পরীক্ষা বর্জনের সিদ্ধান্ত স্থগিত, ক্লাস বর্জন চালিয়ে যাওয়ার ঘোষণা

রমজান মাস ও সেশন জটের কথা বিবেচনায় পরীক্ষা বর্জনের সিদ্ধান্ত স্থগিত করেছে কোটা সংস্কারের দাবিতে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীরা। তবে কোটা বাতিলের প্রজ্ঞাপন জারি না হওয়া পর্যন্ত ক্লাস বর্জন চালিয়ে যাওয়ার ঘোষণা দিয়েছেন তারা।
রমজান মাস ও সেশন জটের কথা বিবেচনা করে পরীক্ষা বর্জনের কর্মসূচি স্থগিত করার ঘোষণা দিয়েছেন কোটা সংস্কারের দাবিতে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীরা। আজ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে সংবাদ সম্মেলন করে তারা এই ঘোষণা দেন। ছবি: আশিক আব্দুল্লাহ অপু

রমজান মাস ও সেশন জটের কথা বিবেচনায় পরীক্ষা বর্জনের সিদ্ধান্ত স্থগিত করেছে কোটা সংস্কারের দাবিতে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীরা। তবে কোটা বাতিলের প্রজ্ঞাপন জারি না হওয়া পর্যন্ত ক্লাস বর্জন চালিয়ে যাওয়ার ঘোষণা দিয়েছেন তারা।

আজ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে সংবাদ সম্মেলন করে এসব কথা জানিয়েছেন এই আন্দোলনের নেতৃত্ব দেওয়া বাংলাদেশ সাধারণ শিক্ষার্থী অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের নেতারা।

সংগঠনটির যুগ্ম আহ্বায়ক নুরুল হক নূর সংবাদ সম্মেলনে বলেন, রমজান ও সেশন জটের কথা ভেবে আমরা অনির্দিষ্টকালের জন্য পরীক্ষা বর্জনের সিদ্ধান্ত থেকে সরে এসেছি। তবে ক্লাস বর্জন চলবে।

কোটা বাতিলে প্রধানমন্ত্রীর ঘোষণা প্রজ্ঞাপন আকারে জারি করার জন্য ১৩ মে বিকেল ৫টা পর্যন্ত সময় বেঁধে দিয়েছিল বাংলাদেশ সাধারণ শিক্ষার্থী অধিকার সংরক্ষণ পরিষদ। দাবি পূরণ না হওয়ায় ১৪ মে থেকে দেশের সব বিশ্ববিদ্যালয় ও কলেজে অনির্দিষ্টকালের জন্য ক্লাস-পরীক্ষা বর্জন করার ঘোষণা দেন তারা।

সরকারি চাকরিতে কোটা ব্যবস্থার সংস্কারের দাবিতে গত মাসে সারা দেশে কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী ও চাকরিপ্রার্থীরা ক্লাস পরীক্ষা বর্জন করে আন্দোলনে নামেন। ঢাকায় শিক্ষার্থীরা শাহবাগ মোড়ে অবস্থান নেওয়ার পর ৮ এপ্রিল রাতে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় এলাকায় পুলিশ ও সরকার দলীয় ছাত্র সংগঠন ছাত্রলীগের সঙ্গে আন্দোলনকারীদের ব্যাপক সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এর প্রেক্ষিতে ১১ এপ্রিল প্রধানমন্ত্রী সংসদে দাঁড়িয়ে চাকরি থেকে কোটা তুলে দেওয়ার ঘোষণা দেন।

Comments

The Daily Star  | English

NBR suspends Abdul Monem Group's import, export

It also instructs banks to freeze the Group's bank accounts

40m ago