সুরিয়ার মতো একজনকে পেয়ে আমি ভাগ্যবান: পান্ডিয়া

সুরিয়াকুমারের ব্যাটেই আগের দিন জয় পায় ভারত। ক্যারিবিয়ানদের বিপক্ষে এদিন খেলেছেন হার না মানা ৮৩ রানের ইনিংস। ১০টি চার ও ৪টি ছক্কায় গড়া এই ইনিংসটি খেলেছেন ৪৪ বল মোকাবেলা করে।

টানা দুই ম্যাচ হেরে দেওয়ালে পিঠ থেকে গিয়েছিল ভারতের। তৃতীয় ম্যাচটিতে হারলে সিরিজ খুইয়ে বসতো তারা। বাঁচা-মরার এই ম্যাচে ক্যারিবিয়ানদের হারিয়ে টিকে রইল ভারত। আর সে জয়ের মূলনায়ক সুরিয়াকুমার যাদব। তার মতো ব্যাটারকে দলে পেয়ে নিজেকে তাই ভাগ্যবান মনে করছেন অধিনায়ক হার্দিক পান্ডিয়া।

মঙ্গলবার গায়ানার প্রভিডেন্স স্টেডিয়ামে সিরিজের তৃতীয় ম্যাচে ওয়েস্ট ইন্ডিজকে ৭ উইকেটে হারিয়েছে ভারত। প্রথমে ব্যাট করতে নেমে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৫ উইকেটে ১৫৯ রান করে ক্যারিবিয়ানরা। জবাবে ১৩ বল বাকি থাকতেই জয়ের বন্দরে নোঙ্গর করে সফরকারীরা।

তবে লক্ষ্য তাড়ায় ভারতের শুরুটা এদিনও ভালো হয়নি। দলীয় ৩৪ রানেই দুই ওপেনারকে হারিয়ে ফেলে তারা। এরপর তরুণ তিলক শর্মাকে নিয়ে দলের হাল ধরেন সুরিয়াকুমার। গড়েন ৮৭ রানের জুটি। এরপর তিলক ফিরে গেলেও বাকি কাজ অধিনায়ক পান্ডিয়াকে নিয়ে শেষ করেন সুরিয়াকুমার।

ম্যাচ শেষে তাই সুরিয়াকুমারের উচ্ছ্বসিত প্রশংসাই করেন অধিনায়ক, 'সুরিয়া-তিলক অসাধারণ খেলেছে। তারা দুইজনে একসঙ্গে খেলে এবং তারা একে অপরকে বোঝে। আমি ভাগ্যবান যে সুরিয়ার মতো একজনকে পেয়েছি। ও এই ধরনের চ্যালেঞ্জ পছন্দ করে। ও দায়িত্ব নিতে চায়। দলের মধ্যে অনেক আত্মবিশ্বাস নিয়ে আসে।'

শেষ পর্যন্ত নিজেদের পরিকল্পনা বাস্তবায়ন করে জয় তুলে নিতে পেরে দারুণ খুশি পান্ডিয়া, 'এই জয়টা খুব গুরুত্বপূর্ণ। আমরা আসল জিনিসটাই বলছি, এই সিরিজের ম্যাচগুলি আমাদের কাছে অনেক গুরুত্বপূর্ণ হয়ে উঠছে। এই ম্যাচে আমাদের ফিরে আসতে হয়েছে। দুটি হার বা দুটি জয় কিছু পরিবর্তন করে না। আমাদের একটা দীর্ঘমেয়াদী পরিকল্পনা রয়েছে। এটা গুরুত্বপূর্ণ যে আমরা আমাদের চরিত্র অনুযায়ী খেলেছি।'

বর্তমান সময়ের ভারতীয় দলের অন্যতম স্তম্ভই সুরিয়াকুমার। টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে তার রেকর্ড বরাবরই ভালো। ক্যারিবিয়ানদের বিপক্ষে এদিন খেলেছেন হার না মানা ৮৩ রানের ইনিংস। ১০টি চার ও ৪টি ছক্কায় গড়া এই ইনিংসটি খেলেছেন ৪৪ বল মোকাবেলা করে। আর কিছুটা এগোলে হয়তো টি-টোয়েন্টিতে চতুর্থ সেঞ্চুরি পেয়ে যেতে পারতেন সুরিয়া।

Comments