'রিয়াল মাদ্রিদে কোনো কিছুই অসম্ভব না'

সহজ জয়ে লা লিগার পয়েন্ট তালিকার শীর্ষে থাকা চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী বার্সেলোনার সঙ্গে ব্যবধান কমিয়েছে রিয়াল। ২১ ম্যাচে বার্সার অর্জন ৫৬ পয়েন্ট। সমান ম্যাচে ৪৮ পয়েন্ট নিয়ে দুইয়ে অবস্থান করছে বর্তমান চ্যাম্পিয়ন রিয়াল।
ছবি: এএফপি

৮ পয়েন্ট এগিয়ে থাকা বার্সেলোনা স্প্যানিশ লা লিগার শিরোপা জয়ের দৌড়ে ছুটছে দুর্বার গতিতে। এই ব্যবধান মিটিয়ে ফেলে রিয়াল মাদ্রিদের পক্ষে চ্যাম্পিয়ন হওয়া সম্ভব? ফরাসি মিডফিল্ডার এদুয়ার্দো কামাভিঙ্গা আশা হারাচ্ছেন না। কারণ, দলটার নাম রিয়াল।

ঘরের মাঠ সান্তিয়াগো বার্নাব্যুতে বুধবার রাতে এলচের বিপক্ষে ৪-০ গোলে জিতেছে রিয়াল। প্রথমার্ধের শুরুতেই মার্কো আসেনসিও এগিয়ে দেন দলকে। দুই অর্ধে পেনাল্টি থেকে দুবার লক্ষ্যভেদ করেন করিম বেনজেমা। দ্বিতীয়ার্ধের শেষদিকে লস ব্লাঙ্কোদের বড় জয় নিশ্চিত করেন লুকা মদ্রিচ।

সহজ জয়ে লা লিগার পয়েন্ট তালিকার শীর্ষে থাকা চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী বার্সেলোনার সঙ্গে ব্যবধান কমিয়েছে রিয়াল। ২১ ম্যাচে বার্সার অর্জন ৫৬ পয়েন্ট। সমান ম্যাচে ৪৮ পয়েন্ট নিয়ে দুইয়ে অবস্থান করছে বর্তমান চ্যাম্পিয়ন রিয়াল। এখনও বাকি রয়েছে আসরের ১৭ ম্যাচ।

গত মৌসুমে নাটকীয়ভাবে উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগের শিরোপা জিতেছিল রিয়াল। পিএসজি, চেলসি ও ম্যানচেস্টার সিটির বিপক্ষে খাদের কিনারা থেকে ঘুরে দাঁড়িয়েছিল তারা। কার্লো আনচেলত্তির শিষ্যরা লিখেছিল প্রত্যাবর্তনের অবিশ্বাস্য সব গল্প। সেই উদাহরণ টেনে কামাভিঙ্গা গণমাধ্যমকে বলেছেন, 'এই ক্লাবে কোনো কিছুই অসম্ভব না। গত বছর চ্যাম্পিয়ন্স লিগে সেটা আমরা দেখেছি। এবার লা লিগা জেতার জন্য আমরা শেষ পর্যন্ত লড়াই করব।'

লিগে সবশেষ নয় ম্যাচের চারটিতে পয়েন্ট হারিয়েছে রিয়াল। অন্যদিকে, টানা ছয় ম্যাচের জয়রথে আছে বার্সেলোনা। গত অক্টোবরে রিয়ালের মাঠে ৩-১ গোলে পরাস্ত হওয়ার পর আর হারেনি তারা। ফলে বেশ বড় ব্যবধান তৈরি করে চূড়ায় রয়েছে দলটি।

২০ বছর বয়সী কামাভিঙ্গা সমর্থকদের প্রতি প্রকাশ করেছেন কৃতজ্ঞতা, 'ভক্তদেরকে তাদের সমর্থনের জন্য ধন্যবাদ জানাই এবং এই জয়ে আমরা আনন্দিত। দল এখন একটা ভালো রূপে আছে এবং আমরা ধারাবাহিকটাও বজায় রাখতে চাই। সামনে খুব কঠিন একটা মাস রয়েছে। আমরা নিজেদের সবকিছু উজাড় করে দিব।'

Comments

The Daily Star  | English

Getting the price right for telecom consumers

In a price-sensitive market like Bangladesh, the price of telecom services quite often makes the headlines

2h ago