ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের 'বিতর্কিত' জয়

কোনো মতে জয় পেলেও তা নিয়ে বিতর্ক থাকছেই।

দলের একাধিক খেলোয়াড় চলে গেলেও বিকল্প খেলোয়াড় টানা যায়নি। তার উপর দিন তিনেক আগেই কোচ হুলেন লোপেতেগিকে হারায় উলভারহ্যাম্পটন। সেই দলটিকে হারাতেই হিমশিম খেতে হলো ইংলিশ জায়ান্ট ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডকে। কোনো মতে জয় পেলেও তা নিয়ে বিতর্ক থাকছেই।

ওল্ড ট্রাফোর্ডে সোমবার রাতে ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগে নিজেদের প্রথম ম‍্যাচে উলভসকে ১-০ গোলে হারিয়েছে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড। ম্যাচের একমাত্র গোলটি আসে অভিজ্ঞ ডিফেন্ডার রাফায়েল ভারানের কাছ থেকে।

পুরো ম্যাচে সেভাবে খুঁজেই পাওয়া যায়নি অ্যান্তনি, মার্কাস রাশফোর্ড, আলেহান্দ্রো গার্নাচোদের। সুযোগ তৈরি হলেও অ্যাটাকিং থার্ডে গিয়েই খেই হারিয়েছে তা। সুযোগ কাজে লাগাতে পারেনি উলভসের ফরোয়ার্ডরাও। অন্যথায় ম্যাচের ফলাফল ভিন্নও হতে পারতো।

ম্যাচের শেষ দিকে পেনাল্টির জোরালো দাবি তুলেছিল সফরকারীরা। এমনকি কার্ডও দেখতে পারতেন ইউনাইটেড গোলরক্ষক ওনানা। ডি-বক্সে ঢুকে যাওয়া উলভসের কালাদিচকে থামাতে গিয়ে বল আর ধরতে পারেননি। ফেলে দেন কালাদিচকে। কিন্তু রেফারি বিষয়টি এড়িয়ে যান। বিস্ময়করভাবে ভিএআরের সিদ্ধান্তও যায় ইউনাইটেডের পক্ষে। 

তবে গোল করার মতো সুযোগ পেয়েছিল ইউনাইটেডই। দ্বাদশ মিনিটে র‍্যাশফোর্ডের শট ঠেকিয়ে দেন উলভস গোলরক্ষক হোসে সা। ২৭তম মিনিটে গোল পেতে পারতো উলভসও। নিজেদের অর্ধ থেকে বল নিয়ে ডি-বক্সের কাছে এসে পাবলো সারাবিয়াকে পাস দেন ম্যাথিয়াস কুনহা। স্প‍্যানিশ মিডফিল্ডারের বারপোস্ট ঘেঁষে লক্ষ্যভ্রষ্ট হয়।

ছয় মিনিট পর আর্জেন্টাইন ডিফেন্ডার লিসান্দ্রো মার্তিনেজকে পেছনে ফেলে বল নিয়ে ঢুকে নেওয়া কুনহার শট অল্পের জন্য লক্ষ্যে থাকেনি। দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতেই এগিয়ে যেতে পারত সফরকারীরা। গোলমুখে বল পেয়ে পোস্টে মেরে সুবর্ণ সুযোগ হাতছাড়া করেন কুনহা।

৭২তম মিনিটে পাল্টা আক্রমণে আরও একটি দারুণ সুযোগ পায় তারা। ডি-বক্সে ফাঁকায় বল পেয়েও গোলরক্ষক বরাবর শট নেন পেদ্রো নেতো। এর চার মিনিট পর কাঙ্ক্ষিত গোল পায় ইউনাইটেড। ভ্যান-বিসাখার ক্রস থেকে দারুণ এক হেডে লক্ষ্যভেদ করেন ভারানে।

Comments

The Daily Star  | English

Govt primary schools asked to suspend daily assemblies

The government has directed to suspend daily assemblies at all its primary schools across the country until further notice due to the ongoing heatwave

23m ago