‘যদি নেতিবাচক চিন্তা করি, মনে হবে আমি ভীরু’

দক্ষিণ আফ্রিকা থেকে টেস্ট সিরিজ খেলে কয়েকভাগে দেশে ফিরছে বাংলাদেশ দল। বুধবার প্রথমভাগে কয়েনজনকে নিয়ে ফেরেন মুমিনুল। বিমানবন্দরে গণমাধ্যমের অনেক প্রশ্নের জবাব দিতে হয়েছে তাকে।
Mominul Haque
ছবি- ফিরোজ আহমেদ

নিউজিল্যান্ডে দারুণ এক জয় পেয়ে প্রত্যাশা বাড়িয়ে দক্ষিণ আফ্রিকায় টেস্ট খেলতে গিয়েছিল বাংলাদেশ দল। সেখানে গিয়ে পুড়তে হয়েছে হতাশায়। চরম বিবর্ণ পারফরম্যান্স বড় করেছে অনেকগুলো প্রশ্ন। আসছে শ্রীলঙ্কা সফরে বড় কোন বিপর্যয় হলে কি হবে? এমন প্রশ্নে একদম বিচলিত হলেন না মুমিনুল হক।

দক্ষিণ আফ্রিকা থেকে টেস্ট সিরিজ খেলে কয়েকভাগে দেশে ফিরছে বাংলাদেশ দল। বুধবার প্রথমভাগে কয়েনজনকে নিয়ে ফেরেন মুমিনুল। বিমানবন্দরে গণমাধ্যমের অনেক প্রশ্নের জবাব দিতে হয়েছে তাকে।

বাংলাদেশের টেস্ট দলের সম্ভাব্য অবস্থা নিয়ে চলছে খতিয়ান। দক্ষিণ আফ্রিকায় স্পিনারদের বলে নাজেহাল হওয়ার পর শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ঘরের মাঠে আরও বড় কোন চ্যালেঞ্জে পড়তে হয় কিনা এই শঙ্কা এখন প্রবল। স্পিন শক্তি হিসেবে প্রোটিয়াদের চেয়ে খানিকটা হলেও এগিয়ে লঙ্কানরা।

ঘরের মাঠে যদি কোন বিব্রতকর পরিস্থিতি দেখা দেয় হবে কি হতে পারে দলের? মুমিনুল জানালেন, খেলার মাঠে অনেক কিছুই হতে পারে, সেসব নিয়ে ভেবে ভয়ে কাবু নন তারা। বরং এগুতে চান চলমান সংকট দূর করে, 'আমি যদি নেতিবাচক চিন্তা করি, আমার কাছে মনে হবে আমি ভীরু। ওরকম চিন্তা করলে… দেখুন, আগে জিতে যখন ফিরেছি, তখন এসেছি এই জায়গায়। আমি যদি ভীতু হতাম বা আমার মধ্যে যদি ভয়-ভীতি থাকত, এই সিরিজের পর প্রেস কনফারেন্সে আসতাম না। আমি যেরকমই ছিলাম, সেরকমই আছি।"

'আমার কাছে যেটা গুরুত্বপূর্ণ, এই সিরিজে যে ভুল করেছি, পরের সিরিজে যেন না করি। পুনরাবৃত্তি হলে সেটা দেখার বিষয়।'

ঈদের ছুটির পর ৮ মে বাংলাদেশে আসবে শ্রীলঙ্কা দল। বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের অংশ হিসেবে খেলবে দুই টেস্ট। মুমিনুলের আশা আগে অনেকবার যেভাবে বাজে অবস্থা থেকে ঘুরে দাঁড়িয়েছেন তারা, এবারও হবে তেমনটাই,  'পরিকল্পনা তো অবশ্যই আছে (ঘুরে দাঁড়ানোর)। সবাই চিন্তা করে এসব নিয়ে। এমন না যে এই প্রথম আমরা এই পরিস্থিতিতে পড়েছি। আগেও অনেক পড়েছি। বেরও হয়েছি এখান থেকে। আমরা জানি কীভাবে এখান থেকে বের হতে হবে।'

বিপর্যয় থেকে বের হলেও এক সিরিজেই ব্যাপক উন্নতি সম্ভব না, এই কথাও মনে করিয়ে দিলেন বাংলাদেশ অধিনায়ক,   'টেস্টে যদি বলেন উন্নতির কথা, টেস্ট যদি আগামী দুই বছরও খেলি, সারা জীবনও খেলি, টেস্টে উন্নতির শেষ নেই। টেস্ট খেলা ওয়ানডের মতো নয়, এখানে পাঁচদিনে সব জায়গায়, সব বিভাগে, ব্যাটিং হোক বা বোলিং, প্রতিটি জায়গা প্রতিটি দিন গুরুত্বপূর্ণ। ভালো জায়গায় বল করা, সেশন ধরে ব্যাট করা, পরিস্থিতি অনুযায়ী ব্যাট করা… টেস্টে আমাদের অনেক উন্নতি করা লাগবে। এটা আমি সব সময় বলি, ম্যাচ জিতলে বলি, হারলেও বলি।'

Comments

The Daily Star  | English

Sugar market: from state to private control

Five companies are enjoying an oligopoly in the sugar market, which was worth more than Tk 9,000 crore in fiscal year 2022-23, as they have expanded their refining capacities to meet increasing demand.

2h ago