কেপটাউন টেস্ট

সিরাজের আগুনে বিব্রতকর পরিস্থিতিতে পড়ল দক্ষিণ আফ্রিকা

কেপটাউনে বুধবার দ্বিতীয় টেস্টের প্রথম সেশনে মাত্র ৫৫ রানে অলআউট হয়ে গেছে দক্ষিণ আফ্রিকা। টেস্টে এরচেয়ে কম রানে আরও ৭ বার অলআউটের নজির আছে তাদের তবে সর্বশেষ ঘটনা খুঁজতে যেতে হবে সেই ১৯৩২ সালে।
mohammed siraj

সেঞ্চুরিয়নে ইনিংস ব্যবধানে হারের বদলা নিতে মরিয়া হয়ে কেপটাউনে নেমেছিল ভারত। কতটা মরিয়া তারা সেটা দেখা গেল পারফরম্যান্সে। সহায়ক কন্ডিশন পেয়ে জ্বলে উঠলেন পেসাররা। বিশেষ করে মোহাম্মদ সিরাজ স্যুয়িংয়ের পসরায় বিধ্বস্ত করে দিলেন প্রোটিয়াদের। ৯২ বছর পর টেস্টে সবচেয়ে কম রানে গুটিয়ে গেল দক্ষিণ আফ্রিকা।

কেপটাউনে বুধবার দ্বিতীয় টেস্টের প্রথম সেশনে মাত্র ৫৫ রানে অলআউট হয়ে গেছে দক্ষিণ আফ্রিকা। টেস্টে এরচেয়ে কম রানে আরও ৭ বার অলআউটের নজির আছে তাদের তবে সর্বশেষ ঘটনা খুঁজতে যেতে হবে সেই ১৯৩২ সালে। সেবার অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে মাত্র ৩৬ রানে গুটিয়ে গিয়েছিলো তারা। দক্ষিণ আফ্রিকা বিধ্বস্ত করে দিতে মাত্র ১৫ রানে ৬ উইকেট নেন সিরাজ। জাসপ্রিট বুমরাহ আর মুকেশ কুমার নেন দুটি করে উইকেট।

 

সিরিজ জেতার মিশনে এদিন টস জিতে আগে ব্যাটিং বেছে নিয়েছিলো দক্ষিণ আফ্রিকা। সিদ্ধান্তটা বুমেরাং হতে দেরি হয়নি। রবীচন্দ্রন অশ্বিনকে বসিয়ে চার পেসার একাদশে নিয়ে ভারত নামে আগ্রাসী মেজাজে।

চতুর্থ ওভারে গিয়ে প্রথম উইকেট পান সিরাজ। এইডেন মার্কামকে স্লিপে ক্যাচ বানান তিনি। নিজের পরের ওভারে শেষ টেস্ট খেলতে নামা ডিন এলগারকে বোল্ড করে পান দ্বিতীয় উইকেট।

সিরাজের স্যুয়িং বলের ঝাঁজ দেখে সামিল হন বুমরাহ। টেম্বা বাভুমার জায়গায় নামা ট্রিস্টিয়ান স্টাবসকে তুলে নেন তিনি। আরেক পাশে সিরাজের আগুন জ্বলতেই থাক। তাতে পুড়ে টনি ডি জর্জি, ডেভিড বেডিংহামরা ধরেন ড্রেসিংরুমের পথ।

মার্ক ইয়ানসেনকে কিপারের হাতে ক্যাচ বানিয়ে ৩৪ রানেই ৬ উইকেট ফেলে নিজের পাঁচ উইকেট পুরো করে ফেলেন সিরাজ। চরম ব্যাটিং বিপর্যয়ে মাত্র দুজন ব্যাটার যেতে পেরেছেন দুই অঙ্কে। তার একজন কিপার ব্যাটার কাইল ভেরেইনাকে আউট করে নিজের ৬ষ্ঠ শিকার ধরেন সিরাজ।

কোনমতে পঞ্চাশ পেরুনোর পর আর এগুতে পারেনি স্বাগতিকরা। মুকেশ আর বুমরাহ মিলে পরে দ্রুত মুড়ে দেন প্রোটিয়া ইনিংস।

Comments

The Daily Star  | English

China has agreed to pay $2b to Bangladesh in grants, loans: PM

Prime Minister Sheikh Hasina said today that at her bilateral meeting with the Chinese President on July 10, Xi Jinping mentioned four areas of assistance in grants, interest-free loans, concessional loans and commercial loans

1h ago