শীর্ষ খবর

কোটা সংস্কারের দাবিতে রাস্তায় বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা

সরকারি চাকরিতে কোটা সংস্কারের দাবিতে বিক্ষোভ দেখিয়েছেন ঢাকার বেশ কয়েকটি বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা। কোটা সংস্কারে সরকারের আশ্বাসের প্রেক্ষিতে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের একাংশ কর্মসূচি স্থগিতের ঘোষণা প্রত্যাখ্যান করে আজ তারা রাস্তায় নেমে আসেন। অবিলম্বে কোটা সংস্কারের দাবি জানিয়ে তারা বলছেন কোটা সংস্কার না হওয়া পর্যন্ত তারা আন্দোলন চালিয়ে যাবেন।
কোটা সংস্কার আন্দোলন
কোটা সংস্কারের দাবিতে রাজধানীর শুক্রাবাদে ড্যাফোডিল ইউনিভার্সিটির শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভ। ছবি: সংগৃহীত

সরকারি চাকরিতে কোটা সংস্কারের দাবিতে বিক্ষোভ দেখিয়েছেন ঢাকার বেশ কয়েকটি বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা। কোটা সংস্কারে সরকারের আশ্বাসের প্রেক্ষিতে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের একাংশ কর্মসূচি স্থগিতের ঘোষণা প্রত্যাখ্যান করে আজ তারা রাস্তায় নেমে আসেন।

আজ মঙ্গলবার ইস্ট ওয়েস্ট ইউনিভার্সিটি, ড্যাফোডিল ইউনিভার্সিটি, স্টেট ইউনিভার্সিটি, নর্থ সাউথ ইউনিভার্সিটি ও ইন্ডিপেনডেন্ট ইউনিভার্সিটির মত বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা এই আন্দোলনে যোগ দেন। শিক্ষার্থীরা রাস্তা আটকে বিক্ষোভ দেখানোয় বেশ কয়েকটি এলাকায় যান চলাচল বন্ধ হয়ে যায়।

শুক্রাবাদে ড্যাফোডিল ইউনিভার্সিটির শিক্ষার্থীরা মিরপুর রোডে অবস্থান নিলে গুরুত্বপূর্ণ এই রাস্তাটির যান চলাচল বন্ধ হয়ে যায়। সেখানে প্রায় ৪০০ শিক্ষার্থী অবিলম্বে কোটা সংস্কারের দাবিতে স্লোগান দেন। অন্যদিকে স্টেট ইউনিভার্সিটির শিক্ষার্থীরা অবস্থান নিয়েছেন ধানমন্ডির ২৭ নম্বর সড়কে।

ড্যাফোডিল ইউনিভার্সিটির দশম সেমিস্টারের ছাত্র রকিবুল আলম লিপটন দ্য ডেইলি স্টারকে বলেন, “চলমান কোটা ব্যবস্থা অযৌক্তিক। এই পদ্ধতি সংস্কার না হওয়া পর্যন্ত আমরা আন্দোলন চালিয়ে যাবো।”

কোটা সংস্কার আন্দোলন
রামপুরা ব্রিজে ইস্ট ওয়েস্ট ইউনিভার্সিটির শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভ। ছবি: সংগৃহীত

অন্যদিকে নর্থ সাউথ ও ইনডিপেন্ডেন্ট ইউনিভার্সিটির শিক্ষার্থীরা দুপুর ১টার দিকে রাস্তায় নেমে এলে যমুনা ফিউচার পার্ক থেকে বসুন্ধরা আবাসিক এলাকার গেট পর্যন্ত যান চলাচল বন্ধ হয়ে যায় বলে জানিয়েছেন ভাটারা থানার ওসি কামরুজ্জামান।

কোটা সংস্কারের দাবিতে গত রবিবার দেশব্যাপী পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় ও কলেজে অবস্থান ধর্মঘটের মধ্যে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় এলাকায় ব্যাপক সহিংস ঘটনা ঘটে। রবিবার সন্ধ্যা থেকে আন্দোলনকারীদের ওপর দফায় দফায় পুলিশ ও সরকারদলীয় ছাত্র সংগঠন ছাত্রলীগ হামলা চালায়। সোমবারও ঢাবি ক্যাম্পাসে ছাত্রলীগ ও শিক্ষার্থীদের মধ্যে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটে।

এর মধ্যেই গতকাল বিকালে সচিবালয়ে আন্দোলনকারীদের প্রতিনিধিদের সাথে সরকারের পক্ষ থেকে আলোচনায় বসেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। বৈঠক শেষে শিক্ষার্থীরা জানায় সরকার তাদের দাবি পূরণের প্রতিশ্রুতি দেওয়ায় ৭ মে পর্যন্ত কর্মসূচি স্থগিত থাকবে। তবে আন্দোলনকারীদের আরেকটি অংশ কোটা সংস্কার না হওয়া পর্যন্ত ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে কর্মসূচি চালিয়ে যাওয়ার ঘোষণা দিয়েছে।

Comments