন শ্রীদেবী। তাঁর মতে, এমন একটি চলচ্চিত্রের মাধ্যমে তিনি আবার রূপালি পর্দায় ফিরে আসতে চান না।

উল্লেখ্য, দীর্ঘ বিরতির পর শ্রীদেবী বড় পর্দায় ফিরে এসেছিলেন পরিচালক গৌরি শিন্দের কমেডি ‘ইংলিশ ভিংলিশ’-এ অভিনয়ের মাধ্যমে। ছবিটি ২০১২ সালে মুক্তি পায়।

থ্যসূত্র: টাইমস অব ইন্ডিয়া

Comments

The Daily Star  | English

Lifting curfew depends on this Friday

The government may decide to reopen the educational institutions and lift the curfew in most places after Friday as the last weekend saw large-scale violence over the quota-reform protest.

10h ago