ভারতে বিশ্বকাপ খেলতে প্রধানমন্ত্রীর দ্বারস্থ পাকিস্তান

বিশ্বকাপ খেলতে ভারতে যাওয়ার জন্য অনুমতি চেয়ে প্রধানমন্ত্রী শেহবাজ শরিফ এবং স্বরাষ্ট্র ও পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় বরাবর চিঠি লিখেছে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি)।

বিশ্বকাপ শুরু হতে আর মাস তিনেকের মতো বাকি। অথচ এখনও নিশ্চিত হয়নি বিশ্বকাপ অংশ নিবে কি-না পাকিস্তান। নিরুপায় হয়ে ভারতে যাওয়ার জন্য এবার সরকারের দ্বারস্থ হয়েছে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি)। অনুমতি চেয়ে প্রধানমন্ত্রী শেহবাজ শরিফ এবং স্বরাষ্ট্র ও পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় বরাবর চিঠি লিখেছে দেশটির ক্রিকেটের নিয়ন্ত্রক সংস্থা। এমন সংবাদই প্রকাশ করেছে ক্রিকেটভিত্তিক ওয়েবসাইট ইএসপিএন ক্রিকইনফো।

সরকারী ছাড়পত্র ছাড়া ভারত সফর করতে পারবে না পাকিস্তান দল। তাই তাদের ভারত সফরের অনুমতি দেয়া হচ্ছে কি-না জানতে চেয়েছে পিসিবি। আর দেওয়া হলেও যে পাঁচটি ভেন্যুতে ম্যাচ খেলবে পাকিস্তান, সেইগুলো নিয়ে কোনো সংশয় রয়েছে কি-না তাও জানতে চেয়েছে তারা! একই সঙ্গে একটি প্রতিনিধি দল পাঠিয়ে যাবতীয় ব্যবস্থা খতিয়ে দেখার বিষয়েও পরামর্শ চেয়েছে পিসিবি।

পিসিবির তরফ থেকে ক্রিকইনফোকে জানানো হয়েছে, 'গত মঙ্গলবার বিশ্বকাপের ক্রীড়া সূচি ঘোষণার পরপরই, আমরা আমাদের পৃষ্ঠপোষক, প্রধানমন্ত্রী মহম্মদ শেহবাজ শরিফকে আন্তঃপ্রাদেশিক সমন্বয় (আইপিসি) মন্ত্রণালয়ে চিঠি লিখেছি। এর পাশাপাশি বিশ্বকাপে অংশগ্রহণের জন্য স্বরাষ্ট্র এবং পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়েও চিঠি লিখে ভারতে যাওয়ার জন্য ছাড়পত্রের অনুরোধ জানিয়েছি।'

'ভারত সফরের বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেওয়ার পাশাপাশি আমাদের ম্যাচগুলো যে ভেন্যুতে খেলব, সেইগুলোর অনুমোদন করার সিদ্ধান্তও পাকিস্তান সরকার নেবে। আমাদের সরকারের রায়ের উপর আমাদের সম্পূর্ণ আস্থা রয়েছে এবং যা পরামর্শ দেওয়া হবে, সেটা অনুসরণ করব। এটি সম্পূর্ণ ভাবে সরকারের উপর নির্ভর করছে। পরবর্তী পদক্ষেপ নেওয়ার আগে যদি ভেন্যুগুলি পরিদর্শন করা এবং ইভেন্ট আয়োজকদের সঙ্গে বৈঠক করার জন্য ভারতে একটি প্রতিনিধি দল পাঠানোর প্রয়োজন হয়, তবে এটি সম্পূর্ণ ভাবে সরকার সিদ্ধান্ত নেবে।' যোগ করে আরও জানিয়েছে পিসিবি।

বিশ্বকাপে এবার মোট পাঁচটি শহরে নয় ম্যাচ খেলবে পাকিস্তান। এরমধ্যে ১৫ অক্টোবর আহমেদাবাদে খেলবে ভারতের বিপক্ষে। তবে দুই দেশের রাজনৈতিক জটিলতার কারণে ২০০৮ সালের পর কোনো  দ্বিপাক্ষিক সিরিজ খেলেনি দলদুটি। কেবল আইসিসি টুর্নামেন্ট এবং এসিসি একে অপরের মুখোমুখি হয়েছে তারা। সবশেষ ২০১৬ সালে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ খেলতে ভারতে এসেছিল পাকিস্তান।

Comments

The Daily Star  | English

No protests tomorrow

At least six people were killed in three districts, including the capital, in clashes between Chhatra League and quota reform protesters today.

1h ago